আন্দোলনকারী শিক্ষকের মৃত্যু - সমিতি সংবাদ - Dainikshiksha

আন্দোলনকারী শিক্ষকের মৃত্যু

নিজস্ব প্রতিবেদক |

‘বাদপড়া’ চার হাজারের বেশি প্রাথমিক বিদ্যালয় সরকারিকরণের দাবিতে আন্দোলনকারী একজন শিক্ষকের মৃত্যু হয়েছে (ইন্না...রাজেউন)। তার নাম জাকির হোসেন। তিনি ফরিদপুরের মধুখালীর হাটঘাটা বেসরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক হিসেবে কর্মরত ছিলেন। শুক্রবার (১২ জুলাই) রাত সাড়ে ১১টার দিকে ঢাকার ইবনেসিনা হাসপাতালে  চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান তিনি। বাংলাদেশ বেসরকারি প্রাথমিক শিক্ষক সমিতির সভাপতি মামুনুর রশিদ খোকন শনিবার বিকেলে দৈনিকশিক্ষা ডটকমকে এ তথ্য জানান। 

তিনি বলেন, হাট ঘাটা বেসরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মো.জাকির হোসেন চার হাজারের বেশি প্রাথমিক বিদ্যালয় সরকারিকরণের দাবিতে চলমান আন্দোলনের অংশ নিতে ঢাকায় এসেছিলেন। 'কয়েকদিন আগে প্রেসক্লাবে অবস্থানকালে অসু্স্থ হয়ে পরেন তিনি। তাঁকে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে ফরিদপুরে পাঠানো হয়। পরে তাঁকে ফরিদপুর ডায়বেটিক হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। তারপর ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। কিন্তু অবস্থার অবনতি হলে ঢাকায় এনে তাকে ইবনেসিনা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পরে চিকিৎসাধীন অবস্থায় গতকাল রাত সাড়ে ১১টার দিকে তিনি মৃত্যুবরণ করেন।

উল্লেখ্য, ‘বাদপড়া’ চার হাজারের বেশি প্রাথমিক বিদ্যালয় সরকারিকরণের দাবিতে শনিবার (১৩ জুলাই) জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে ১১তম দিনের মতো আমরণ অনশন কর্মসূচি পালন করছেন কয়েকশ শিক্ষক।

সরকার সাফ বলে দিয়েছে যোগ্য সব প্রাথমিক বিদ্যালয় সরকারিকরণ করা হয়েছে। আর কোনও প্রাথমিক বিদ্যালয় সরকারিকরণ করা হবে না। দেশের কোথাও প্রাথমিক বিদ্যালয় স্থাপনের দরকার হলে তার সরকার করবে। ব্যক্তি উদ্যোগে প্রতিষ্ঠা করা কোনও  প্রাথমিক বিদ্যালয় আর সরকারি করা হবে না। 

তবে, আন্দোলনকারী শিক্ষকরা দাবি করছেন তারা সরকারের প্রাথমিক বিদ্যালয় সরকারিকরণ প্রক্রিয়া থেকে বাদ পড়েছে। তাই আন্দোলন করে সরকারিকরণের দাবি করে যাচ্ছেন। অপরদিকে সরকার ২৬ হাজারের বেশি যোগ্য ও বৈধভাবে প্রতিষ্ঠিত বিদ্যালয় সরকারিকরণ করেছে।     

প্রাথমিক শিক্ষকরা ৩৬ হাজার টাকা বেতন পান : গণশিক্ষা প্রতিমন্ত্রী - dainik shiksha প্রাথমিক শিক্ষকরা ৩৬ হাজার টাকা বেতন পান : গণশিক্ষা প্রতিমন্ত্রী প্রাথমিকের শিক্ষক নিয়োগের চূড়ান্ত ফল নভেম্বরে - dainik shiksha প্রাথমিকের শিক্ষক নিয়োগের চূড়ান্ত ফল নভেম্বরে তিন বছরের চুক্তিতে প্রাথমিকে দপ্তরী নিয়োগ দেয়া হবে - dainik shiksha তিন বছরের চুক্তিতে প্রাথমিকে দপ্তরী নিয়োগ দেয়া হবে প্রাথমিকের শিক্ষক নিয়োগের মৌখিক পরীক্ষা অক্টোবরে - dainik shiksha প্রাথমিকের শিক্ষক নিয়োগের মৌখিক পরীক্ষা অক্টোবরে ‘শিক্ষা প্রশাসনে জামাতীরা বহাল, কিন্তু মুক্তিযুদ্ধের পক্ষের শক্তিকে পরীক্ষা দিতে হয়’ - dainik shiksha ‘শিক্ষা প্রশাসনে জামাতীরা বহাল, কিন্তু মুক্তিযুদ্ধের পক্ষের শক্তিকে পরীক্ষা দিতে হয়’ প্রাথমিকে শিক্ষক নিয়োগের ফল দেখুন - dainik shiksha প্রাথমিকে শিক্ষক নিয়োগের ফল দেখুন বুয়েটের ভর্তি পরীক্ষা ১৪ অক্টোবর - dainik shiksha বুয়েটের ভর্তি পরীক্ষা ১৪ অক্টোবর এইচএসসি পরীক্ষার সূচি প্রকাশ - dainik shiksha এইচএসসি পরীক্ষার সূচি প্রকাশ কোন পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের কবে ভর্তি পরীক্ষা, এক নজরে - dainik shiksha কোন পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের কবে ভর্তি পরীক্ষা, এক নজরে শিক্ষার এক্সক্লুসিভ ভিডিও দেখতে দৈনিক শিক্ষার ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন - dainik shiksha শিক্ষার এক্সক্লুসিভ ভিডিও দেখতে দৈনিক শিক্ষার ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া - dainik shiksha জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া please click here to view dainikshiksha website