please click here to view dainikshiksha website

এমপিওভুক্তি : সংসদীয় কমিটিকে অসত্য তথ্য দিয়েছে শিক্ষা অধিদপ্তর

নিজস্ব প্রতিবেদক | আগস্ট ৫, ২০১৭ - ১০:৪৭ পূর্বাহ্ণ
dainikshiksha print

এমপিওভুক্তির চলমান প্রক্রিয়া সম্পর্কে শিক্ষা মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটিকে ভুল তথ্য ও ব্যাখ্যা দিয়েছে মাধ্যমিক ও উচচশিক্ষা অধিদপ্তর। কমিটির ২৩তম বৈঠক হবে আগামাীকাল ৬ আগস্ট। আলোচ্যসূচিতে রয়েছে, শিক্ষক-কর্মচারী এমপিও কার্যক্রম বিকেন্দ্রীকরণ। এ বিষয়ে অধিদপ্তর তাদের অবস্থান, আলোচনা ও সুপারিশ জমা দিয়েছে। একজন পরিচালক নিজের মতো করে লিখে তিন পৃষ্ঠার ব্যাখ্যা জমা দিয়েছেন বলে জানা গেছে।

ঘুষ-দুর্নীতি ও হয়রানি বন্ধের লক্ষ্যে এমপিওভুক্তি অনলাইনে এবং বিকেন্দ্রীকরণ করেছে সরকার। কিন্তু মাঠের বাস্তবতা, জেলা ও উপজেলা কর্মকর্তাদের মানসিক  ও আর্থিক দুর্নীতির অভ্যাস বিবেচনায় না রাখা এবং যথাযথ পাইলটিং না করেই একরোখা সিদ্ধান্তে চালু করা হয় বিকেন্দ্রীকরণ। ফল হয়েছে উল্টো। আগেকার একস্তরের বদলে এখন চারস্তরে ঘুষ দিতে হয়। এমতাবস্থায় সারাদেশে দাবি উঠেছে কিছু একটা করার, দুর্নীতির লাগাম টানার। এমতাবস্থায়,  শিক্ষা মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় কমিটি বিষয়টি আমলে নিয়েছে। এতে চিন্তিত হয়ে পডেছে এমপিও জালিয়াতচক্র ।

সংসদীয় কমিটিকে লিখিতভাব জানানো হয়েছে, শিক্ষা অধিদপ্তরের এমপিও কমিটির সভায় ইএমআইএস সেল থেকে পাওয়া তথ্যাদির পারস্পরিক যাচাই বাছাই করে চুড়ান্ত অনুমোদন করা হয়।

কিন্তু দৈনিকশিক্ষার অনুসন্ধানে জানা যায়, যেমনটা সংসদীয় কমিটিকে ব্যাখ্যা দেয়া হয়েছে বাস্তবতা তা নয়। এমপিওর সভায় শুধু একটি সারাংশ উপস্থাপন করা হয়। কোন এমপিও কীভাবে হচ্ছে তা কেস টু কেস আলোচনা হয় না। যেমনটা ২০১৩ খ্রিস্টাব্দ পর্যন্ত হতো। এন্ট্রি লেভেলে নিয়োগ বন্ধ থাকলেও হাজার হাজার সহকারি শিক্ষক ও প্রভাষক কীভাবে এমপিওভুক্ত হয়? দারুল ইহসান বন্ধ হলেও আদালতের রায়ের কপি না তুলে তিন হাজার সহকারি গ্রন্থাগারিক কীভাবে এমপিওভুক্ত হয়? কেন এমপিও কমিটির সব সদস্যকে বিস্তারিত তথ্য সরবরাহ করা হয় না?  মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তারা খুব একটা কিছু বলেন না। কারণ, তাদেরও ঘুপচি তদবির থাকে। বিজোড় মাসের এমপিওর সভায় যারাই দুর্নীতির প্রশ্ন তোলেন, সবার প্রশ্ন পায়ে মাড়িয়ে মনগড়া ব্যাখ্যা দাঁড় করান পরিচালক অধ্যাপক মো: এলিয়াছ ও উপপরিচালক মো: মোস্তফা কামাল। সভায় অব্যাহতভাবে ক্ষোভ প্রকাশ করে চলছেন মহাপরিচালক অধ্যাপক এস এম ওয়াহিদুজজামান।

সাংবাদিকদের যে কোনো প্রশ্নের গৎবাঁধা জবাব দেন এলিয়াছ। তিনি বলেন, অনলাইনে এমপিওতে দুর্নীতির কোনো সুযোগ নেই। জেলা উপজেলার সবাই সৎ।

সংসদীয় কমিটিকে দেয়া ব্যাখ্যাও তৈরি করেছেন এলিয়াছ গং। সাত দফা সুপারিশও করেছেন তারা!

দেখুন সেই লেখার অংশবিশেষ :

সংবাদটি শেয়ার করুন:


পাঠকের মন্তব্যঃ ১৬৫টি

  1. জিল্লুর রহমান(প্রধান শিক্ষক),মালঞ্চী মাধ্যমিক বিদ্যালয়,মাগুরা সদর,মাগুরা। says:

    আগের নিয়মটাই ভাল ছিল।

  2. মোঃ তাজুল ইসলাম,আমার মোবাই নম্বরঃ 01760099005 says:

    অন-লাইনের নিয়মটি সবচেয়ে ভাল।

  3. Md.Shaidur Rahman says:

    আগের নিয়ম ভাল ছিল না।যারা ভাল ছিল বলেন তাদেরকে বলব কত টাকা খরচ করে এমপিও ভুক্ত হয়েছেন?নিশ্চই দালাল ধরে ঢাকায় ফাইল পাঠাইছেন।এখন ভাল লাগে না ঘরে বসে ফাইল পাঠানো যায়।অটো এমপিও দেয়া হউক তাহলে দু্র্নিতি থাকবে না।

    • মোঃ মানিক উদ্দিন says:

      যেভাবে এমপিওভুক্তি করলে শিক্ষক সমাজ সুবিধা বোধ করবে। আমরা কিভাবে এনটিআরসিএর আবেদন ফরম করি অনলাইনের পুরণ নিশ্চয় সবার জানা আছে। এনটিআরসিএ থেকে আমাদের একটি এপ্লিকেন্ট কপি দেওয়া হয়। সেখানে ইউজার আইডি দিয়ে ও পাসওয়ার্ড ব্যবহার করে। আমরা বিভিন্ন তথ্য আদান প্রদান করে থাকি। আর যখন এ্যাডমিট কার্ড সংগ্রহ করি। এ্যাডমিট কার্ডে কর্তৃপক্ষের যথাযথ সিল স্বাক্ষর থাকে। পরীক্ষা দিতে বা সনদ পত্র গ্রহণ করতে কোন অসুবিধা হয় না। ঠিক এইভাবে করুন।ধন্যবাদ

  4. আনোয়ার কাদির বৈশ্যপাট্টা মডেল একাডেমী, কেন্দুয়া,নেত্রকোনা says:

    দুটি পদ্ধতি কারাপ বিকল্প পদ্ধতি দরকার

  5. MM Kamroul Islam, Rashidpur,Sonaimuri,Noakhali. says:

    আগের নিয়মটাই অনেক ভালো ছিল। এখন অনক ভোগান্তি। সুতরাং আগের নিয়মে ফিরে আসাই উচিত।

    • মোঃ মানিক উদ্দিন says:

      আগের নিয়ম ভাল ছিলনা। এখনকার নিয়মই ভাল তবে প্রার্থী নিজে তথ্য দিয়ে চাকুরীর আবেদন ফরমের আবেদন করবে এমপিও জন্য ধন্যবাদ

  6. মোঃ ফারুক হোসেনখান says:

    চোরের দলের লাগাম টেনে ধরুন ।
    মোঃ ফারুক হোসেন খান
    (সিঃশিঃ)
    মাইজবাড়ি বাগুনডালী উচ্চবিদ্যালয়,ঘাটাইল,টাংগাইল।

  7. md. rahim says:

    Oneline mpo best. Durniti basder lagam tene dorun.

  8. Enamul says:

    এত কিছু দরকার নাই,জাতীয়করন চাই।

  9. মুহাম্মদ শাহ আলম says:

    Mpo তে দুর্নীতির খবর নতুন কিছু না। শুধুই খবর বের হয় কোন এ্যাকশন হয় না। কাজেই এইসব খবরের প্রতি কারো কোন আগ্রহ থাকার কথা না।

  10. নূরুজ্জামান "লিটন" ।সহকারি শিক্ষক (বাংলা) উত্তর জয়পুর মাদ্রাসা,সদর,জয়পুর হাট says:

    সার্টিফিকেট ঠিক এমপিও হবে,এমন নিয়ম ই হওয়া উচিত।

  11. শ ম মোকাররম হোসেন says:

    নিয়ম যেটাই হোক শর্সের মধ্যের ভূত থাকা চলবে না

  12. মো: মনির হোসেন, প্রভাষক পদাথবিজ্ঞান। says:

    অনলাইন নিয়মে আমার তো কোন টাকা লাগে নাই। ধারাবাহিক নিয়মে ফাইলে কাজ হয়। অনলাইনে এমপিও কষ্ট কমেছে অনেক।

  13. nurul islam says:

    আপনার মন্তব্য Right.

  14. মোঃ মিনারুল হক পার্বতীপুর,দিনাজপুর says:

    মন্তব্য.সরকারি কর্মকতা ও কর্মচারীর মাধ্যমে ওনলাইনে এমপিও হওয়ার জন্য বেসরকারী শিখখকরা পদে পদে হয়রানি হচ্ছে । প্রশ্নঃ কেন ?

  15. মোঃ শরিফ উদ্দীন says:

    এক দফা এক দাবি জাতীয়করণ চাই।

  16. মোঃ সরোয়ার জাহান, আইসিটি শিক্ষক, লংগরপাড়া উচ্চ বিদ্যালয়, শ্রীবরদী-শেরপুর ৷ says:

    এমপিও ভুক্তির জন্য ডিজিটাল সিষ্টেমই উপযুক্ত

  17. md.rafiqul islam chitalmari,bagerhat says:

    সরকারি কর্মকতা ও কর্মচারীর মাধ্যমে ওনলাইনে এমপিও দেয়া হউক .

  18. মোঃ মোবারক করিম খান, ফরিদগঞ্জ বঙ্গবন্ধু ডিগ্রি কলেজ, ফরিদগঞ্জ, চাঁদপুর ০১৭৮৪০৬৮৩৬৩ says:

    কতকিছু হয় যা আমরা বুঝি না কিন্তু যা বুঝি তা হল আই সি টি শিক্ষকদের এম পি ও দেওয়া হয় না। অথচ জাড়ি, কাজ, ক্লাস সবই মেনে নিতে হয়। প্লিজ আমাদের দয়া করুণ।

  19. মোঃ মোকাদেদসুর রহমান সহকারী শিক্ষক শিবপুর হাট উচচ বিদ্যালয় পুঠিয়া, রাজশাহী। says:

    আগে ওরা একতরফা খেতো এখন ভাগী হয়েছে তাই ওদের গায়ের জ্বালা।

  20. কৃতোষ মৃধা says:

    কাকা গৌর চন্দ্র মন্ডলের মতন লোক সব অফিসে বসালে যে নিয়মই হোক নাকেনো এমনিতেই দুর্নিতি উঠে যাবে। কৃতোষ মৃধা, মুকসুদপুর, গোপালগঞ্জ।

  21. আসাদ says:

    জুলাই মাসের বেতন ছাড় কখন? জানালে খুশি হব।

  22. মিজানুর says:

    সব কিছুর সমাধান
    দিতে পারে জাতীয়করণ !!!!

  23. বিপ্লব বালা says:

    বর্তমান ব্যবস্থাই ভাল। দুর্নীতি ছিল, আছে দূর করার ব্যবস্থা নিন।

  24. সুমন বিশ্বাস says:

    online mpo is best way. I found no corruption and sufferings.

  25. জাহাংির আলাম says:

    বিকল্প পদবতি প্রয়োজন

  26. জাহাংির আলাম says:

    ১০০% জাতীয়করণ চাই

  27. Md. Sumon Pramanik says:

    অনলাইনে এমপিও দুর্নীতি ও ভোগান্তি ৪ থেকে ৫ গুন বেড়ে গেছে । এটাই চিরন্তন সত্য কথা ।

  28. মোঃ আব্দুর রহিম। সহকারী শিক্ষক(কম্পিউটার) সুন্দরগ্রাম পুটিকাটা উচ্চ বিদ্যালয়। রাজারহাট। says:

    সকল সমস্যার সমাধান জাতিয়করন।

  29. মাহবুব লিমন,প্রভাষক, কাউনিয়া কলেজ। says:

    সৃষ্ট পদের শিক্ষকদের বেতন কবে দেয়া হবে, এই ধরনের গুরতবপূর্ন এজেন্ডা নিয়ে আলোচনা করার জন্য মাননীয় সংসদীয় কমিটির দৃষ্টি আকর্ষণ করছি। এ ব্যাপারে উদ্যোগ গ্রহণ করার জন্য মাননিয় সম্পাদক মহোদয়ের নিকট আবেদন করছি।

  30. nuru ASS:Teacher( Biology) Dilalpur mohila mad Rangpur says:

    জাতীকরন একমাএ সমাধান

  31. মো:আনোয়ার হোসেন। নাগবাড়ী হাসিনা চৌধুরী উচ্চ বিদ্যালয়, কালিহাতী,টাংগাইল। says:

    যেখানেই যাই, টাকা ছাড়া কাজ হয়না।

  32. পরমানন্দ ঢালী says:

    এ নিয়ে হই হুল্লোড় করে কোনো লাভ নেই। আপনারা দেখেন সরকারি প্রতিষ্ঠানগুলোয় এসব হয় না। আমরা যদি বলি সরকার কিচ্ছু বূঝে না। তাই সরকারকে বুঝানোর জন্যেই আমরা মন্তব্য করি। আসলে তা না। যেখানে যা হওয়ার, যেখানে যা করার দরকার সেখানে তাই হচ্ছে এবং সরকার তাই করচ্ছে। উপজেলা বা জেলাই হোক সবাই তো কাজ কাম করেই অন্ন বস্ত্র জোগাড় করছে। এ দিকটা সরকারের পজেটিভ দিক,নেগেটিভ দিক শুধু আপনারাই।

    • Pankaj Kumar says:

      1971 এ দেশ স্বাধীন হয়েছে … এরপর এক এক করে সকল মন্ত্রণালয় স্বাধীনতা পেয়েছে .. শিক্ষা মন্ত্রণালয় ও অবশ্যই পাবে ..তবে সুযোগ্য নেতৃত্বের অপেক্ষায়….

  33. md.anwar hossain says:

    manoshik paribartan nahale durniti bondhahabena jilashikkha office hardcopy paathale selamisara onara sent korenna etai holo bastobota

  34. humayun kabir says:

    এত ভোগান্তিতে না গিয়ে জাতীয়করণ করাই ভালো।

  35. মোঃ মাহবুব-এ-খোদা,মৌখাড়া ইসলামিয়া মহিলা ডিগ্রি কলেজ,নাটোর। says:

    ৫%আলোচনায় রাখুন।

  36. হিরালাল রায় says:

    দেশের উন্নয়নে সৎ ও যোগ্য তথা কর্মঠ লোকের কোন বিকল্প নেই। আপনারা হয়ত জানবেন, 13/11/2011 তারিখের পরিপত্র মোতাবেক এমপিও স্থগিত করা হয়। পরবর্তীতে 24/05/2017 খ্রিঃ তারিখে পরিপত্র মোতাবেক স্থানীয় নিয়োগ বন্ধ হয়, যা 22/10/2015 পর্যন্ত বলবৎ হয়। ভালো কথা একটি অধ্যায় শেষ হয়ে গেল। নতুন অধ্যায় রচিত হলে, সারা দেশে একযোগ শিক্ষক নিয়োগ হবে। মানা গেল। কিন্তু কথা হলোঃ 13/11/2011 থেকে 22/10/2015 তারিখ পর্যন্ত যাদের অনুমোদন দিলেন এবং নিয়োগ দেওয়া হলো। তারা কি করবে?? তাদের কথা চিন্তা করুন। সময় অনেক হয়েছে?? জীবনের একটি অধ্যায় শেষ হওয়ার পর এমপিও দিয়ে লাভ কি??

  37. শাকিবুল ইসলাম, সহকারী শিক্ষক কৃষি, says:

    সব মাধ্যমিক বিদ্যালয় জাতীয়করণ চাই.

  38. মীর মোঃ মইজ উদ্দিন (রতন) says:

    গুটি কয়েকজনের জন্য পুরা সিষ্টেমটিকে দায়ী করা যায় না। আগের নিয়মে একজন শিক্ষক কতবার ঢাকা আসা যাওয়া করা লাগতো তার কি খবর দৈনিক শিক্ষা সম্পাদক সাহেব রাখতেন। বরং দূর্ণীতির লাগাম কিভাবে টেনে ধরা যায় সেটার পদ্ধতি বের করুন। অনলাইন এমপিওর সুবিধা অনেক রয়েছে যা এখানে লেখে শেষ করা যাবে না। ঘরে বসে ফাইলের তথ্য জানা ভাল নাকি এলালগ পদ্ধতির তথ্য ফোনে (টাকা দিলে) জানা ভাল, তাও আবার হবে নাকি হবে না, বা ফাইলের কোন সমস্যা আছে কি নাই সেটা কে জানবে। দয়া করে মাঠ পর্যায়ে খবর নিয়ে দেখা দরকার এমপিও হতে কে কত টাকা কোথায় খরচ করেছে? বর্তমানে বিদ্যালয় ম্যানেজিং কমিটিগুলো টাকা নিয়ে প্রধান শিক্ষক/সহঃ প্রধান শিক্ষক, অফিস সহকারী, ৪র্থ শ্রেণির কর্মচারী নিয়োগ দিতে কত টাকা ডোনেশনের নামে লক্ষ লক্ষ টাকা নিচ্ছে তা কে দেখছে? দলীয় করণ, আত্মীয়করণ ও মেধাশুন্য নিয়োগ দিয়ে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলোকে ধ্বংসের ধারপ্রান্তে নেয়া হয়েছে সেদিকে নজর না দিয়ে এমপিও বিকেন্দ্রিকরণ নিয়ে এত ফালাফালি কেন?

  39. আমিরুল খান says:

    দেশে সুশাসন নিশ্চিত করতে বিকেন্দ্রিকরণই একমাত্র পথ। সেখানে কেউ দুর্নীতি করলে, ক্ষমতার অপব্যবহার করলে আইন অনুযায়ী শাস্তির ব্যবস্থা করতে হবে। তাই বলে “মাথা ব্যাথার নিদান মাথা কেটে ফেলা” হতে পারে না কখনও।
    আমাদের দুর্ভাগ্য, আমরা কেন্দ্রীভূত প্রশাসনের অবসান চাই মুখে, কিন্তু আসলে আমাদের অন্তরে লালন করি কেন্দ্রীভূত প্রশাসন।
    যদি মাউশির কোন কর্মকর্তা, বা অন্য যে কেউ কোন অনিয়ম করে, ভুল তথ্য দেয় তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতেই হবে।

  40. saidur rahman says:

    ICT/Computer শিক্ষক দের এমপিও ছাড় দেয়া সম্পর্কে কিছু একটা করেন। আমরা আইসিটি/কম্পিউটার শিক্ষকগন দীর্ঘ ছয়/সাত বছর বিনা বেতনে চাকরি করছি। আমাদের প্রতি একটু দয়া করেন।
    মুন্সীগঞ্জ।

  41. মোঃশহিদুল ইসলাম,শারীরিক শিক্ষক,বাজেমজকুর বালিকা দাখিল মাদ্রাসা।কাউনিয়া,রংপুর। says:

    মধ্যম আয়ের দেশে বে-সরকারী,আধা সরকারী কথাটি বেমানান। কাজেই ডিজিটাল সোনার বাংলাদেশে মাদ্রাসা সহ সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠান জাতীয়করন করা উচিত।

  42. মোঃশহিদুল ইসলাম,শারীরিক শিক্ষক,বাজেমজকুর বালিকা দাখিল মাদ্রাসা।কাউনিয়া,রংপুর। says:

    জাতীয়করন চাই।

  43. মোঃ হুমায়ুন কবির,সহকারী প্রধান শিক্ষক,এ.ডি.এম.উচ্চ বিদ্যালয়,মির্জাপুর,টাংগাইল। says:

    আগের এমপিও করণ প্রক্রিয়া ভাল ছিল।এখন আগের চেয়ে খরচ অনেক বেশি হয়।তিনটি ধাপ অতিক্রম করতে জানের কিছু থাকেনা।আগের প্রক্রিয়া বহাল করার জন্য সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের সু- দৃষ্টি কামনা করছব

  44. মোঃ হুমায়ুন কবির,সহকারী প্রধান শিক্ষক,এ.ডি.এম.উচ্চ বিদ্যালয়,মির্জাপুর,টাংগাইল। says:

    আগের এমপিও করণ প্রক্রিয়া ভাল ছিল।এখন আগের চেয়ে খরচ অনেক বেশি হয়।তিনটি ধাপ অতিক্রম করতে জানের কিছু থাকেনা।আগের প্রক্রিয়া বহাল করার জন্য সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের সু- দৃষ্টি কামনা করছি।

  45. Rezaul karim , Debiganj, panchagarh says:

    শিক্ষকদের রাষ্টীয় সুবিধাদি, মর্যাদা ও সুরক্ষার জন্য সুনির্দিষ্ট আইন করতে হবে।

  46. আব্দুল খালেক আকাশ says:

    সমষ্যা হচ্ছে দৃর্নীতি,সিস্টেম নয় ।

  47. Md. Mahbubul Alam says:

    Online MPO System is fit for present days, but the authority should ensure the punishment for the main culprits(Corrupted Persons), not the System,

  48. M A YOUSUF LECTURER TOGRA KAMIL MADRASAH , PIRIJPUR 01710-541839 says:

    জাতীয়করন চাই।

  49. মো. হাফিজুর রহমান, প্র/শি, বারই্হাটি এ.এ.কে উচ্চ বিদ্যালয়, গফরগাঁও, ময়মনসিংহ। says:

    যারা এমপিও বিকেন্দ্রীকরণ এর পক্ষে মত দিচ্ছেন তাদের একজন অধ্যাপক মো. এলিয়াছ আর একজন আমাদের গফরগাঁও এর রত্ন মো. মোস্তফা কামাল। এরা কি সারা জীবন ডিজি অফিসেই চাকুরী করবেন। এতো সমালোচনার পরেও উনাদেরকে বদলীর কোনো কী সূযোগ নাই।

  50. রানা আহমেদ says:

    কোথায় বলে,পুকুর নষ্ট করে পানা,গ্রাম নষ্ট করে কানা,,,দু একটি কানার কারনে এত বদনাম,,,,,, বর্তমান অনলাইন পদ্ধতি সবচেয়ে ভাল,,,,,এই নিয়ম থাকাই শ্রেয়,,,,,,

  51. ashiqur rahman says:

    আগের নিয়মটাই ভাল ছিল।

  52. মোঃ আব্দুল আহাদ (প্রধান শিক্ষক) পাটুয়াভাঙ্গা উচ্চ বিদ্যালয়,পাকুন্দিয়া , কিশোরগঞ্জ । says:

    চোর ,বাটপার, দূর্নিতিবাজ সকল জাগায় আছে । তাদেরকে চিহ্নিত করে শাস্তি দিলে কমবে , অন্যতায় নয় ।

  53. Mehedi Hasan komol(জামালপুর) says:

    iliyas is not only corrupted person but also thief .he stolen in the house of his father.
    he should be punished.

  54. s.chakma says:

    অনলাইনে এমপিও বিকেন্দ্রীকরনের অপর নাম দূর্নীতি বিকেন্দ্রীকরন

  55. Md. Abdul Baten Faruki, HT, Syed Habibul Huq High School, Kishoreganj Sadar. says:

    আপনার মন্তব্য Appointment should be publicly. MPO system need not to be continued.

  56. S.M.EUNUS ALI. ASST. TEACHER says:

    Durnity Bondi hook.

  57. সজরুল ইসলাম says:

    বর্তমান যুগে অনলাইন পদ্ধতিই সর্বোত্তম যদি ঘুষ না দিতে হয়, ঘুষ না দিলে ফাইল অস্পষ্ট বলে একেবারে রিজেক্ট করে দেয়, যার কারনে তাকে পুরা এক/দুই/তিন এম.পি.ও ভোগান্তির স্বীকার হতে হয়। দেশের সব অফিসার যে ঘুষ নেই সেটা আবার ঠিক না, যেসব অফিসার ঘুষের জন্য ফাইল আটকায় তাদের বিরুদ্ধে যদি উপযুক্ত শাস্তির ব্যবস্থা হরা হয় তাহলে তার চৌদ্দ গোষ্ঠীর কেউ ঘুষ কথাটি মুখেও আনবেন না। কিন্তু দু:খ হলো আমাদের দেশে বিচার করার কেউ নেই। যিনি দেখবেন হয়ত তিনিও একজন বড় ঘুষখোর।

  58. মো:সাইফুল ইসলাম,অধ্যক্ষ কোহিনৃর হাইস্কুল অ্যান্ড কলেজ,তরগাও,কাপাসিয়া,গাজীপুর। says:

    বেসরকারী শিক্ষক নিয়োগের সাথে সাথে এম পি ও দিয়ে দেওয়া উচিৎ।এমপিওর জন্য অাবেদনের প্রয়োজন নাই। এনটিআরসি কতৃক নিয়োগ হলে প্রতিষ্টানপ্রধানরা অনলাইনে যোগদান নশ্চিত করবে। ৩/৪জায়গায় ধন্যাদেওয়ার কোন প্রয়োজন নাই।অন্য ভাষায় জাতীয়করন করে ফেললে অার কোন দৃর্নিতি থাকবেনা।

  59. আনোয়ার হাওলাদার says:

    সংশ্লিষ্ট প্রতিষ্ঠানের প্রধান অনলাইনে সরাসরি সব তথ্য ই এম আই এস সেলে পাঠাবেন। ফলে দুর্নীতির বিষয়ে তার একক দায়বদ্ধতা থাকবে। তাকে সহজে ধরাও যাবে। শিক্ষা অফিসে তিনি হার্ড কপি জমা দিয়ে দেবেন। নিজেও হার্ড কপি রাখবেন। একক হাতের কাজে দুর্নিতী হলেসহজে ধরা যাবে। কেউ কারো দোষ দিতে পারবেনা। ঘুষও উঠে যাবে। বর্তমানে বিভিন্ন অফিসে টাকা লাগবে বলে প্রধানরা টাকা নেন। লাগে কিনা তা জানা যায়না।

  60. md.sezan says:

    আগের নিয়ম ঈ ভাল ছিল নিঃসন্দেহে।

  61. আব্দুর রহিম,রহিমানগর,কচুয়া,চাঁদপুর। says:

    অনলাইনে এমপিও এর ব্যবস্থা সব থেকে ভাল ব্যবস্থা । অনলাইনের অজ্ঞতার জন্য শিক্ষগণ অযথা হয়রানির স্বীকার হন। দৈনিক শিক্ষা পরিচালক অধ্যাপক ইলিয়াছ স্যার এর পিছনে অনেক দিন যাবত লেগে আছে। ডিজি অফিসের ঘুষ বন্ধ হওয়াতে অনেকের গাত্রদাহ। ইলিয়াছ স্যার শেখ হাসিনা সরকারের ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ার কারিগর হওয়ায় ঘুষখোরদের কুনজরে। ইলিয়াছ স্যার সৎ হওয়ায় ওনাকে জামাত বলে কুৎসা রটনা করা হচ্ছে। অযাচিত কাগজ পত্র বাদ দিলে ও যোগদানের দিন থেকে এমপিওভুক্ত করলে আর দু্র্নিতি থাকবে না।

  62. md.sezan says:

    ICT teachers MPO হচ্ছেনা কেন?????????????????

  63. md.sezan says:

    ICT teachers দের MPO না দিয়ে যারা digital Bangladesh গরার কথা বলে তাদের মুখের জবান আল্লাহতালা যেন বন্ধ করে দেন।

  64. KAMAL HOSSAIN, BOIRAGIRCHAR SECONDARY SCHOOL, DAULATPUR, KUSHTIA says:

    sotto kaje keu nai razi, sobe dekhi ta na na

  65. Touhidur says:

    কৃষ্ণ করলে যে লিলা হয়?

  66. k.kabir says:

    অন লাইন পদ্ধতিতে দুনীতির সুযোগ অনেক অনেক কম,পূবের পদ্ধতিতে দুনীতি ১০০%. ইচ্ছা করলেও কেউ ঘুষ না দিয়ে বাঢতে পারে না, অন লাইনে আমার এক টাকাও ঘুষ দিতে হয় নাই। ঘুষ পুনরায় চালুর জন্য অনলাইন পদ্ধতি বাদ দেয়ার পায়তারা চলছে। সাধু সাবধান

  67. সোহেল says:

    আপনার মন্তব্য ict শিক্ষকদের এমপিও চাই।

  68. মোহাম্মদ উল্লাহ ছিদ্দিকী,সহকারী অধ্যাপক,বেঙ্গুরা সিনিয়র মাদরাসা বোয়ালখালী চট্টগ্রাম। says:

    প্রতিষ্ঠান থেকে অনলাইনে দেওয়াটাই সব চেয়ে বেস্ট।এতে কোন ধরণের ভোগান্তি হয়না।

  69. আব্দুল মুমিন says:

    ১৩/১১/১১ কালো আইন রহিত করে কিছু ভাগ্য বিড়ম্বিত শিক্ষকের প্রাণ বাচান।

  70. মোঃ জসিম উদ্দিন,সহকারী শিক্ষক,বিজবাগ রাব্বানিয়া আলিম মাদ্রাসা,সেনবাগ,নোয়াখালী says:

    সকল নিয়ম বাদ দিয়ে জাতীয়করণের পথে এগোতে হবে।

  71. সুব্রত says:

    অনলাইন এমপিও পদ্ধতিতে স্টেপ বাই স্টেপ ঘুষ দিতে হয়। আর পূর্বে এক স্থানে দিলে হত এটাও ঠিক নয়। তখনও স্টেপ বাই স্টেপ দিতে হয়েছে।

  72. সুব্রত says:

    অনলাইন এমপিও পদ্ধতিতে স্টেপ বাই স্টেপ ঘুষ দিতে হয়। আর পূর্বে এক স্থানে দিলে হত এটাও ঠিক নয়। তখনও স্টেপ বাই স্টেপ ঘুষ দিতে হয়েছে।

  73. মোহাম্মদ নাজিম উদ্দিন says:

    MPO ভুক্তির ব্যাপারে সরকার দুর্নীতি বন্ধ করতে সচেষ্ট হলে চলমান পদ্ধতিটি ই শ্রেয়।

    সরকার পারে না এমন কোনো কাজ নেই….!

  74. moni says:

    সকালে বসে থাকি বিকালে বসে থাকি। কবে শুনব আইসি শিক্ক দের এমপিও হবে।মাননীয় প্রধানমন্তি আপনি কি ডিজিটাল বাংলাদেশ করবেন ডিজিটাল মানুষদের খাবার দেন।আপনার কাছে জীবন ভিক্কা চাই।mpo den ict subject । শিক্কা মন্তী আপনি বলছিলেন ৮/৫/২০১৭ তাং।দ্রুত mpo ict দেওয়ার জন্য। কিন্তু এখনো আমারা জন্য কিছু করতে পারছেন না।আপনার কাছে আনুরোদ আমাদের তারা তারি mpo দেন। আর পরিবারের চাপ পারতেচিনা টাকা ছাড়া চলা যায় না।না হলে ফাসি দিমু।

  75. মোঃ এমদাদুল হক says:

    অন লাইন পদ্ধতিতে দুনীতির সুযোগ অনেক অনেক কম,পূবের পদ্ধতিতে দুনীতি ১০০%
    অনলাইনে এমপিও বিকেন্দ্রীকরনের অপর নাম দূর্নীতি বিকেন্দ্রীকরন

  76. ,Ramesh Khan says:

    অনলাইন নিয়মটাই ভাল। তবে এখানে খুশিকরণের পরিমানটা বেশি। কর্মকর্তাদের সততাই আমাদের প্রত্যাশা।

  77. এম,এ,মামুন says:

    জাতীয়করনে তালিকাভুক্ত কলেজগুলোর জিও কবে হবে? এত বিলম্ব কেন বোধগম্য নয়।

  78. মোঃ মহিদুল ইসলাম সহকারী শিক্ষক (কৃষি) নৈদিঘী হজরত আলী উচ্চ বিদ্যালয়,আত্রাই, নওগাঁ। says:

    জুলাই/১৭ বেতন ও ৩% ইংক্রিমেন্ট এর খবর কি?

  79. মো: বাহাদুর মিয়া says:

    সূষ্ট পদের শিক্ষকদে এমপিও দিয়ে বাচান।

  80. অভাগার দল says:

    নিয়োগ যখন কেন্দ্রীয়ভাবে হচ্ছে তখন বেতন কেন কেন্দ্রীয়ভাবে দেওয়ার ব্যবস্হা হচ্ছে না?যে শিক্ষককে বেতন,উচ্চতর বেতন পেতে েে ে এত হয়রানী হতে হয় সে সুস্হ মনে কিভাবে সারা জীবন শিক্ষা দান করবে?্ আর ভাল শিক্ষার্থীরা কেন ে এখানে আসবে?

  81. মজিবুর রহমান ভূইয়া সহশিক্ষক আইসিটি কুরছাপ উচ্চ বিদ্যালয় দেবিদ্বার,কুমিল্লা। says:

    অবিলম্বে আইসিটি শিক্ষকদের বেতন ভাতা দিন। কারন তারা আর কতকাল বিনা বেতনে চাকরি করবে। সরকারের উচিত বকেয়াসহ তাদের বেতন ভাতা দেওয়া।

  82. Md. Harun Or Rashid, Super, Raypur Pizahati Dakhil Madrasah, Kendua, Netrakona. says:

    Thank You Elias Sir. You are Correct.

  83. মোঃ কামাল হোসেন says:

    ভাই যে পদ্ধতিই নিয়ে আসেন দুর্নি তি দূর হবেনা।কারণ আমরা কেউ ভালনা।

  84. রিফাত হোসেন says:

    আপনার মন্তব্য l১৩/১১/১১ থেকে ২২/১০/১৫ পর্যত্ন সৃষ্ট পদ সহ সকল নন এম পি ও শিক্ষকদের দয়া করে এম পি ও দিন। দয়া করে আমাদের দিকে একটু তাকান।

  85. Maidul Islam says:

    বর্তমান বিল পাঠাতে কম্পিউটার খরচ-২,০০০, উপজেলা মাধ্যমিক -১০,০০০, জেলা শিক্ষা অফিস সালামি-১০,০০০, ৫ দিন যাতায়াত-২০০০ এই হলো খরচ এটা দিতে হবে না। কত কষ্ট করে চাকুরী নিয়েছে। এটা ঘুস না সালামি।

  86. sultan mahmud says:

    যেখান থেকে নিয়োগ সেখান বেতন ভাতা দিন, দেখবেন বৈধভাবে নিয়োগপ্রাপ্তরা কোন ঘুষ দিবেনা। তারা চাহিদামত দলিল দাখিল করেএমপিওভুক্ত হবে।

  87. sultan mahmud says:

    যেখান থেকে নিয়োগ সেখান বেতন ভাতা দিন, দেখবেন বৈধভাবে নিয়োগপ্রাপ্তরা কোন ঘুষ দিবেনা। তারা চাহিদামত দলিল দাখিল করে এমপিওভুক্ত হবে।

  88. moniruzzaman;bezpara hayatunnesa dakhil madrasah.koyra; khulna says:

    No

  89. Ziaur Rahman, Nilphamari. says:

    অনলাইনে এমপিও, সব থেকে ভাল ব্যবস্থা, যেসব অফিসার ঘুষের জন্য ফাইল আটকায় তাদের বিরুদ্ধে উপযুক্ত শাস্তির ব্যবস্থা করা, আগের প্রক্রিয়া বহাল করার জন্য সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের সু- দৃষ্টি কামনা করছি।

  90. আরিফুল ইসলাম says:

    টাকা এখন ও লাগে তখন ও লাগত।
    কিন্তু অনলাইন এ ভোগান্তি ১০ গুণে বেড়ে গেছে।
    আমি নতুন এমপিও ভূক্ত তাই জানি।
    উপজেলা শিক্ষা অফিসারদের সর্বেসর্বা করা হলো। তারা তো ঘুষ নিবেই।

  91. Anamul houqe says:

    আমার মতো যারা ICT শিক্ষক আছেন সবাই মিলে দোয়ার ব্যবস্থা করি।।।

  92. জুলকার নাইন, কুটি বালিকা উচ্চ বিশনিবার দ্যালয়, কুটি কসবা, ব্রাহ্মণ বাড়িয়া। says:

    অনলাইনের বিকল্প নেই ।শুধু দুর্নীতির লাগাম টেনে ধরুন ।

  93. অনিক says:

    বড় বড় রাঘববোয়ালরা ঘুষ খেয়ে জালিয়াতি এমপিও দেয়।কিন্তুু আমরা যারা সরকারের আদেশে বৈধভাবে নিয়োগপেয়ে বছরের পর বছর বিনা বেতনে চাকরী করে আচ্ছি আমাদের কি আদৌ বেতন হবে। এটা কি কেউ বলতে পারবেন?

  94. প্রকাশ চন্দ্র বিশ্বাস says:

    দুর্নীতি বন্ধ করতে হবে।

  95. অজিত চন্দ্র দেব says:

    জাতীয়করণ করেন, সকল সমস্যার সমাধান হবে।

  96. অচিন্ত্য মিস্ত্রী। সিনিয়র শিক্ষক, গাওখালী মা:বি:ও কলেজ, নাজিরপুর, পিরোজপুর।। says:

    পূর্বের নিয়মটাই ভালো ছিল।

  97. মোঃ আনোয়ারুল ইসলাম says:

    NTRCA যাদেরকে নিয়োগ দিচ্ছে, দুর্নীতি রোধে তাদের থেকে NTRCA প্রয়োজনীয় ডকুমেন্ট সংগ্রহ করে এমপিও ভূক্তির জন্য শিক্ষা অধিদপ্তরে প্রেরন করে এমপিও ভূক্তির ব্যবস্থা করা যেতে পারে।

  98. Md.Shahidul Islam. Sr.Ass. Teacher. Chapadaha B.L. High School, Kuptala ,Gaibandha. says:

    মাননীয় মহা পরিচালক মহোদয়, Ato MPO দিলে সব সমাধান হবে ।

  99. মোঃরেজাউল করিম ইত্যা আদর্শ মাঃবিঃ মনিরামপুর,যশোর says:

    আইন-পদ্ধতি কোনটাই খারাপ নই । খারপ হলো কোন জবাবদিহিতা নাই । টপ টু বটম চোরার রাজত্ব । বড় বড় শোয়াল মাছ ধরে আর ছাড়ে । কাজের কাজ শুন্য ।

  100. Md Nahid uddin(Nasir master) B ED, MA Galachipa, Patuakhali says:

    This rules right
    ok

  101. মুহাঃ সাইফুল্লহ বিন জাকারিয়া,পিরোজপুর মঠবাড়ীয়া.মুঠোফোনঃ01719-482639 says:

    আইসিটি শিক্ষকদের হয় ক্রসফায়ার দেওয়ার হুকুম দি মাহামান্য আদালত. না হয় এমপিওভুক্ত করুণ. আর হায় ডিজিটাল দেশে থেকে সাঁড়াশি অভিযান চালিয়ে তারিয়ে দিন.আর ধৈর্য্য সহেনা

  102. ABU SUFIAN.. assistant teacher..Patanusher high school. Kamalgonj.Moulvibazar says:

    ব্যবসায় শাখা কে কি শুন্য করা হবে না
    এখন তো creating post হিসেবে অনেক স্কুল আছে।
    আমরা যারা এমন পদে নিয়োগগ পেয়েছি
    আমাদের কি ছিল ও অপরাধ।।

  103. মোঃ বাবুল হোসেন says:

    এমপিও বিকেন্দ্রীকরণ ভাল হয়েছে। দুর্নীতি হলে তা দেখা উচিত।

  104. Md. Zamal Hossain says:

    অনলাইনে এমপিও ভুক্তির বিষয়টি একটি প্রশংসনীয় উদ্যোগ। অনলাইন এমপিও কার্যক্রম চালু রাখা দরকার। তবে আই,এইচ থেকে সরাসরি ইএমআইএস সেলে। যাতে মধ্যস্বত্বভোগিদের দৌড়াত্ব হ্রাস পাবে। ঘুষ দুর্নীতি ও এমপিও ভুক্তিতে হয়রানি কমে যাবে।

  105. এস,এম,এ মতিন(সহকারী শিক্ষক শরীর চর্চা) says:

    নিজ ভালতো, জগৎ ভাল।

  106. মোঃ আনিসুর রহমান যাদু অফিস সহকারী says:

    অনলাইনে দুর্নীতি ও হয়রানি বেড়েছে । পুর্বের নিয়ম ভাল ছিল ।

  107. মো: রফিকুল ইসলাম,কালিহাতি, টা;গাইল। says:

    শিক্ষক জাতিয়করন করুন,নিয়োগের পদ্ধতি জাতিয় ভাবে দুর্নীতি মুক্ত করুন। বছরের শুরুতে পরিক্ষার মাধ্যমে মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমে নিয়োগ ও বিল হলে ATEO,TEO,DPEO দের মতো বিল করাতে তদবির ¹ টাকা লাগবেনা

  108. ওবাইদুল হক says:

    আমি ওবাইদুল হক, পিতা: মো:আলী, মাতা: লেবাছ খাতুন, গ্রাম: সওদাগর ঘোনা, ডাক: চিরিংগা সি,সি-৪৭৪০, উপজেলা: চকরিয়া, জেলা: কক্সবাজার, মোবাইলঃ ০১৮১৩-৩৮৬০২৮, NTRCA কর্তৃক নির্বাচিত ও সুপারিশকৃত হয়ে সর্বোচ্চ নম্বরধারী হিসেবে ও ইংরেজী বিষয়ের ২ জন শিক্ষকের মধ্যে ১ম স্থান অর্জনকারী হিসেবে কিশলয় আদর্শ শিক্ষা নিকেতনে বিগত ১৫/১১/২০১৫ ইং যোগদান করি। কিন্তু ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক নুরুল কবির, কিশলয় আদর্শ শিক্ষা নিকেতন, খুটাখালী, চকরিয়া, কক্সবাজার, মোবাইলঃ ০১৭১৮-২৭৭৬৪১/০১৮৩৮-২৫১৩৩৪, পরিচালনা পর্ষদের সিদ্ধান্তকে উপেক্ষা করে এবং আইনকে বৃদ্ধাঙ্গুলী দেখিয়ে আমাকে আমার ন্যায্য প্রাপ্তি থেকে বঞ্চিত করে বিগত ১৫/০৫/২০১৭ ইং আমার এম,পি,ও’র আবেদন অগ্রায়ন না করে ২য় স্থান অর্জনকারীর আবেদন অগ্রায়ন করেন এবং উনাকে মে মাসের এম,পি,ও তে অন্তর্ভূক্ত করা হয়। তাছাড়া, অন্য ১ জন শিক্ষককে কারিগরি শাখায় নিয়োগ দিয়ে সাধারণ শাখায় এম,পি,ও ভূক্ত করা হয় এবং এক্ষেত্রে তিনি সাবেক শিক্ষক নুরুল আফছারের স্থলাভিষিক্ত হলেও এম,পি,ও’র কপি থেকে সাবেক শিক্ষকের নাম কর্তন করা না করে বিগত ১৫/০৫/২০১৭ ইং উনার এম,পি,ও’র আবেদন অগ্রায়ন করেন এবং মে মাসের এম,পি,ও তে উনাকে অন্তভূক্ত করা হয়।এ বিষয়ে আমি আপনার পদক্ষেপ ও হস্তক্ষেপ কামনা করছি।

  109. Md. Arif Moin Uddin, Lohagara, Chittagong. says:

    অন-লাইনের নিয়মটি সবচেয়ে ভাল।অনলাইন নিয়মে আমার তো কোন টাকা লাগে নাই। ধারাবাহিক নিয়মে ফাইলে কাজ হয়। অনলাইনে এমপিও কষ্ট কমেছে অনেক।বর্তমান ব্যবস্থাই ভাল। দুর্নীতি ছিল, আছে দূর করার ব্যবস্থা নিন। অনলাইন এমপিওর সুবিধা অনেক রয়েছে যা এখানে লেখে শেষ করা যাবে না। ঘরে বসে ফাইলের তথ্য জানা ভাল নাকি এলালগ পদ্ধতির তথ্য ফোনে (টাকা দিলে) জানা ভাল, তাও আবার হবে নাকি হবে না, বা ফাইলের কোন সমস্যা আছে কি নাই সেটা কে জানবে।অন লাইন পদ্ধতিতে দুনীতির সুযোগ অনেক অনেক কম,পূবের পদ্ধতিতে দুনীতি ১০০%. ইচ্ছা করলেও কেউ ঘুষ না দিয়ে বাঢতে পারে না, অন লাইনে আমার এক টাকাও ঘুষ দিতে হয় নাই। ঘুষ পুনরায় চালুর জন্য অনলাইন পদ্ধতি বাদ দেয়ার পায়তারা চলছে। সাধু সাবধান। অনলাইনে এমপিও ভুক্তির বিষয়টি একটি প্রশংসনীয় উদ্যোগ। অনলাইন এমপিও কার্যক্রম চালু রাখা দরকার।

  110. শওকত আলী বাংগালপাড়া ইসলামিয়া দাখিল মাদ্রাসা অষ্টগ্রাম কিশোরগন্জ says:

    আগের নিয়ম অনেক ভাল ছিল। কারন এখন অনেক সেশনের লোক কে স্যার ডাকতে হয়।

  111. মোঃ সজীব হোসেন, বি.এস.সি, সহকারি শিক্ষক, জোয়াগ নোয়াগাঁও দাখিল মাদরাসা, চান্দিনা, কুমিল্লা। says:

    অনলাইন নিয়মে আমার তো কোন টাকা লাগে নাই। ধারাবাহিক নিয়মে ফাইলে কাজ হয়। অনলাইনে এমপিও কষ্ট কমেছে অনেক।

  112. Rafiqul islam says:

    AgerAged niom r Porer niom ar jonno kiso base jaina,jara chori Kore,dorniti Kore Tara sagorer tolodese o dorniti Kore.

  113. মোছাঃ সেলিনা খাতুন says:

    মাননীয় সংসদ সদস্য , অর্থমন্ত্রী সহ বিভিন্ন নীতি নির্ধারনীতে যানারা দায়িত্বশীল ভুমিকা রাখেন তাঁদের মুখে বা ভাষ্যে শোনা যায় , দেশ থেকে হাজার-হাজার কোটী টাকা পাচার হচ্ছে বিভিন্ন কর্মকর্তারা অর্থ আত্নসাত করছে। তার পরে টাকার ঘাটতি হচ্ছে আই.সি.টি শিক্ষকদের বেতন দেবার সময় সত্যই আজব কান্ড । আর কত দিন আই.সি.টি শিক্ষকদের ফ্রি সার্ভিস দেশের নীতি নির্ধারনীরা গ্রহন করবেন?
    মোছাঃ সেলিনা খাতুন ,
    সহকারী শিক্ষক কম্পিউটার (তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি),
    কুশাডাঙ্গা ইলাহী বকস দাখিল মাদ্রাসা , EIIN-118706.
    উপজেলা- কলারোয়া , জেলা- সাতক্ষীরা।
    [email protected]

  114. রবীন্দ্র নাথ তরফদার says:

    এক জন শিক্ষকের উপজেলা জেলা আঞ্চলিক অফিসে টাকা না দিলে ফাইল সরে না। তাই এ পদ্ধতি মোটে ও ভালো নয়। এ গুলো সবই অবসান হবে যদি মাননীয় প্রধান মন্ত্রী সব প্রতিষ্ঠান জাতীয় করন করেন।

  115. মো:ইউনুস আলী,শিক্ষক,রংপুর। says:

    অন-লাইন এমপিও ব্যবস্থা সব চাইতে ভাল ব্যবস্থা।
    যাদের কাগজ সঠিক তাদের জন্য এ ব্যবস্থা উত্তম।ঘরে বসে থেকে আমরা আমাদের এমপিও এর খবর জানতে পারি। কতিপয় অসাধু কর্মকর্তার জন্য এবং কিছু জাল সনদপত্র ধারীর জন্য এই ব্যবস্থা বন্ধ করা ঠিক হবে না।। লক্ষ লক্ষ শিক্ষককে কষ্ঠ না দিয়ে অসাধু কর্মকর্তা দের ব্যপারে সেচ্ছার হয়াই সমীচীন হবে।।

  116. ইন্তাজুল ইসলাম says:

    আমরা জাতি হিসাবে তথ্য- প্রযুক্তির মহাসড়কে প্রবেশ করেছি।
    আর সনাতন ব্যবস্থায় ফেরত যাওয়া উচিত নয়।
    বর্তমান ব্যবস্থাকে আরো দূর্নিতিমূক্ত করা হোক।

  117. Md . A . Karim says:

    Till today we knew ICT & decentralization
    are useful tool for advancement.The move about MPO is very very confusing
    for the teachers’ communities. Honest officers need everywhere and they should be rewarded greatly.

  118. জাতীয়করন করেন সব সমস্যার সমাধান হ‌য়ে যা‌বে। says:

    জাতীয়করনই সব সমস্যার সমাধান

  119. মো: সাইফুল ইসলাম says:

    A fixt time is very need for
    Institutions GO and teachers mpo .

  120. Soriful Islam says:

    বর্তমান ব্যবস্থায় আগের সকল সময়ের চাইতে দুর্নীতি কম এবং অনেকটা স্বচ্ছ।

  121. Ripon Pirojpur says:

    আগের নিয়ম অনেক ভাল ছিল। কারন এখন অনেক সেশনের লোক কে স্যার ডাকতে হয়।

  122. Ripon Pirojpur says:

    শিক্ষকের বিরুদ্ধে সার্টিফিকেট জালিয়াতির অভিযোগ প্রমাণিত
    wc†ivRcyi ‡Rjvi fvbWvwiqv উপজেলার জywbqv মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষকের বিরুদ্ধে করা জালিয়াতিরঅভিযোগ প্রমাণিত হয়েছে। জানা যায় প্রধান শিক্ষক cwi‡Zvl ‡ecvix সার্টিফিকেট জালিয়াতি করে
    চাকরিতে যোগদানের অভিযোগ প্রমাণিত হয়েছে।
    এছাড়াও বিধি বহির্ভূত এমপিও, স্কুলের ‡eZb,wd UvKv আত্মসাৎ সহ নানাবিধ দুর্নীতি ও অনিয়মের অভিযোগও রয়েছে তার বিরুদ্ধে।জানা যায়, প্রধান শিক্ষক cwi‡Zvl ‡ecvix (ইনডেক্স নং-২১৯৩৭৪) cwi‡Zvl ‡ecvix সহকারী শিক্ষক হিসেবে নিয়োগপ্রাপ্ত হয়ে যোগদান করেন।এরপর wc†ivRcyi ‡Rjvi fvbWvwiqv উপজেলার জywbqv মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে প্রধান শিক্ষকের পদ শুন্য হলে ঐ পদ পেতে তিনি নানা অনিয়মের আশ্রয় নেন। এ সময় তিনি প্রভাব খাটিয়ে ম্যানেজিং কমিটি গঠন করেন। এবং নিয়ম বহির্ভূতভাবে ধর্মীয় শিক্ষককে ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক পদে বসিয়ে প্রধান শিক্ষক হওয়ার পথ সুগম করেন।
    কিন্তু এ সময় বাঁধা হয়ে দাঁড়ায় তার একাধিক তৃতীয় বিভাগ প্রাপ্ত সার্টিফিকেট গুলি। কারণ ২০১০ খ্রিস্টাব্দের ৪ ফেব্রুয়ারি সরকারি পরিপত্র অনুযায়ী একাধিক ৩য় বিভাগ নিয়ে তার চাকরি করার কোন সুযোগ ছিল না। সুচতুর প্রধান শিক্ষক তার এইচএসসির সার্টিফিকেট ঘোষে তৃতীয় বিভাগকে দ্বিতীয় বানিয়ে প্রধান শিক্ষক পদে নিয়োগ নেয়।অথচ, ‘তৃ’ কে ‘দ্বি’ করে দ্বিতীয় বিভাগ দেখিয়ে নিজের তৈরি কমিটির মাধ্যমে প্রধান শিক্ষক পদে যোগদান করেন। এবং বহাল তবিয়তে প্রধান শিক্ষক পদে তিনি এমপিও ভুক্ত হন।
    পরবর্তী সরকারি এক পরিপত্রে ঘোষণায় জানতে পারেন যে, একাধিক সনদে তৃতীয় বিভাগ থাকলেও চলবে। তখন প্রকৃত সার্টিফিকেটের সূত্র ধরে জেলা শিক্ষা অফিসে বিভিন্ন কাগজপত্রে এইচএসসি’র ক্ষেত্রে আবার তৃতীয় বিভাগ দেখানোর চেষ্টা করেন। এ ব্যাপারে মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তরের (মাউশি) মহাপরিচালক বরাবর অভিযোগ দেয়া হয়।

  123. মোঃ ইউসুফ আলী says:

    আপনার মন্তব্যঅন লাইন সিস্টেম ভাল।

    তবে তদারকি করলে আরো ভাল হবে ।

  124. মোঃ রেজাউল ইসলাম। says:

    সঠিক পদ্ধতি খুজে বের করুন।মানুষের ভোগান্তি দূর করুন।আসুন দূর্নীতি রোধ করি।মানুষের কল্যানের জন্য কাজ করার দ্বায়িত্ব সরকারের।

  125. মোঃ রেজাউল ইসলাম।সিনিয়র শিক্ষক, লাউদিয়া মাধ্যমিক বিদ্যালয়, ঝিনাইদহ। says:

    সবাই মিলে দেশটাকে সুন্দর করে গড়তে হবে।আমার কাজ আমি সরাসরি অনলাইনে জমা দিতে পারব সে ব্যবস্থা করলে মধ্যবর্তি কোন লোক দূর্নীতি করার সুযোগ পাবেনা।

  126. মোঃ রেজাউল ইসলাম।সিনিয়র শিক্ষক, লাউদিয়া মাধ্যমিক বিদ্যালয়, ঝিনাইদহ। says:

    এক জন শিক্ষকের উপজেলা জেলা আঞ্চলিক অফিসে টাকা না দিলে ফাইল সরে না। তাই এ পদ্ধতি মোটে ও ভালো নয়। এ গুলো সবই অবসান হবে যদি মাননীয় প্রধান মন্ত্রী সব প্রতিষ্ঠান জাতীয় করন করেন।

  127. MD.ASADUZZAMAN. HM.Abdul Bari SS Jessore. says:

    যিনি নিয়োগ কত্া‍‍‌

  128. মোঃ রেজাউল ইসলাম।সিনিয়র শিক্ষক, লাউদিয়া মাধ্যমিক বিদ্যালয়, ঝিনাইদহ। says:

    জাতীয়করণ করুন সব দূর্নীতি দূর হবে।

  129. রফিকুল ইসলাম,আশাশুনি, সাতক্ষীরা। says:

    দেশের সকল গুরুত্বপূর্ণ অফিসে cc ক্যামেরার ব্যবস্হা করলে ভাল হয়।

  130. osman gani says:

    এখন দুর্নীতি অনেকটাই কমেছে। তবে কিছু কিছু লোক এখন ও দুর্নীতি করার চেষ্টা করে আগে টাকা অনেক বেশি লাগতে।

  131. Md.rafikul islam says:

    অনলাইনই ভাল ।

  132. সামাদ অাজাদ .প্রভাষক, দাসগ্রাম ফাযিল (ডিগ্রি)মাদরাসা বড়াইগ্রাম,নাটোর৷ says:

    মানবিক মূল্যবোধ ও নৈতিকতার উন্নয়ন ছাড়া দূর্নিতি দূর হবেনা ৷

  133. S M Anisul Haque says:

    অনলাইনে দুর্নিতি বেশী হচ্ছে।

  134. অধ্যাপক মোঃ রুহুল আমিন, চলন মহাবিদ্যালয়, জেলা বাকশিস নেতা, কুমিল্লা। says:

    এম পি ও সংক্রান্ত অসত্য তথ্য দিয়ে সংসদীশ সথায়ী কমিটির নিকট শিক্ষা অধিদপ্তর যে অন্যাশ করেছে তা ক্ষমার অযোগ্য। আর এদিকে যেসমস্ত আওয়ামী লীগ নেতৃবৃন্দ, এম পি, মন্ত্রীরা গত দুটি নির্বাচনী ইশতেহারে শিক্ষকদের জন্য আলাদা উচ্চতর স্কেল স্কেল দেয়ার সুপারিশ করে ও এ পর্যন্ত বাস্তবায়নের কোন উদ্যোগ নেয়ার জন্য শিক্ষাবান্ধব দেশরত্ন শেখ হাসিনার নিকট প্রস্তাব রাখতে ব্যর্থতার জন্য এ সমস্ত নেতা এম পি মন্ত্রীদেরকে আগামীতে দলীয় প্রার্থী না দেয়ার জন্য মাননীয় প্রধানমন্ত্রীকে বিনীত আবেদন করছি এবং বেসরকারী শিক্ষা প্রতিষ্ঠানকে জাগীয়করণের উদ্যোগ গ্রহণ করে বাংলাদেশকে ২১ এ মধ্যম আয়ের এবং ৪১ এ উন্নত দেশ গড়ার আন্দোলনে সম্পৃক্ত হউন।

  135. S M Anisul Haque says:

    ঘুসের হাট কে বন্ধ করতে চায়।নিজেরও তো কমিশন আছে।

  136. মো: শাহ আলম- ঘোগাদহ, কুড়িগ্রাম সদর। says:

    অন-লাইন অনেক ভালো যদি দুরনিতি না হয়।

  137. mdlat says:

    যাদের মেধা বলে কিছু নেই অথচ টাকার বিনিময়ে ঘুষ দিয়ে সার্টিফিকেট তথা চাকরিটাকে কিনে নিতে চায় তাদের জন্যই আগের নিয়ম ভালো।

  138. shehid says:

    Teachers have to give bribe from Headmaster to DDPI. A lot of librarians have been listed for MPO according to certificates of Darul Ihsan which they have bought. Still now a lot of teachers is being recruited by managing committee. They are publishing advertisement in backdate. Moreover the recruitment of Headmaster & Assistant Headmaster should be taken off from the managing committee. In this case they loot a lot of money.

  139. অরুন কুমার রায় says:

    টাইমস্কেলের বিষয়টা নিশ্চিত করুন

  140. বর্তমান অনলাইন সিস্টেম উৎকৃষ্ট সিস্টেম । says:

    বর্তমান অনলাইন এম,পি,ও নিয়ম সঠিক। তা বহাল রাখা হোক।

  141. saidul haque says:

    এই পর্যায়ে মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসারদের ঠিক করতে পারলে, মনে হয়, online method is well.

  142. মোহাম্মদ আলী মন্ডল (এটম), প্রভাষক (গণিত), রাজারহাট ফাজিল(ডিগ্রী) মাদ্রাসা,কুড়িগ্রাম। says:

    বিবেক কাজ না করলে ঘুষ বন্ধ হবেনা। দেশে আইন আছে তেমন বাস্তবায়ন হয় না।

  143. নজরুল ইসলাম says:

    ডিগ্রী তৃতীয় শিক্ষকদের জনবল কাঠামোতে অন্তর্ভূক্ত করুন।

  144. মোঃ ছরোয়ারদী says:

    যাদের সার্টিফিকেট ও নিয়োগ কার্যক্রমে ভেজাল, তারাই আগের নিয়ম ভাল মনে করে।

  145. মো: জাহিদুল ইসলাম says:

    কলেজ সৃষ্ট পদের এমপিও ছাড়ার ব্যপারে কোন খোজ খবর দিন।

  146. মো: জাহিদুল ইসলাম says:

    ক্ষমতাশীল দলের নীতি এবং প্রয়োগে মিল থাকলে আশা করি সংসোধন হবে। কলেজ সৃষ্ট পদের এমপিও ছাড়ার ব্যপারে কোন খোজ খবর দিন।

  147. মো: জাহিদুল ইসলাম says:

    ক্ষমতাশীল দলের নীতি এবং প্রয়োগে মিল থাকলে আশা করি সংসোধন হবে। কলেজ সৃষ্ট পদের এমপিও ছাড়ার ব্যপারে কোন খোজ খবর দিন।

  148. মোঃ সোহেল রানা, বড়ভিটা , নীলফামারী । says:

    মানবিক মূল্যবোধ ও নৈতিকতার উন্নয়ন ছাড়া দূর্নিতি দূর হবেনা ৷ বিবেক কাজ না করলে ঘুষ বন্ধ হবেনা। দেশে আইন আছে তেমন বাস্তবায়ন হয় না। আসুন না দুর্নিতি বন্ধ করতে শিক্ষা মন্ত্রানালয় থেকে একটা খোলা পেজ বের করা হোক, এবং তা হোক উন্মুক্ত । সকলেই যেন তা দেখতে পারে । যথা যথ প্রমান সহ কোন দূর্নিতি প্রমান হলে তার বিরুদ্ধে নেয়া হোক একশন । কোন দুর্নিতির কোন ব্যবস্থা নেয়া হল সেটাও খোলা পেজে প্রকাশ করা হোক । তাহলে হয় তো দুর্নিতি বন্ধ হবে ।

  149. মো্ঃ মনিরুল ইসলাম. মাইজপাড়া মাধ্যমিক বালিকা বিদ্যালয়. নড়াইল সদর নড়াইল । says:

    আমার মতে বর্তমান নিয়মটাই যথেষ্ঠ্য ভালো . সবথেকে আরো ভালো হতো জাতীয়করণ হলে ।

  150. মোঃ কাজী জাফর, সহকারি শিক্ষক(কম্পিউটার), সৈয়দ আবদুল মান্নান ডি.ডি.এফ আলিম মাদ্রাসা, বরিশাল। says:

    বর্তমান তথ্য প্রযুক্তির যুগে এমপিও বিকেন্দ্রীকরন একটি যুগপযোগী সিদ্ধান্ত ছিল। এজন্য বর্তমান মাননীয় শিক্ষামন্ত্রীকে ধন্যবাদ জানাই। কিন্তু কিছু অসাধু কর্মকর্তা কর্মচারী ঘুষ, দুর্নীতির সাথে জড়িয়ে পরছে। যার কারনে এই ব্যবস্থা অনেক বিতর্কের জন্ম দিয়েছে। তাই মাননীয় শিক্ষামন্ত্রীকে অনুরোধ করব এই অনলাইন এমপিও ব্যবস্থা বন্ধ না করে বরং যারা ঘুষ, দুর্নীতির সাথে জড়িত তাদের কঠোর শাস্তির আওতায় এনে দৃস্টান্ত মূলক শাস্তির ব্যবস্থা করা।

  151. Md. Nazirul Islam says:

    এসব অসৎ কর্মকর্তাদের দৃষ্টা্ন্তমূলক শাস্তি চাই।

  152. Md.Shahjahan Shaju Lecturer (Sociology) R A Goni School and college UP: Sadullapur . Dis:Gaibandha says:

    আপনাদের কাছে সব সম্ভব এমনি একজন সাহসী সরকার। মানুষ দরদী সরকার আপনি।মাননীয় প্রধান মন্ত্রী , মাননীয় শিক্ষা মন্ত্রী এবং মাননীয় অর্থ মন্ত্রীর নিকট আমার আকুল আবেদন আমাদের বেবস্তা করে দেবেন ,আমরা আপনার সন্থান। অনেক কষ্টে আসি পরিবার নিয়ে। শিক্ষা প্রতিষ্টান এম পি ও ।

আপনার মন্তব্য দিন