আন্তর্জাতিক র‌্যাংকিংয়ে আবারও খুলনা বিশ্ববিদ্যালয় - বিশ্ববিদ্যালয় - দৈনিকশিক্ষা

আন্তর্জাতিক র‌্যাংকিংয়ে আবারও খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়

খুবি প্রতিনিধি |

স্পেনের সিমাগো ল্যাব ও যুক্তরাষ্ট্রের স্কপাস পরিচালিত (ইনডেক্স জার্নাল ভিত্তিক) জরিপে আবারও আন্তর্জাতিক র‌্যাংকিংয়ে স্থান করে নিয়েছে খুলনা বিশ্ববিদ্যালয় (খুবি)। প্রথম এক হাজার বিশ্ববিদ্যালয়ের মধ্যে খুবি সামগ্রিক অবস্থান এবার এগিয়েছে। বিশ্বের ৭০২৬টি বিশ্ববিদ্যালয় ও গবেষণা প্রতিষ্ঠানের ওপর জরিপে এ তথ্য উঠে এসেছে।

প্রথম এক হাজার বিশ্ববিদ্যালয়ের মধ্যে উদ্ভাবনীতে গতবছরের চেয়ে ২৮ ধাপ এগিয়ে ৪২১তম স্থানে এবং দেশের মধ্যে ১ম, সামাজিক প্রভাব ক্যাটাগরিতে অবস্থান ৫ ধাপ এগিয়ে এবছর ২৩৭ এবং দেশের মধ্যে ৬ষ্ঠ অবস্থানে রয়েছে। তবে গবেষণায় গতবছরের চেয়ে কিছুটা পিছিয়ে ৪৯৫তম স্থানে এবং দেশের মধ্যে ১০ অবস্থানে রয়েছে।

এছাড়া দেশের বিশ্ববিদ্যালয়সমূহের মধ্যে সার্বিক ক্যাটাগরিতে গতবছরও দ্বিতীয় অবস্থানে ছিল খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়। এবছরও সে অবস্থান অক্ষুন্ন রয়েছে। ২০১৯ সালে পরিচালিত এ অন্তর্জাতিক প্রতিষ্ঠানের গবেষণায় খুলনা বিশ্ববিদ্যালয় প্রথমবার দেশের বিশ্ববিদ্যালয়সমূহের মধ্যে উদ্ভাবনীতে প্রথম, গবেষণায় দ্বিতীয় এবং সামাজিক গবেষণায় ৬ষ্ঠ স্থান লাভ করে।

এদিকে আজ শুক্রবার এক অভিনন্দন বার্তায় খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মোহাম্মদ ফায়েক উজ্জামান ২০১৯ সালের পর দ্বিতীয়বারের মতো এবছরও আন্তর্জাতিক র‌্যাংকিংয়ে স্থান পাওয়ায় এবং দেশের মধ্যে উদ্ভাবনীতে শীর্ষে থেকে সার্বিক ক্যাটাগরিতে অবস্থান ধরে রাখায় সবাইকে অভিনন্দন ও শুভেচ্ছা জানিয়েন।

অভিনন্দন ও শুভেচ্ছা বার্তায় তিনি বলেন, দেশে উচ্চশিক্ষা ও গবেষণার মানোন্নয়নে প্রধানমন্ত্রীর সদিচ্ছা, সরকারের অবিরাম সহায়তা ও ইউজিসির ঐকান্তিক প্রচেষ্টা এই অর্জনে মুখ্য ভূমিকা রেখেছে। এজন্য প্রধানমন্ত্রী, শিক্ষামন্ত্রীসহ সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয় এবং ইউজিসির চেয়ারম্যানসহ সংশ্লিষ্ট সবার প্রতি আন্তরিক ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা।

প্যানেলে শিক্ষক নিয়োগে প্রধানমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ দাবি - dainik shiksha প্যানেলে শিক্ষক নিয়োগে প্রধানমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ দাবি ‘টেনশনে’ হৃদযন্ত্রের ক্রিয়া বন্ধ হয়ে আহমদ শফীর মৃত্যু, দাবি ছেলের - dainik shiksha ‘টেনশনে’ হৃদযন্ত্রের ক্রিয়া বন্ধ হয়ে আহমদ শফীর মৃত্যু, দাবি ছেলের শিক্ষা জাতীয়করণে কার বেশি লাভ? - dainik shiksha শিক্ষা জাতীয়করণে কার বেশি লাভ? ২৪ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত সংসদ টিভিতে ডিপ্লোমা-ভোকেশনাল ক্লাসের রুটিন - dainik shiksha ২৪ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত সংসদ টিভিতে ডিপ্লোমা-ভোকেশনাল ক্লাসের রুটিন চাকরি সরকারি অবসর বেসরকারি: সরকারিকৃত কলেজ শিক্ষকদের বোবাকান্না - dainik shiksha চাকরি সরকারি অবসর বেসরকারি: সরকারিকৃত কলেজ শিক্ষকদের বোবাকান্না হাটহাজারী মাদরাসা পরিচালনায় সিনিয়র ৩ শিক্ষক - dainik shiksha হাটহাজারী মাদরাসা পরিচালনায় সিনিয়র ৩ শিক্ষক শিক্ষার ক্ষতি পোষাতে বিশেষ প্রকল্প - dainik shiksha শিক্ষার ক্ষতি পোষাতে বিশেষ প্রকল্প please click here to view dainikshiksha website