অটোরিকশার ব্যাটারি চার্জে স্কুলের বিদ্যুৎ ব্যবহার করায় চালককে জরিমানা - স্কুল - দৈনিকশিক্ষা

অটোরিকশার ব্যাটারি চার্জে স্কুলের বিদ্যুৎ ব্যবহার করায় চালককে জরিমানা

বড়লেখা (মৌলভীবাজার) প্রতিনিধি |

সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের বিদ্যুৎ ব্যবহার করে অটোরিকশার ব্যাটারি চার্জ দেয়ার দায়ে এক চালককে জরিমানা করেছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত। মৌলভীবাজারের বড়লেখা উপজেলার গজভাগ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে এই ঘটনাটি ঘটেছে।

অপরদিকে সরকারি ভবনে অবৈধভাবে চার্জের ব্যবস্থা করায় রিকশা মালিক ও ঐ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আপ্তাব আলীকে শোকজ করেছে উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা কার্যালয়।

গত মঙ্গলবার দিবাগত রাত ১০টার দিকে ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করেন বড়লেখা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. শামীম আল ইমরান।

ভ্রাম্যমাণ আদালত ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার দক্ষিণভাগ ইউনিয়নের গজভাগ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আপ্তাব আলীর ব্যক্তিগত চারটি ব্যাটারিচালিত অটোরিকশা রয়েছে। এগুলোর ব্যাটারিতে চার্জ দিতে প্রতিরাতে তিনি অবৈধভাবে সরকারি ঐ বিদ্যালয়ের বিদ্যুৎ ব্যবহার করতেন। বিদ্যালয়ের বারান্দায় সহজে রিকশা ওঠানো ও নামানোর জন্য এর আগে মূল সিঁড়ির নকশা পরিবর্তন করে সঙ্গে আরও তিনটি সিঁড়ি নির্মাণ করেন। ভবনের প্রথম তলার সিঁড়ির নিচে চার্জ দেয়ার জন্য আলাদা সুইচ বোর্ডেরও ব্যবস্থা করেন। বেশ কয়েকদিন থেকে বিদ্যালয়ে রিকশার চারটি ব্যাটারি চার্জ দেয়া হচ্ছে। চালক রাতে বিদ্যালয় ভবনের কলাপসিবল গেটের তালা খুলে একটি রিকশাসহ ব্যাটারি চার্জে লাগিয়ে চলে যেতেন। সকালে এসে তালা খুলে আবার রিকশাসহ ব্যাটারিগুলো নিতেন। বিষয়টি নিয়ে এলাকার লোকজনের মাঝে ক্ষোভ দেখা দেয়। সম্প্রতি তারা এ বিষয়ে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কাছে মৌখিক অভিযোগ করেন। স্থানীয়দের অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে মঙ্গলবার রাত ১০টার দিকে সরেজমিনে গজভাগ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে যান ইউএনও মো. শামীম আল ইমরান। এ সময় তিনি অভিযোগের সত্যতা পান। পরে বিদ্যালয়ে অবৈধভাবে বিদ্যুৎ ব্যবহার করে ব্যাটারি চার্জ দেয়ার অপরাধে বিদ্যুৎ আইনে অটোরিকশা চালক সোহেল আহমদকে ১০ হাজার টাকা জরিমানা করেন। এছাড়া বিনা অনুমতিতে সরকারি ভবনের নকশা পরিবর্তন এবং অবৈধভাবে বিদ্যুৎ ব্যবহারের ব্যবস্থা করায় রিকশা মালিক ঐ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আপ্তাব আলীর বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তাকে নির্দেশ দেন।

বড়লেখা উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা রফিজ মিঞা বুধবার বলেন, ‘সরকারি স্কুলের বিদ্যুৎ অবৈধভাবে ব্যবহারের সত্যতা পাওয়া গেছে। প্রধান শিক্ষক তার ব্যক্তিগত রিকশার ব্যাটারি চার্জ দিতে স্কুলের বিদ্যুৎ ব্যবহার করতেন। আপ্তাব আলীকে শোকজ করা হয়েছে। এছাড়া তার বিরুদ্ধে বিধি মোতাবেক প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের প্রস্তুতি চলছে।’

বড়লেখা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. শামীম আল ইমরান বুধবার বলেন,‘স্থানীয়দের অভিযোগ পেয়ে রাতে ঐ স্কুলে যাই। স্কুলের বিদ্যুৎ ব্যবহার করে ব্যাটারি চার্জ দেয়ার সত্যতা পাওয়া যায়। রিকশা প্রধান শিক্ষকের। তিনি অনুমতি ছাড়া সরকারি ভবনের ডিজাইন পরিবর্তন করে সিঁড়ি তৈরি করেন। অবৈধভাবে স্কুলের বিদ্যুৎ ব্যবহার করে ব্যাটারি চার্জের ব্যবস্থা করেছেন। চালককে জরিমানা করা হয়েছে। প্রধান শিক্ষকের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তাকে নির্দেশ দেয়া হয়েছে।’

এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষায় পাস ৮২ দশমিক ৮৭ শতাংশ - dainik shiksha এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষায় পাস ৮২ দশমিক ৮৭ শতাংশ দাখিলে পাস ৮২ দশমিক ৫১ শতাংশ - dainik shiksha দাখিলে পাস ৮২ দশমিক ৫১ শতাংশ এসএসসি ভোকেশনালে পাস ৭২ দশমিক ৭০ শতাংশ - dainik shiksha এসএসসি ভোকেশনালে পাস ৭২ দশমিক ৭০ শতাংশ ১০৪টি প্রতিষ্ঠানে কেউ পাস করতে পারেনি - dainik shiksha ১০৪টি প্রতিষ্ঠানে কেউ পাস করতে পারেনি এসএসসির ফল পুনঃনিরীক্ষার আবেদন ৭ জুনের মধ্যে - dainik shiksha এসএসসির ফল পুনঃনিরীক্ষার আবেদন ৭ জুনের মধ্যে এখনই শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খুলছে না : প্রধানমন্ত্রী - dainik shiksha এখনই শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খুলছে না : প্রধানমন্ত্রী দাখিলের ফল জানবেন যেভাবে - dainik shiksha দাখিলের ফল জানবেন যেভাবে ৬ জুন থেকে একাদশ শ্রেণিতে ভর্তির প্রক্রিয়া শুরুর প্রস্তাব - dainik shiksha ৬ জুন থেকে একাদশ শ্রেণিতে ভর্তির প্রক্রিয়া শুরুর প্রস্তাব এসএসসি ও সমমান পরীক্ষার ফল জানবেন যেভাবে - dainik shiksha এসএসসি ও সমমান পরীক্ষার ফল জানবেন যেভাবে এসএসসি-দাখিল ভোকেশনালের ফল জানবেন যেভাবে - dainik shiksha এসএসসি-দাখিল ভোকেশনালের ফল জানবেন যেভাবে নন-এমপিও শিক্ষকদের তালিকা তৈরিতে ৯ নির্দেশ - dainik shiksha নন-এমপিও শিক্ষকদের তালিকা তৈরিতে ৯ নির্দেশ কলেজে ভর্তি : দৈনিক শিক্ষায় বিজ্ঞাপন পাঠান ইমেইলে - dainik shiksha কলেজে ভর্তি : দৈনিক শিক্ষায় বিজ্ঞাপন পাঠান ইমেইলে বিশ্ববিদ্যালয়ের ছুটি বাড়ল ১৫ জুন পর্যন্ত - dainik shiksha বিশ্ববিদ্যালয়ের ছুটি বাড়ল ১৫ জুন পর্যন্ত ঘরে বসেই পরীক্ষা নেয়ার চিন্তা - dainik shiksha ঘরে বসেই পরীক্ষা নেয়ার চিন্তা শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ছুটি ১৫ জুন পর্যন্ত, ৩১ মে থেকে অফিস-আদালত খুলছে - dainik shiksha শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ছুটি ১৫ জুন পর্যন্ত, ৩১ মে থেকে অফিস-আদালত খুলছে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া - dainik shiksha জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া please click here to view dainikshiksha website