চড় দিয়ে ছাত্রের কানের পর্দা ফাটালেন প্রধান শিক্ষক - স্কুল - দৈনিকশিক্ষা

চড় দিয়ে ছাত্রের কানের পর্দা ফাটালেন প্রধান শিক্ষক

ফরিদপুর প্রতিনিধি |

ফরিদপুরের নগরকান্দা উপজেলার চর যশোরদী হাজী আবদুল মজিদ উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষকের বিরুদ্ধে নবম শ্রেণি পড়ুয়া এক শিক্ষার্থীকে চড় দিয়ে কানের পর্দা ফাটিয়ে দেয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে। জাকির হোসেন নামের ওই প্রধান শিক্ষকের বিরুদ্ধে শিক্ষার্থীদের শাসনের নামে অশালীন ভাষা ব্যবহারেরও অভিযোগ রয়েছে। 

গত ১৮ নভেম্বর, সোমবার বিদ্যালয়ের নবম শ্রেণি পড়ুয়া আজিম শেখকে (১৪) চড় দিয়ে কানের পর্দা ফাটিয়ে দেন ওই প্রধান শিক্ষক। আহত অবস্থায় আজিমকে প্রথমে ভাঙ্গা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়। এরপর তাকে ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়।

এ ঘটনার প্রতিবাদে বিদ্যালয়ের অর্ধশতাধিক শিক্ষার্থী গতকাল ১৯ নভেম্বর, মঙ্গলবার বিকালে নগরকান্দা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কাছে প্রধান শিক্ষকের বিরুদ্ধে লিখিত অভিযোগ দেয়।

শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে জানা যায়, প্রধান শিক্ষক জাকির হোসেন সোমবার বিদ্যালয় চলাকালীন নবম আজিম শেখকে শারীরিকভাবে নির্যাতন করেন। এরই এক পর্যায়ে তার চড়-থাপ্পড়ে আজিমের কানের পর্দা ফেটে যায়। 

তাদের অভিযোগ, প্রধান শিক্ষক জাকির হোসেন ইতোপূর্বে রাকিব-শাকিলসহ আরও কয়েক শিক্ষার্থীকে শারীরিকভাবে নির্যাতন করেন। এছাড়া তিনি শিক্ষার্থীদের শাসনের নামে খুবই অশালীন ভাষা ব্যবহার করে গালিগালাজ করেন।

শিক্ষার্থীরা দাবি করেন, বিদ্যালয়ে সুশিক্ষার পরিবেশ ফিরিয়ে আনতে হলে ওই প্রধান শিক্ষককে অপসারণ করতে হবে। সেই সাথে শিক্ষার্থীদের নির্যাতনের ঘটনায় তাকে বিচারের মুখোমুখি করতে হবে।

এ ব্যাপারে জানতে চাইলে নিজের ভুল স্বীকার করেন অভিযুক্ত প্রধান শিক্ষক জাকির হোসেন। তিনি বলেন, ‘আমার ভুল হয়েছে। বিষয়টি মিটমাটের চেষ্টা করছি।’

এ বিষয়ে অভিযোগ পাওয়া কথা স্বীকার করেছেন নগরকান্দা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ভারপ্রাপ্ত) আহসান মাহমুদ রাসেল। তিনি জানান, এ বিষয়ে তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

মাদরাসা শিক্ষকদের জুন মাসের এমপিওর চেক ছাড় - dainik shiksha মাদরাসা শিক্ষকদের জুন মাসের এমপিওর চেক ছাড় স্কুল-কলেজ শিক্ষকদের জুনের এমপিওর চেক ছাড় - dainik shiksha স্কুল-কলেজ শিক্ষকদের জুনের এমপিওর চেক ছাড় শিক্ষার্থীর সংখ্যার ভিত্তিতে স্কুলের তথ্য চেয়েছে অধিদপ্তর - dainik shiksha শিক্ষার্থীর সংখ্যার ভিত্তিতে স্কুলের তথ্য চেয়েছে অধিদপ্তর আশ্রয়কেন্দ্র হিসাবে বন্যা দুর্গত এলাকায় স্কুল-কলেজ খুলে দেয়ার নির্দেশ - dainik shiksha আশ্রয়কেন্দ্র হিসাবে বন্যা দুর্গত এলাকায় স্কুল-কলেজ খুলে দেয়ার নির্দেশ তিন শিক্ষকের ডাবল এমপিও : দৈনিক শিক্ষায় প্রতিবেদন প্রকাশের পর অধ্যক্ষকে শোকজ - dainik shiksha তিন শিক্ষকের ডাবল এমপিও : দৈনিক শিক্ষায় প্রতিবেদন প্রকাশের পর অধ্যক্ষকে শোকজ দৈনিক শিক্ষায় প্রতিবেদন প্রকাশের পর : তথ্য গোপন করে নেয়া অনুদানের টাকা ফেরত - dainik shiksha দৈনিক শিক্ষায় প্রতিবেদন প্রকাশের পর : তথ্য গোপন করে নেয়া অনুদানের টাকা ফেরত জটিলতার দ্রুত সমাধান চান এমপিওবঞ্চিত শিক্ষকরা - dainik shiksha জটিলতার দ্রুত সমাধান চান এমপিওবঞ্চিত শিক্ষকরা প্রভাষকের বিরুদ্ধে ভুয়া সনদে চাকরির অভিযোগ - dainik shiksha প্রভাষকের বিরুদ্ধে ভুয়া সনদে চাকরির অভিযোগ শিক্ষায় বঙ্গবন্ধুর অবদান নিয়ে লেখা আহ্বান - dainik shiksha শিক্ষায় বঙ্গবন্ধুর অবদান নিয়ে লেখা আহ্বান বিনামূল্যে আন্তর্জাতিক মানের ডিজিটাল কনটেন্ট দিচ্ছে টিউটর্সইঙ্ক - dainik shiksha বিনামূল্যে আন্তর্জাতিক মানের ডিজিটাল কনটেন্ট দিচ্ছে টিউটর্সইঙ্ক শিক্ষকদের ফ্রি অনলাইন প্রশিক্ষণ চলছে - dainik shiksha শিক্ষকদের ফ্রি অনলাইন প্রশিক্ষণ চলছে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া - dainik shiksha জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া please click here to view dainikshiksha website