please click here to view dainikshiksha website

এসএসসির খাতা ভুল মূল্যায়ন: ৭২ পরীক্ষককে শোকজ

নিজস্ব প্রতিবেদক | আগস্ট ৮, ২০১৭ - ১১:৫৯ অপরাহ্ণ
dainikshiksha print

ঢাকা শিক্ষা বোর্ডের অধীনে এবার মাধ্যমিক স্কুল সার্টিফিকেট পরীক্ষার (এসএসসি) উত্তরপত্র মূল্যায়নে মারাত্মক ভুলের কারণে ৭২ পরীক্ষককে কারণ দর্শানোর (শোকজ) নোটিশ দেওয়া হয়েছে।

ঢাকা মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড থেকে সোমবার (৭ আগস্ট) পরীক্ষকদের কাছে এ নোটিশ পাঠানো হয়।

নোটিশে বলা হয়েছে, এসএসসি পরীক্ষা-২০১৭ এর উত্তরপত্র মূল্যায়নে পরীক্ষকদের বিভিন্ন ধরণের ভুল-ত্রুটি হয়েছে। বিষয়টি উত্তরপত্র পুনঃনিরীক্ষণের সময় প্রমাণিত হয়েছে। এটি উত্তরপত্র মূল্যায়নের মতো অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ কাজে দায়িত্ব পালনে অবহেলার সামিল।

এজন্য ওই পরীক্ষকদের বিরুদ্ধে কেন বিধি মোতাবেক ব্যবস্থা নেওয়া হবে না- সাত কর্মদিবসের মধ্যে বোর্ডের পরীক্ষা নিয়ন্ত্রকের কাছে এর জবাব পাঠাতে বলা হয়েছে নোটিশে।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে ঢাকা শিক্ষা বোর্ডের চেয়ারম্যান অধ্যাপক মাহবুবুর রহমান বলেন, ‘এসএসসির খাতা পুনঃনিরীক্ষণের সময় আমরা বিভিন্ন ধরণের ভুল পেয়েছি। খাতায় কোনো কোনো উত্তরের নম্বর দেওয়া ছিল না। কোথাও বা নম্বর ট্রান্সফারের সময় ভুল হয়েছে।’

এবারই প্রথম খাতা দেখার ভুলের জন্য শোকজ করা হল জানিয়ে তিনি বলেন, ‘পরীক্ষকের একটা ভুলের জন্য একজন শিক্ষার্থীর জীবন নষ্ট হয়ে যেতে পারে। তাই পরীক্ষকরা যাতে বোঝেন যে ভুল করলে ধরা পড়তে হবে। অনেক পরীক্ষকের ধারণা পরে আর খাতা পড়া-টরা হয় না।’

মাহবুবুর রহমান আরও বলেন, ‘যারা পুনঃনিরীক্ষণ করেছেন তাদের বলেছি আপনাদের খাতাও বাছাই করে দেখব। সেখানে ভুল হলে কঠিন শাস্তি পেতে হবে।’

গত ৪ মে চলতি বছরের এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষার ফল প্রকাশিত হয়। এই পরীক্ষায় ১০টি বোর্ডে গড় পাসের হার ছিল ৮০ দশমিক ৩৫ শতাংশ। মোট জিপিএ-৫ পায় এক লাখ ৪ হাজার ৭৬১ জন পরীক্ষার্থী। আটটি সাধারণ শিক্ষা বোর্ডে এসএসসিতে পাসের হার ছিল ৮১ দশমিক ২১ শতাংশ। এরমধ্যে ঢাকা বোর্ডে ৮৬ দশমিক ৩৯ শতাংশ শিক্ষার্থী পাস করেছিল।

এ বছর ৫ থেকে ১১ মে পর্যন্ত এসএসসির উত্তরপত্র পুনঃনিরীক্ষণের আবেদন করে শিক্ষার্থীরা। পুনঃনিরীক্ষণের ফল প্রকাশিত হয় ৩০ মে। এতে ঢাকা বোর্ডের এক হাজার ৬৭৯ জন শিক্ষার্থীর ফল পরিবর্তন হয়েছে। তবে মোবাইল ফোনের মাধ্যমে পুনঃনিরীক্ষণের আবেদনে শিক্ষার্থীদের প্রতিটি পত্রের জন্য ১২৫ টাকা হারে ফি দিতে হয়।

শোকজ নোটিশপ্রাপ্ত পরীক্ষকদের তালিকা

সংবাদটি শেয়ার করুন:


পাঠকের মন্তব্যঃ ৫৫টি

  1. আমীমুল এহছান says:

    এই ব্যাপরে বোর্ডের কতৃপক্ষরাই দায়ি। উনারা যাচাই বাছাই না করে বয়স্কদের প্রধান ও পরীক্ষক নিয়োগ দিয়ে থাকেন। যোগ্যতা দেখে নিয়োগ দিলে এমনটা হওয়ার সম্ভবনা কম হবে।

  2. Bipradas shil.Lecturer Ag, BAF Shaheen College,Tangail. says:

    অপরাধের শাস্তি হওয়া উচিত।

  3. Reza SHS says:

    Sir, Vul kintu onak prokar. Amon kno vular shasti diben na jno teachergon parikkhok haita interest haria fala.Taba issakrito vular shasti abbossai haoya cai. 01773972558

  4. R.k.Roy says:

    যেখানে জাতি গড়ার কারিগড় শিক্ষকদের মূল্যায়ন করা হয়না ।সেখানে পরীক্ষার খাতা সঠিক মূল্যায়ন হাস্যকর বিষয়! ননএমপিও শিক্ষক কি খেয়ে সঠিকভাবে কাজ করবেন?

  5. Abu Sufian.. Assistant teacher..Patanuher High School..kamalgonj.. says:

    মাধ্যমিক শাখার
    ১৩/১১/১১ কালো প্রজ্ঞাপন বাতিল করে সকল শাখা শিক্ষকদের এম,পি,ও দিন।।

    ব্যবসায় শাখা কে
    প্যাট্যার্ন ভুক্ত শুন্য ঘোষনা করে এ শাখার সকল শিক্ষক দের
    এম,পি,ও দিন।।

  6. আজাদ সিদ্দিকী says:

    যারা প্রত্যাশার বেশি নম্বর পেয়েছে তারাতো আবেদন করেনি ৷ তাদের খাতাও যদি পুণঃনিরক্ষণ করা হয় তাহলে আরো বড় ধরনের ঘাপলা আবিস্কার হবে নিশ্চয় ৷

  7. অাবদুর রাজ্জাক সহঃশিঃ চর অালগী ইছামুদ্দীন উচ্চ বিদ্যালয়,বৈরাগীরচর,কটিয়াদী,কিশোরগঞ্জ। says:

    খাতা সঠিকভাবে মূল্যায়ন করা পরীক্ষকের নৈতিক দায়িত্ব।

  8. মো:সাইফুল ইসলাম,অধ্যক্ষ কোহিনৃর হাইস্কুল অ্যান্ড কলেজ,তরগাও,কাপাসিয়া,গাজীপুর। says:

    শিক্ষকদের সুকোচ করার পৃর্বে শিক্ষাবোর্ডের কর্মকর্তা কর্মচারীদের সুকোচ করা উচিৎ। অর্থের বিনিময়ে পরীক্ষক নিয়োগ দেওয়া হয় তানা হলে জীব বিজ্ঞানে শিক্ষক গনিতের প্রধান পরীক্ষক,কাব্যতীর্থের শিক্ষক গনিতের প্রধান পরীক্ষক,বাংলার শিক্ষক ইংরেজীর পরীক্ষক হয় কি ভাবে?

  9. ভূপাল প্রামানিক, প্র:শি: নামুজা উচ্চ বি: & সেক্রেটারি, বা: প্রধান শিক্ষক সমিতি, বগুড়া সদর। 01711 515468 says:

    ওকে

  10. HARUN says:

    Comillaboard এর HSC Examiner- দের গত দুই বছরের পারিশ্রমিকের খবর নেই !

  11. HARUN says:

    Comillaboard এর HSC Examinnner- দের গত দুই বছরের পারিশ্রমিকের খবর নেই !

  12. anuarul islam says:

    শিক্ষকের সমগ্র শিক্ষাজীবন থার্ডক্লাস। আর সেই শিক্ষককে বানিয়েছে প্রধান পরিক্ষক,তাহলে ত এমন হবেই।শিক্ষা জীবন মূল্যায়ন করে পরিক্ষক নির্বাচন করা উচিত।

  13. শেখ শামাউন says:

    পরীক্ষার খাতা মূল্যায়ন ত্রুটি গ্রহণযোগ্য নয়। এই সকল শিক্ষকদের ভবিষ্যতে খাতা মূল্যায়ন থেকে বিরত রাখা উচিৎ। সেই সঙ্গে শিক্ষণ কার্যক্রমের কোন কিছুতে অবহেলা বাঞ্চনীয় নয়।

  14. Md.Badsha Ali says:

    শিক্ষকের সমগ্র শিক্ষাজীবন থার্ডক্লাস। আর সেই শিক্ষককে বানিয়েছে প্রধান পরিক্ষক,তাহলে ত এমন হবেই।শিক্ষা জীবন মূল্যায়ন করে পরিক্ষক নির্বাচন করা উচিত। …………. 01727-752600 , 01515-228157
    Badsha , Rajshahi Bagha

  15. অধ্যাপক মোঃ রুহুল আমিন, চলন মহাবিদ্যালয়, জেলা বাকশিস নেতা, কুমিল্লা। says:

    খাতা মূল্যায়নের সম্মানী বৃূ্দ্ধির পাশাপাশি খাতা মূল্যায়নের প্রশিক্ষনের ব্যবস্থা করতে পারলে এ জাতীয় সমস্যা থেকে উত্তরণ সম্ভব। তাছাড়া বোর্ড থেকে সরবরাহকৃত সৃজনশীল প্রশ্নের উত্তর দেয়া বন্ধ না করলে শিক্ষকদের পাশাপাশি ছাত্রদের সৃজনশীলতা নষ্ট হয়ে যাবে। এজন্য বোর্ড থেকে সৃজনশীল প্রশ্নের সমাধান সরবরাহ বন্ধ করতে হবে এবং গাইড বইয়ের প্রকাশনা, বিক্রি বন্ধের উদ্যোগ গ্রহণ করতে হবে।

  16. মো.আলাল মিয়া, সহকারী শিক্ষক দেওয়ানগজ্ঞ বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়।দেওয়ানগজ্ঞ,জামালপুর says:

    পরবতিতে খাতা না দেওয়া উচিত।

  17. মুহাম্মদ শোয়াইব says:

    জনাব আপনার সংবাদটির শিরোনামটি একটু লক্ষ করুন….. এসএসসি এর পরিবর্তে এএসসি।

  18. মো: আইয়ুব আলী says:

    শোকজ করলেই হবে না শাস্তি দিতে হবে।

  19. আব্দুল্লাহ says:

    Dear,
    Head examiners will be given khatas over 800 and just 12-15 days to evaluate. How will it be possible to expect perfect evaluation??? Increase the days for khata evaluation, please.

  20. Md Nahid uddin B ED, MA Galachipa, Patuakhali says:

    এই অলসতার জন্য আইন গত ব্যবস্তা নিন। তাদের কারনে হাজার হাজার ছাএ ছাএূী ফেল এবং আত্ম হত্যা করেছে।

  21. পরাগ,ময়মনসিংহ। says:

    Why examiners did not get last years JSC/16 and SSC/17 khata evaluation fees.

  22. শামসুল শহিদ,বড়াইগ্রাম নাটোর। says:

    একজন পরীক্ষককে খাতার সংখ্যা কমিয়ে দিয়ে,পারিশ্রমিক ও মূল্যায়নের সময় বাড়িয়ে দিয়ে, ফেল করাবেন না, এ প্লাস যেন এতটা থাকে ইত্যাদির পিছন থেকে জুজু বুড়ির ভয় না দেখিয়ে, মান সম্মত শিক্ষকদের দ্বারা খাতা মূল্যায়ন নিশ্চিত করতে পারলেই এ সমস্যার সমাধান হতে পারে ইনশাআল্লাহ।

  23. সুভাষ, দক্ষিণ বল্লভপুর উচ্চ বিদ্যালয় ও কলেজ, ছাগলনাইয়া,ফেনী says:

    লেবু বেশি চাপলে তেতো হয়ে যায়।

  24. harun says:

    2015 সনের জে.এস.সি পরীক্ষার তথ্য ও যোগাযোগ বিষয়ের খাতা মূল্যায়নের পারিশ্রমিক এখনো পাইনি ।

  25. harun,Saherchar High school,Raipura, Narsingdi says:

    2015 সনের জে.এস.সি পরীক্ষার তথ্য ও যোগাযোগ বিষয়ের খাতা মূল্যায়নের পারিশ্রমিক এখনো পাইনি ।

  26. Md. Refaz uddin AT says:

    এবারই প্রথম কোন পরীক্ষার্থী মাত্র ১ নম্বরের জন্য ফেল করেছে এবং ১ নম্বরের জন্য A+ পায়নি। মাননীয় চেয়ারম্যান মহোদয় দয়া করে বলবেন কি, প্রান্তিক নম্বর দেয়া নিষেধ থাকা সত্যেও কেন এমন হল আর এর শাস্তি কি শুধু শিক্ষার্থীরাই পাবে?

  27. Karttic chandra chakra barty. says:

    আপনার মন্তব্য আরও আগে থেকে এই ব্যবস্থা গ্রহন করলে শিক্ষার্থীদের কোন ক্ষতি হতো না।আদর্শবান শিক্ষক কয়জন হয়?

  28. জিয়া রহমান says:

    এমপিও ভুক্ত ডিগ্রী কলেজের তৃতীয় শিক্ষকদের বেতন দিন।

  29. পবিত্র কুমার রায় সহকারী শিক্ষক(গণিত) বেতুড়া দ্বি-মূখী উচ্চ বিদ্যালয় says:

    শিক্ষার গুনগত মান নিয়ে প্রশ্ন বিদ্ধ সচেতন শুশীল সমাজ কিন্তু শিক্ষকদের বেতন ভাতা কতটুকু এটা নিয়ে কি কোন ভাবনা ভাবা
    সচেতন সমাজের কাজ করে না- – – – –

  30. ‌মোহাম্মদ অালাউ‌দ্দিন, সহকা‌রি প্রধান শিক্ষক, জম‌শেরপুর উচ্চ বিদ্যালয়। says:

    খাতা মুল্যায়ন শিক্ষকগ‌ণের নৈ‌তিকতার বিষয়,

  31. রনজীৎ মন্ডল says:

    বরিশাল বোর্ডের খবর কি

  32. মোঃরফিকুল ইসলাম,সহকারী শিক্ষক,আল-মাদানী দাখিল মাদ্রাসা,আশাশুনি, সাতক্ষীরা। says:

    যদি একজন ভাল ছাত্র পরীক্ষায় ফেল করে আত্মহত্যা করে আর পুনঃনীরিক্ষায় যদি সে পাশ করে তার জীবনটা ফেরত দেবে কে?

  33. robi khan says:

    খাতা সঠিক মূল্যায়ন হবে তখনিই যখন মূল্যায়নকারী ভুল করলে তাকে মূল্যদিতে হবে চরম…
    তখন ভুঁইফোঁড় মূল্যায়নকারী আর খাতা মূল্যায়ন করার বাসনা দেখাবেনা।

  34. মোহাম্মদ হারুনুর রশিদ- সাংগঠনিক সম্পাদক, জমিয়তুল মোদাররেসীন, রাউজান, চট্টগ্রাম। says:

    দায়িত্ব গ্রহন যখন করেছেন, অবশ্যই তা সঠিক ও দায়িত্ব সহকারে করা উচিৎ ।

  35. কল্যাণ says:

    অন্যায়ের মাত্রা আর শাস্হির মাত্রায় সমতা থাকা আবশ্যক।

  36. চন্দন# সুন্দরগঞ্জ মহিলা কলেজ, গাইবান্ধা। says:

    যুক্তিযুক্ত

  37. Nazir Ahmed, Ashulia College. Dhaka. says:

    very nice attem.

  38. saiful islam, santhia, pabna says:

    so far as I know more than 70% teachers do not go through students’ answer scripts.they evaluate answer scripts by guessing .who can save students?

  39. মু আমজাদ হোসেন, সহঃ অধ্যাপক, ইংরেজি, কফিল উদ্দিন বিশ্ববিদ্যালয় কলেজ, লক্ষ্মীপুর । says:

    বোর্ডের উত্তরপত্র মূল্যায়ন শুধু গুরুত্বপূর্ণ নয়, ঝুঁকিপূর্ণও । তুলনায় পারিশ্রমিক কম এবং তাও বহু বিলম্বে হস্তগত হয় । এমনিতেই এসব কারনে যোগ্য শিক্ষকরা আস্তে আস্তে বোর্ডের উত্তরপত্র মূল্যায়নে আগ্রহ হারাচ্ছেন, তার উপর এ ধরনের উদ্বেগজনক সংবাদ পড়লে সেই আগ্রহে জোয়ার না ভাঁটা আসবে সহজেই অনুমেয় ।

  40. মোঃ নেকবর আলী ,সভাপতি ,বাংলাদেশ শিক্ষক সমিতি, পাকুনদিয়া শাখা । says:

    একটি খাতা পরীক্ষ , নিরীক্ষ , ও প্রধান পরীক্ষক মূল্যায়ন করেন কোন ভুল প্রমানিত হলে তিন জনই তাঁর জন্য দায়ী । খাতা মূল্যায়নের জন্য আরও সময় দিতে হবে । প্রধান শিক্ষকদেরকে অভিজ্ঞতার ভিত্তিতে প্রধানপরীক্ষক নিয়োগ দিলে এ ধরনের জঠিলতা হবে না বলে আমার ধারনা ।

  41. মোঃ মিজানুর রহমান, সহকারী শিক্ষক(১০৯৮৬৮) says:

    আমি মনেকরি খাতা বিতরণ পদ্ধতির ত্রুতি ও দায়িত্বপ্রাপ্তদের বিচক্ষনতার ঘাটতিই এর প্রদান কারন। প্রথমত বিষয়বিত্তিক শিক্ষকদের স্ব স্ব বিষয়ের খাতা দিতে হবে। লক্ষ্য করেছি ক্লাসে পড়ান ধর্ম কিন্তু সিনিয়র শিক্ষক হওয়ার কারণে তাকে ইংরেজী খাতা প্রদান করা হয়েছে। নির্দিষ্ট বিষয়ের উপর শিক্ষাগত যোগ্যতা থাকলেও তাকে সেই বিষয় প্রদান করা হচ্ছেনা। এছাড়াও অনেক অনিয়ম দেখা যায় যা দায়িত্বপ্রাপ্তদের কর্তব্যকে প্রশ্নবিদ্ধ করে।

  42. মো:আতিক উল্লাহ, শিক্ষক। says:

    এ ভাবে প্রাথমিক শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষার কথা মূল্যায়ন করেও শোকজ করা উচিৎ। ঐথানেও সঠিক মূল্যায়েন অবহেলা হয়।

  43. মোঃ হুমায়ুন কবির,সহকারী প্রধান শিক্ষক,এ.ডি.এম.উচ্চ বিদ্যালয়,মির্জাপুর,টাংগাইল। says:

    পরীক্ষকদের মূল্যায়ণকৃত উত্তরপত্র মূল্যায়নের পর জমা দেন তার প্রধান পরীক্ষকের কাছে।প্রধান পরীক্ষক তার অধীনস্ত নিরীক্ষকদের দিয়ে নিরীক্ষা করিয়ে থাকেন এবংপ্রধান পরীক্ষক উত্তর পত্র পুনঃমূল্যায়ন করে থাকেন,এক্ষেত্রে তো ভুল হওয়ার প্রশ্নই উঠেনা।সবচেয়ে বড় অপরাধ হল প্রধান পরীক্ষকের কারন একজন পরীক্ষক ভুল করতেই পারেন,এজন্যই তো প্রধান পরীক্ষক।প্রধান পরীক্ষক তিনি তার নিরীক্ষকদের নিয়ে যাবতীয় ভুলভ্রান্তি সংশোধন,বিয়োজন, সংযোজনের কাজ করে থাকেন। এখন সবাই ভাবুন সত্যিকারের দোষটা কার?শুধু তালিকায় সংযুক্ত পরীক্ষকদের নয় তাদের প্রধান পরীক্ষকদেরও শোকজ করে কঠিন শাস্তি দেয়া হোক যাতে পরবর্তীতে কোন পরীক্ষক,প্রধান পরীক্ষক দায়িত্বের প্রতি কোন প্রকার খামখেয়ালিপনা না করে।

  44. আব্দুল হান্নান মিয়া, সিনিয়র সহকারী শিক্ষক, বন্দর, নারায়ণগন্জ। says:

    এ ব্যাপারে শুধু পরীক্ষক নন, প্রধান পরীক্ষক এবং বোর্ড কতৃপক্ষ দায়ী। যোগ্য এবং দায়িত্বশীল শিক্ষকদের পরীক্ষক হিসেবে নিয়োগ দিন।

  45. আব্দুল হান্নান মিয়া, সিনিয়র সহকারী শিক্ষক, বন্দর, নারায়ণগন্জ। says:

    It is responsibilities of examiners, head examiners and education board athurity but not only examiners. Please recruit qualify and responsible teachers.

  46. samsul alam says:

    ১৫-২০ দিনে উত্তর পত্র মূল্যায়ন করতে বলা হয়। তা আনতে হয় বোর্ডে গিয়ে। ফলে দূর-দূরান্তের শিক্ষকদের অপচয় হয় আরও ২/১ দিন। এ অল্প সময়ে ২০০/৩০০ খাতা সঠিকভাবে মূল্যায়ন করা খুবই কঠিন কাজ। আবার শিক্ষামন্ত্রী মহোদয় ৬০ দিনে ফল প্রকাশ করে জাতির কাছে বাহবা পেতে চান। কিন্তু যে শিক্ষকদের উপর এ খবরদারী তাদের দায়িত্ব পালনের সঠিক পারিশ্রমিক সময়মত পরিশোধ করা হয় কি? অবশ্যই না।

  47. সিকদার হুমায়ুন কবির,সহকারী প্রধান শিক্ষক,এ.ডি.এম.উচ্চ বিদ্যালয়,মির্জাপুর,টাংগাইল। says:

    পরীক্ষক উত্তরপত্র মূল্যায়নের পর জমা দেন তার প্রধান পরীক্ষকের কাছে।প্রধান পরীক্ষক তার অধীনস্ত নিরীক্ষকদের দিয়ে নিরীক্ষা করিয়ে থাকেন এবংপ্রধান পরীক্ষক উত্তর পত্র পুনঃমূল্যায়ন করে থাকেন,এক্ষেত্রে তো ভুল হওয়ার প্রশ্নই উঠেনা।সবচেয়ে বড় অপরাধ হল প্রধান পরীক্ষকের কারন একজন পরীক্ষক ভুল করতেই পারেন,এজন্যই তো প্রধান পরীক্ষক।প্রধান পরীক্ষক তিনি তার নিরীক্ষকদের নিয়ে যাবতীয় ভুলভ্রান্তি সংশোধন,বিয়োজন, সংযোজনের কাজ করে থাকেন। এখন সবাই ভাবুন সত্যিকারের দোষটা কার?শুধু তালিকায় সংযুক্ত পরীক্ষকদের নয়, তাদের প্রধান পরীক্ষকদেরও শোকজ করে কঠিন শাস্তি দেয়া হোক। যাতে পরবর্তীতে কোন পরীক্ষক,প্রধান পরীক্ষক, নিরীক্ষক স্ব-স্ব দায়িত্ব পালনে কোন প্রকার খামখেয়ালিপনা না করে।

  48. মতিউর রহমান মতিন। হাজি ইব্রাহিম আলমচান মডেল স্কুল এন্ড কলেজ, বন্দর, নারায়ণগঞ্জ। says:

    ইনডেক্স বিহিন শিক্ষকদের দিয়ে খাতা মুল্যায়ন করালে এর চাইতে ভাল আর কি আশা করা যায়।

  49. ম‌ো: আখতার হ‌োসেন ।ড়েড়ামারা ,কুষ্ট‌িয়া । says:

    যশ‌োর ব‌োর্ডের ইংর‌েজী ব‌িষয়ের খাতা মূল্যায়ন খুবই খারাপ হয়‌েছে । পুনঃ ন‌িরীক্ষ ণ‌ের সময় শুধু নম্বর না গুন‌ে একটু তল‌িয়‌ে দেখব‌েন বল‌ে আশা কর‌ি ।

  50. M.H.Bablu, Bangbandhu High school জামাল পুর says:

    শিক্ষকের নিজ দায়িত্বে খাতা দেখা উচিত এবং সেই সাথে খাতা দেখার বিল সময় মত পরিশোধ করুন ।পুরা শিক্ষা ব্যবস্থা জাতীয়করণ করুন ।

  51. হুমায়ুন কবির says:

    মাত্র সাত থেকে দশ দিনের মধ্যে পাঁচ/ছ’শ খাতা কী আসলেই মূল্যায়ণ সম্ভব? না পাতায় পাতায় নাম্বার বসানো! ৬০ দিনের মধ্যে ফল প্রকাশের কথা কী সংবিধানে লেখা আছে যে, সংবিধান লঙ্ঘন হয়ে যাবে? কারো কৃতীত্ব দাবীর জন্যে দেশের শিক্ষা আজ ধংস হতে চলেছে!!

  52. ‌মোঃ শা‌হিনুর আলম,প্রভাষক,‌ডিমলা ম‌হিলা ক‌লেজ,নীলফামারী says:

    শিক্ষকদের জবাবের মাধ্যমে জানা যাবে, কেন তারা এ রকম ভুল করেছে? আর বোর্ড কতৃপক্ষ কি কি পদক্ষেপ নেয় সেটাও জানার বিষয়?

আপনার মন্তব্য দিন