ছাত্র অপহরণ করে শিক্ষকের ৫০ হাজার টাকা দাবি - মাদরাসা - Dainikshiksha

ছাত্র অপহরণ করে শিক্ষকের ৫০ হাজার টাকা দাবি

নিজস্ব প্রতিবেদক |

সামির নামের একটি শিশু অপহরণের অভিযোগে শিক্ষক মাইনুল ইসলামকে গ্রেফতার করেছে র‍্যাব-৩-এর একটি দল। গতকাল শুক্রবার (২৪ আগস্ট) বিকেলে ঢাকার বিমানবন্দর রেলস্টেশন থেকে মাইনুলকে গ্রেফতার করার কথা জানিয়েছে র‍্যাব। মাইনুলের নোয়াখালীর সোনাপুরের একটি মাদ্রাসার শিক্ষক। র‍্যাব-৩-এর জ্যেষ্ঠ সহকারী পুলিশ সুপার (এএসপি) রবিউল ইসলাম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেন।

র‍্যাব সূত্রে জানা গেছে, সামিরকে প্রাইভেট পড়াতেন মাইনুল। তাদের পরিবারের সঙ্গে ভাব হয়ে যায় মাইনুলের। পড়ানোর সুবাদে শিশু সামিরও মাইনুলকে পছন্দ করত। পরে চাকরি নিয়ে নোয়াখালীতে চলে গেলেও সামিরের পরিবারের সাথে ফোনে যোগাযোগ রাখতেন মাইনুল। সামিরের বাবা কাওসার আহমদ মাইক্রোবাসচালক। 

রবিউল ইসলাম বলেন, সামিরকে অপহরণের পরিকল্পনা করে ঈদের পরদিন ঢাকায় আসেন মাইনুল। ওই দিন বিকেলে সামির তাদের বাড়ি মধুবাগের মাঠে খেলছিল। বিকেলে খেলার সময় সামিরকে ফুসলিয়ে খেলা থেকে সরিয়ে আনেন মাইনুল। তারপর তাকে নিয়ে পালিয়ে যান। ঢাকার একটি বাসায় রেখে মাইনুল সামিরের বাবা কাওসারের মাইক্রোবাসে একটি চিরকুট ফেলে যান। চিরকুটে ৫০ হাজার টাকা মুক্তিপণ দাবি করা হয়। দুটি মোবাইল ফোন নম্বর লিখে রাখেন মাইনুল। কাওসার পরে র‍্যাবের সঙ্গে যোগাযোগ করেন। মাইনুল ফোন করে ৫০ হাজার টাকা দাবি করেন। টাকা দিতে রাজি হলে মাইনুল বিমানবন্দর রেলস্টেশনে আসতে বলেন কাওসারকে। সেখানে মাইনুলকে গ্রেপ্তার করে র‍্যাব।

রবিউল ইসলাম বলেন, গতকাল শুক্রবার বিকেলে কাওসার টাকা নিয়ে এলে দূর থেকে পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণ করছিলেন মাইনুল। মোবাইল ফোন ট্র্যাক করে মাইনুলকে শনাক্ত করা হয়।

নতুন স্কেলে কল্যাণের টাকা পেতে আবার আবেদন, শিক্ষকদের ক্ষোভ - dainik shiksha নতুন স্কেলে কল্যাণের টাকা পেতে আবার আবেদন, শিক্ষকদের ক্ষোভ তৃতীয় শ্রেণি পর্যন্ত ক্লাস মূল্যায়নে কমিটি গঠন - dainik shiksha তৃতীয় শ্রেণি পর্যন্ত ক্লাস মূল্যায়নে কমিটি গঠন ঘুষ লেনদেন ছাড়া প্রাথমিক শিক্ষকদের বদলি হয় না - dainik shiksha ঘুষ লেনদেন ছাড়া প্রাথমিক শিক্ষকদের বদলি হয় না দুই হাজার শিক্ষা প্রতিষ্ঠান এমপিও পেতে পারে - dainik shiksha দুই হাজার শিক্ষা প্রতিষ্ঠান এমপিও পেতে পারে সাড়ে তিন লাখ সরকারি পদ শূন্য - dainik shiksha সাড়ে তিন লাখ সরকারি পদ শূন্য প্রাথমিকের শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষা আগামী মাসেই - dainik shiksha প্রাথমিকের শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষা আগামী মাসেই সেহরি ও ইফতারের সময়সূচি - dainik shiksha সেহরি ও ইফতারের সময়সূচি একাদশে ভর্তির আবেদন ১২ মে থেকে - dainik shiksha একাদশে ভর্তির আবেদন ১২ মে থেকে ২০১৯ খ্র্রিস্টাব্দের স্কুলের ছুটির তালিকা - dainik shiksha ২০১৯ খ্র্রিস্টাব্দের স্কুলের ছুটির তালিকা জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া - dainik shiksha জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া please click here to view dainikshiksha website