কুয়াকাটায় উদ্ধার হলো ঢাকা থেকে 'অ্যাডভেঞ্চারে বের হওয়া' চার শিক্ষার্থী - বিবিধ - দৈনিকশিক্ষা

কুয়াকাটায় উদ্ধার হলো ঢাকা থেকে 'অ্যাডভেঞ্চারে বের হওয়া' চার শিক্ষার্থী

কলাপাড়া (পটুয়াখালী) প্রতিনিধি |

পুলিশের আন্তরিকতায় ঢাকা থেকে পালিয়ে আসার তিনদিন পর কুয়াকাটায় উদ্ধার হলো স্কুল-মাদরাসা পড়ুয়া চার শিক্ষার্থী। গত বৃহস্পতিবার রাতে পটুয়াখালীর কুয়াকাটা সমুদ্র সৈকতে মহিপুর থানা টহল পুলিশ তাদের উদ্ধার করে। উদ্ধার হওয়া শিশুরা হলো সুমাইয়া (১৩), তাসিব হোসেন(১৩), ইয়াসিন(১৬)ও ইব্রাহিম(১৬)। শুক্রবার (২৬ জুন) বিকালে মহিপুর থানা প্রাঙ্গনে তাদের অভিভাবকদের কাছে কিশোর-কিশোরীদের হস্তান্তর করা হয়। 

এ সময় মহিপুর থানা পুলিশের সদস্যরা তাদের ফুল দিয়ে শুভেচ্ছা জানান। পুলিশ জানায় করোনা আতংকে দীর্ঘদিন বাসায় গৃহবন্দী থাকার পর সবার অগোচরে বাসা থেকে বের হয়ে এই অ্যাডভেঞ্চারে বের হয় তারা।

 ঢাকা থেকে পালিয়ে আসার তিনদিন পর কুয়াকাটায় থেকে উদ্ধার চার শিক্ষার্থী । ছবি : পটুয়াখালী প্রতিনিধি

পুলিশ জানায়, গত বৃহস্পতিবার রাতে কুয়াকাটা সমুদ্র সৈকত এলাকায় মহিপুর থানার এসআই সাইদূরের নেতৃত্বে মহিপুর থানা পুলিশের একটি টহল দল দায়িত্ব পালন করছিলেন। এ সময় হঠাৎ তাদের চোখ পড়ে চার কিশোর-কিশোরীর উপর। লকডাউনের কারণে কুয়াকাটায় পর্যটকদের ভ্রমণে নিষেধাজ্ঞা থাকলেও অপরিচিত কিশোর-কিশোরীরা স্থানীয়দের কাছে মোবাইল ও ট্যাব বিক্রি করার চেষ্টা করছিল। এসআই সাইদুরের মনে সন্দেহ হলে সে তার সঙ্গীদের নিয়ে এগিয়ে যায়। পুলিশ দেখে প্রথমে তারা ঘাবড়ে গেলেও পরে পুলিশের কথায় ও ব্যবহারে তারা আস্থা ফিরে পায়। তারা না খেয়ে আছে জানতে পেরে প্রথমে তাদের কিছু শুকনো খাবারের ব্যবস্থা করে এবং থানায় নিয়ে আসে।

পুলিশের কাছে উদ্ধার হওয়া কিশোরী সুমাইয়া দৈনিক শিক্ষাডটকমকে জানায়, সে ও তার প্রতিবেশী তাসিব ঢাকার কামরাঙ্গীরচর এলাকায় পরিবারের সাথে বসবাস করে। গত ২২ জুন সকাল ১০টার দিকে সুমাইয়া তার নানীর লকার থেকে টাকা নিয়ে তাসিবের সাথে বাসা থেকে বের হয়ে বিভিন্ন জায়গায় ঘুরে রাতে সদরঘাট আসে। সেখান থেকে রাত ১১টায় শরীয়তপুরগামী লঞ্চে ওঠে। লঞ্চে তাদের সাথে কেরানীগঞ্জের ইয়াসিন ও ইব্রাহিমের পরিচয় হয় ও সখ্যতা গড়ে ওঠে। তারাও বাড়ি থেকে না বলে ওই লঞ্চে চড়ে বসে। ২৩ জুন ভোরে তারা নড়িয়া লঞ্চঘাটে নামে এবং সারাদিন নড়িয়া এলাকায় ঘুরে বেড়ায়। বিকালে চারজন আবার নড়িয়া থেকে ঢাকাগামী লঞ্চে ওঠে এবং রাত আটটায় সদরঘাট পৌছায়। তখন তারা বাসায় না গিয়ে বরিশাল হয়ে কুয়াকাটা যাওয়ার সিদ্ধান্ত নেয় এবং বরিশালের লঞ্চে ওঠে।  

সে দৈনিক শিক্ষাডটকমকে আরও জানায়, ২৪ জুন সকালে বরিশাল পৌছে সেখান থেকে বাসে করে কুয়াকাটা আসে। দিনভর কুয়াকাটায় ঘুরে বেড়ানোর পর রাতে তারা হোটেল হানিমুনে রাত্রিযাপন করে। পরদিন ২৫ জুন সকালে সমুদ্র সৈকতে ঘুরতে বের হয়ে টাকা শেষ হয়ে গেলে সারা দিন না খেয়ে কাটায়। বাধ্য হয়ে  তারা সঙ্গে থাকা মোবাইল ও ট্যাব বিক্রি করার সিদ্ধান্ত নেয়। এ সময় পুলিশ তাদের উদ্ধার করে।

মহিপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. মনিরুজ্জামান দৈনিক শিক্ষাডটকমকে জানান, রাতেই উদ্ধার হওয়া কিশোর-কিশোরীদের পরিবারের সাথে কথা বলে তাদের নিখোঁজ হওয়ার খবর জানতে পারেন এবং তাদের নিয়ে যেতে মহিপুরে আসতে বলেন। শুক্রবার বিকালে তাদের অভিভাবকরা মহিপুর থানায় এলে কিশোর-কিশোরীদের পুলিশের পক্ষ থেকে ফুলের শুভেচ্ছা জানিয়ে পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়। সন্তানদের ফিরে পেয়ে খুশি অভিভাবকরা পুলিশের এই আন্তরিবতায় তাদের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন।

 

একাদশে শিগগিরই ভর্তি কার্যক্রম শুরু হবে : শিক্ষামন্ত্রী - dainik shiksha একাদশে শিগগিরই ভর্তি কার্যক্রম শুরু হবে : শিক্ষামন্ত্রী প্রাথমিক সমাপনী পরীক্ষা বন্ধের পরিকল্পনা নেই : গণশিক্ষা প্রতিমন্ত্রী - dainik shiksha প্রাথমিক সমাপনী পরীক্ষা বন্ধের পরিকল্পনা নেই : গণশিক্ষা প্রতিমন্ত্রী করোনায় আরও ৪১ জনের মৃত্যু, নতুন শনাক্ত ৩ হাজার ৩৬০ - dainik shiksha করোনায় আরও ৪১ জনের মৃত্যু, নতুন শনাক্ত ৩ হাজার ৩৬০ অধ্যক্ষ-উপাধ্যক্ষ হতে পারছেন না প্রভাষকরা: রুলের জবাব দেয়নি সরকার - dainik shiksha অধ্যক্ষ-উপাধ্যক্ষ হতে পারছেন না প্রভাষকরা: রুলের জবাব দেয়নি সরকার ‘বঙ্গবন্ধুর স্মৃতিকথা’ নামে আরেকটি বই প্রকাশ হবে - dainik shiksha ‘বঙ্গবন্ধুর স্মৃতিকথা’ নামে আরেকটি বই প্রকাশ হবে শিক্ষায় বঙ্গবন্ধুর অবদান নিয়ে লেখা আহ্বান - dainik shiksha শিক্ষায় বঙ্গবন্ধুর অবদান নিয়ে লেখা আহ্বান শিক্ষক প্রশিক্ষণের নামে টেসলের বিরুদ্ধে প্রতারণার অভিযোগ - dainik shiksha শিক্ষক প্রশিক্ষণের নামে টেসলের বিরুদ্ধে প্রতারণার অভিযোগ বিনামূল্যে আন্তর্জাতিক মানের ডিজিটাল কনটেন্ট দিচ্ছে টিউটর্সইঙ্ক - dainik shiksha বিনামূল্যে আন্তর্জাতিক মানের ডিজিটাল কনটেন্ট দিচ্ছে টিউটর্সইঙ্ক শিক্ষকদের ফ্রি অনলাইন প্রশিক্ষণ চলছে - dainik shiksha শিক্ষকদের ফ্রি অনলাইন প্রশিক্ষণ চলছে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া - dainik shiksha জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া please click here to view dainikshiksha website