এমপিওভুক্তি: মাদরাসা ও কারিগরির আবেদন শুরু ২৬ আগস্ট - এমপিও - Dainikshiksha

এমপিওভুক্তি: মাদরাসা ও কারিগরির আবেদন শুরু ২৬ আগস্ট

নিজস্ব প্রতিবেদক |

মাদরাসা ও কারিগরি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান এমপিওভুক্তির জন্য অনলাইনে আবেদন নেয়া শুরু হচ্ছে ২৬ আগস্ট। চলবে ১৪ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত। প্রতিষ্ঠানের যোগ্যতা অনুসারে স্বয়ংক্রিয়ভাবে ক্রমিক সাজাবে সফটওয়্যার। এরপর কতগুলো প্রতিষ্ঠান এমপিওভুক্ত করা হবে সরকারের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী সে তালিকা করা হবে। কারিগরি ও মাদ্রাসা শিক্ষা বিভাগের অতিরিক্ত-সচিব (প্রশাসন ও উন্নয়ন) এ. কে. এম. জাকির হোসেন ভুঞা সোমবার (২০ আগস্ট) দৈনিক শিক্ষাডটকমকে এতথ্য নিশ্চিত করেছেন।

এর আগে গত ৫ আগস্ট থেকে ননএমপিও সাধারণ স্কুল ও কলেজ এমপিওভুক্তির আবেদন নেয়া শুরু হয় । শেষ হয় ২০ আগস্ট। 

শিক্ষা মন্ত্রণালয় সূত্র জানায়, অনলাইনে এমপিওভুক্তির আবেদনের লিংক পাওয়া যাবে কারিগরি ও মাদসারা শিক্ষা বিভাগ (টিএমইডি, কারিগরি শিক্ষা অধিদপ্তর, মাদরাসা শিক্ষা অধিদপ্তর, ব্যানবেইস, কারিগরি শিক্ষা বোর্ড এবং মাদরাসা শিক্ষা বোর্ডের ওয়েবসাইটে। ওয়েবসাইটে ঢুকে এ সফটওয়্যারের মাধ্যমে আবেদন করতে হবে। সফটওয়্যারে তিনটি প্রয়োজনীয় আইকন (Icon) দেখা যাবে। এতে আবেদনের প্রয়োজনীয় নির্দেশনা দেওয়া থাকবে। এমপিও প্রত্যাশী শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের প্রধানরা নির্দেশনা অনুসরণ করে সহজেই অনলাইনে আবেদন ফরম পূরণ করতে পারবেন।

আবেদন করা শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের গ্রেডিং করার জন্য প্রয়োজনীয় তথা শিক্ষার্থীর সংখ্যা, পাবলিক পরীক্ষায় অংশগ্রহণকারী শিক্ষার্থীর সংখ্যা ও পাসের হারসহ বিভিন্ন তথ্য ব্যানবেইস ও শিক্ষা বোর্ডের ডাটা বেইস থেকে ইমপুট করা হবে। এসব তথ্যের ভিত্তিতে এমপিও নীতিমালার শর্তানুযায়ী শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের গ্রেডিং তালিকা স্বয়ংক্রিয়ভাবে তৈরি হবে।

বর্তমানে সারাদেশে স্বীকৃতিপ্রাপ্ত হাজার হাজার নন-এমপিও শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান আছে। ২০১০ খ্রিস্টাব্দের পর নতুন করে আর কোনো শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান এমপিওভুক্ত করা হয়নি। এমপিওভুক্ত হলে শিক্ষক-কর্মচারীরা মূল বেতনসহ কিছু ভাতা সরকার থেকে পান। এর নাম এমপিও। গত বছরের ডিসেম্বর ও চলতি বছরের জানুয়ারির শুরুতে এসব শিক্ষক-কর্মচারী জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে আমরণ অনশনসহ লাগাতার কর্মসূচি শুরু করেছিলেন।  তখন একপর্যায়ে প্রধানমন্ত্রীর পক্ষ থেকে তাঁর তৎকালীন একান্ত সচিব সাজ্জাদুল হাসান সেখানে গিয়ে এমপিওভুক্তির আশ্বাস দিলে আন্দোলন স্থগিত করা হয়। কিন্তু অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত ২০১৮-১৯ অর্থবছরের যে বাজেট বক্তৃতা দেন, সেখানে নতুন এমপিওভুক্তির বিষয়ে স্পষ্ট বক্তব্য না থাকায় শিক্ষক-কর্মচারীরা ফের আন্দোলনে নামেন। দেশের স্বীকৃতি পাওয়া সব বেসরকারি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান এমপিওভুক্তির দাবিতে গত ২৫ জুন থেকে আমরণ অনশন করে আসছিলেন এই শিক্ষক-কর্মচারীরা। এর আগে গত ১০ জুন থেকে একই জায়গায় তাঁরা অবস্থান কর্মসূচি পালন করে আসছিলেন। ১১ জুলাই বেলা তিনটার পরপর জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনের সড়কের উত্তর পাশে বিশিষ্ট নাগরিকেরা উপস্থিত হয়ে শিক্ষকদের অনুরোধ করলে তাঁরা অনশন ভাঙেন।

আলিমের নম্বর বণ্টন প্রকাশ - dainik shiksha আলিমের নম্বর বণ্টন প্রকাশ এমপিওভুক্ত হচ্ছেন স্কুল-কলেজের ৯০৯ শিক্ষক - dainik shiksha এমপিওভুক্ত হচ্ছেন স্কুল-কলেজের ৯০৯ শিক্ষক সরকারি হল আরও ৪৩ প্রতিষ্ঠান - dainik shiksha সরকারি হল আরও ৪৩ প্রতিষ্ঠান পদোন্নতি পাচ্ছেন সরকারি হাইস্কুলের সাড়ে পাঁচ হাজার শিক্ষক - dainik shiksha পদোন্নতি পাচ্ছেন সরকারি হাইস্কুলের সাড়ে পাঁচ হাজার শিক্ষক বিশেষ মঞ্জুরীর টাকার আবেদন করা যাবে ৩১ অক্টোবর পর্যন্ত - dainik shiksha বিশেষ মঞ্জুরীর টাকার আবেদন করা যাবে ৩১ অক্টোবর পর্যন্ত টেস্টে ফেল করলে পাবলিক পরীক্ষায় অংশ নিতে পারবে না - dainik shiksha টেস্টে ফেল করলে পাবলিক পরীক্ষায় অংশ নিতে পারবে না শূন্যপদের চাহিদা পাঠানোর সময় ফের বাড়ল - dainik shiksha শূন্যপদের চাহিদা পাঠানোর সময় ফের বাড়ল দৈনিক শিক্ষায় বিজ্ঞাপন পাঠান ইমেইলে - dainik shiksha দৈনিক শিক্ষায় বিজ্ঞাপন পাঠান ইমেইলে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া - dainik shiksha জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া please click here to view dainikshiksha website