করোনা উপসর্গ নিয়ে শিক্ষকসহ আরও ১৮ জনের মৃত্যু - করোনা আপডেট - দৈনিকশিক্ষা

করোনা উপসর্গ নিয়ে শিক্ষকসহ আরও ১৮ জনের মৃত্যু

দৈনিকশিক্ষা ডেস্ক |

জ্বর, সর্দি-কাশি ও শ্বাসকষ্টে সারাদেশে আরও ১৮ জনের মৃত্যুর খবর পাওয়া গেছে। রাজশাহীতে মারা গেছেন সাবেক এক ব্যাংক কর্মকর্তা। বরিশালে আট ঘণ্টায় পাঁচজনের মৃত্যু হয়েছে। কুমিল্লায় মারা গেছেন তিনজন। খুলনায় মারা গেছেন এক নারী। লক্ষ্মীপুরে স্কুলশিক্ষকসহ দু'জনের মৃত্যু হয়েছে। মারা গেছেন বগুড়া, মাদারীপুর ও পিরোজপুরের ইন্দুরকানীর তিন ব্যবসায়ী। রাঙামাটিতে এর নারীর মৃত্যু হয়েছে।

এ ছাড়া পটুয়াখালী ও দিনাজপুরের বিরামপুরে একজন করে মারা গেছেন। এ নিয়ে করোনা উপসর্গে সারাদেশে ৯৩২ জনের মৃত্যু হলো।

প্রতিবেদক ও প্রতিনিধিদের পাঠানো খবর- রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের আইসিইউতে গত শুক্রবার রাতে মারা যান মহানগরীর ফুদকিপাড়া এলাকার বাসিন্দা আবদুর রাজ্জাক (৬৯)। জনতা ব্যাংকের অবসরপ্রাপ্ত কর্মকর্তা রাজ্জাক শ্বাসকষ্টে ভুগছিলেন।

বরিশাল শেরে-বাংলা চিকিৎসা মহাবিদ্যালয় হাসপাতালের করোনা ওয়ার্ডে শুক্রবার দুপুর ২টা থেকে রাত ১০টার মধ্যে মারা গেছেন পাঁচজন। রাত ১০টার দিকে মারা যান জেলার উজিরপুরের এক ব্যক্তি (৫০)। এর আগে বরিশাল নগরের এক নারী (৪৫) মারা যান। সন্ধ্যায় মারা যান নগরের আরেক ব্যক্তি (৪৫) ও বরগুনার বামনা উপজেলার এক বৃদ্ধ (৮০)। দুপুরে মৃত্যু হয় নগরের এক বৃদ্ধের (৬৩)।

শুক্রবার থেকে গতকাল শনিবার পর্যন্ত ২৪ ঘণ্টায় কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে তিনজনের মৃত্যু হয়েছে। হাসপাতালের পরিচালক ডা. মুজিবুর রহমান এ তথ্য জানান। মৃতরা হলেন- জেলার বুড়িচং উপজেলার বারবী মিয়ার ছেলে আলমগীর হোসেন (৬০), সদর দক্ষিণের সেকান্দর মিয়ার ছেলে মোসলেম উদ্দিন (৬৫) এবং আদর্শ সদর উপজেলার বিবিরবাজার এলাকার ইকবাল মজুমদারের ছেলে তানভীর মজুমদার (৪০)।

খুলনায় জ্বর ও শ্বাসকষ্ট নিয়ে গতকাল দুপুরে এক নারী মারা যান। খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের পরিচালক ডা. মুন্সী মো. রেজা সেকেন্দার জানান, জেলার বটিয়াঘাটা উপজেলার দারোগার ভিটা এলাকার ইসমাইল হাওলাদারের স্ত্রী রওশন আরা (৫৮) শুক্রবার রাতে হাসপাতালে ভর্তি হন। পরে আইসিইউতে নেওয়ার পর তিনি মারা যান।

লক্ষ্মীপুর সদর উপজেলায় জ্বর, সর্দি ও শ্বাসকষ্টে হাসন্দি এলাকার ওসমান গণি (৭০) ও ভবানীগঞ্জ এলাকার স্কুলশিক্ষক নাজির উল্যা (৬৫) মারা গেছেন। ভারপ্রাপ্ত সিভিল সার্জন ও জেলা সদর হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসার ডা. আনোয়ার হোসেন এ তথ্য জানান।

রাঙামাটির চম্পকনগরের জনসংখ্যা প্রশিক্ষণ ইনস্টিটিউট (আরপিটিআই) আইসোলেশন কেন্দ্রে গতকাল দুপুরে মারা যান এক গৃহবধূ (৪০)। শহরের চম্পকনগরের বাসিন্দা ওই নারী জ্বর ও শ্বাসকষ্টে ভুগছিলেন। বাসায় চিকিৎসা নেওয়ার পর গতকাল সকালে তাকে আইসোলেশন কেন্দ্রে নেওয়া হয়।

বগুড়ার মোহাম্মদ আলী হাসপাতালে গতকাল দুপুরে ফরিদ উদ্দিন (৬০) নামে একজনের মৃত্যু হয়। তিনি শহরের রাজাবাজারের ব্যবসায়ী ছিলেন। তার বাড়ি শহরতলির ছোট কুমিড়া এলাকায়। করোনা উপসর্গ নিয়ে তিনি গতকাল সকালে ভর্তি হয়েছিলেন বলে জানান হাসপাতালের আরএমও ডা. খায়রুল বাশার মোমিন।

মাদারীপুর সদর হাসপাতালে গতকাল সকালে সন্তোষ কর্মকার (৫০) নামে এক স্বর্ণ ব্যবসায়ী মারা গেছেন। তার বাড়ি শহরের পুরানবাজারে। জ্বর-কাশি নিয়ে তাকে শুক্রবার সকালে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

পিরোজপুরের ইন্দুরকানীর ব্যবসায়ী সুধীর রঞ্জন মালাকার শুক্রবার সন্ধ্যায় খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে মারা যান। তার বাড়ি ইন্দুরকানী উপজেলার পাড়েরহাট বন্দরে। তিনি জ্বর, সর্দি, কাশি ও শ্বাসকষ্টে ভুগছিলেন। তার ডায়াবেটিসও ছিল।

পটুয়াখালী ২৫০ শয্যা হাসপাতালে গতকাল সকালে আইসোলেশনে ভর্তি হওয়ার পরপরই এক ব্যক্তি মারা গেছেন ৬৫)। তার বাড়ি শহরের মাঝগ্রাম এলাকায়। তিনি জ্বর-শ্বাসকষ্টে ভুগছিলেন।

দিনাজপুরের বিরামপুর উপজেলার কসবাসাগরপুর গ্রামের বাড়িতে শুক্রবার বিকেলে দেলোয়ার হোসেন (৬০) নামে এক বৃদ্ধ মারা যান। তিনি একই গ্রামের দসিমুদ্দিনের ছেলে।

একাদশে শিগগিরই ভর্তি কার্যক্রম শুরু হবে : শিক্ষামন্ত্রী - dainik shiksha একাদশে শিগগিরই ভর্তি কার্যক্রম শুরু হবে : শিক্ষামন্ত্রী প্রাথমিক সমাপনী পরীক্ষা বন্ধের পরিকল্পনা নেই : গণশিক্ষা প্রতিমন্ত্রী - dainik shiksha প্রাথমিক সমাপনী পরীক্ষা বন্ধের পরিকল্পনা নেই : গণশিক্ষা প্রতিমন্ত্রী করোনায় আরও ৪১ জনের মৃত্যু, নতুন শনাক্ত ৩ হাজার ৩৬০ - dainik shiksha করোনায় আরও ৪১ জনের মৃত্যু, নতুন শনাক্ত ৩ হাজার ৩৬০ অধ্যক্ষ-উপাধ্যক্ষ হতে পারছেন না প্রভাষকরা: রুলের জবাব দেয়নি সরকার - dainik shiksha অধ্যক্ষ-উপাধ্যক্ষ হতে পারছেন না প্রভাষকরা: রুলের জবাব দেয়নি সরকার ‘বঙ্গবন্ধুর স্মৃতিকথা’ নামে আরেকটি বই প্রকাশ হবে - dainik shiksha ‘বঙ্গবন্ধুর স্মৃতিকথা’ নামে আরেকটি বই প্রকাশ হবে শিক্ষায় বঙ্গবন্ধুর অবদান নিয়ে লেখা আহ্বান - dainik shiksha শিক্ষায় বঙ্গবন্ধুর অবদান নিয়ে লেখা আহ্বান শিক্ষক প্রশিক্ষণের নামে টেসলের বিরুদ্ধে প্রতারণার অভিযোগ - dainik shiksha শিক্ষক প্রশিক্ষণের নামে টেসলের বিরুদ্ধে প্রতারণার অভিযোগ বিনামূল্যে আন্তর্জাতিক মানের ডিজিটাল কনটেন্ট দিচ্ছে টিউটর্সইঙ্ক - dainik shiksha বিনামূল্যে আন্তর্জাতিক মানের ডিজিটাল কনটেন্ট দিচ্ছে টিউটর্সইঙ্ক শিক্ষকদের ফ্রি অনলাইন প্রশিক্ষণ চলছে - dainik shiksha শিক্ষকদের ফ্রি অনলাইন প্রশিক্ষণ চলছে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া - dainik shiksha জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া please click here to view dainikshiksha website