জুতা পায়ে শহিদ মিনারে ইউপি চেয়ারম্যানের ফুল, তোলপাড় - বিবিধ - Dainikshiksha

জুতা পায়ে শহিদ মিনারে ইউপি চেয়ারম্যানের ফুল, তোলপাড়

ঝালকাঠি প্রতিনিধি |

জুতা পায়ে শহিদ মিনারে পুষ্পমাল্য অর্পণের অভিযোগ উঠেছে ঝালকাঠি সদর উপজেলার গাভারামচন্দ্রপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক গোলাম মাওলা মাসুম শেরওয়ানির বিরুদ্ধে। 

বৃহস্পতিবার (২১ ফেব্রুয়ারি) সকালে শহিদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসে স্থানীয় একটি স্কুলে কলাগাছ দিয়ে তৈরি শহিদ মিনারে তিনি পুষ্পমাল্য অর্পণ করেন। তাঁর সঙ্গে ছিলেন আরো তিনজন। তারাও সবাই জুতা পায়ে শহিদ মিনারে ফুলের মালা দেয়। ফুল দেওয়ার একটি ছবি শুক্রবার সকাল থেকে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ে। এক মুক্তিযোদ্ধা তাঁর ফেসবুক আইডিতে ছবিসহ একটি স্ট্যাটাস দিলে তোলপাড় শুরু হয়।

জানা যায়, গাভারামচন্দ্রপুর ইউনিয়নের বেড়মহল হাসান মেমোরিয়াল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা ভাষা শহিদদের স্মরণ করতে কলা গাছ দিয়ে শহিদ মিনার তৈরি করে। বিদ্যালয়ের পাশেই শহিদ মিনারে একুশের প্রথম প্রহরে শিশুরা ফুল দিয়ে শহিদদের প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন করেন। সকালে ওই শহিদ মিনারে এসে ফুল দেন গাভারামচন্দ্রপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান গোলাম মাওলা মাসুম শেরওয়ানি। তাঁর সঙ্গে থাকা প্রত্যেকেই শহিদ মিনারে জুতা পরে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন। ফুল দেওয়ার এই ছবিটি প্রথমে ফেসবুকে আপলোড করেন তাঁর সমর্থকরা। মুহূর্তের মধ্যেই ছবিটি ছড়িয়ে পড়ে। ছবিটি দিয়ে জেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক ডেপুটি কমান্ডার দুলাল সাহা একটি স্ট্যাটাস দেন। তিনি লেখেন ‘বিবেক কি জাগ্রত হবে’। এতে বিভিন্ন শ্রেণির মানুষ জুতা পায়ে গোলাম মাওলা মাসুম শেরওয়ানির ফুল দেওয়ার সমালোচনা করেন। 

ওই স্ট্যাটাসে ঝালকাঠির বিশিষ্ট আইনজীবী নাসির উদ্দিন কবির কমেন্টে লিখেছেন, তাঁর (মাসুম শেরওয়ানি) পরিচয়ের সাথে কাজের মিল আছে। 

নাজিব নাঈম নামে একজন লিখেছেন, এটা খুবই দুঃখজনক। এই লোক জনপ্রতিনিধি হয় কী করে। বুঝাই যাচ্ছে উক্ত কাজ শহিদদের স্মরণে নয়, ছবি তোলার জন্য করেছেন। 

কবির হুমায়ুন নামে একজন লিখেছেন, শহিদ মিনারের বেদিতে যে জুতা পায়ে ওঠে না, এটাও তিনি জানে না সে (মাসুম শেরওয়ানি)। 

মুক্তিযোদ্ধা দুলাল সাহা বলেন, বঙ্গবন্ধুর কোট পরে একজন ইউপি চেয়ারম্যান জুতা পায়ে শহিদ মিনারে ফুল দিচ্ছে, এটাও আমাদের দেখতে হচ্ছে। এটা অত্যন্ত নিন্দনীয়, যা ভাষায় প্রকাশ করতে পারছি না। তিনি শুধু শহিদদের সম্মানহানি করেনি, গোটা সমাজকে হেয় করেছেন। একজন মুক্তিযোদ্ধা হিসেবে আমি এ ঘটনা তদন্ত করে ব্যবস্থা গ্রহণের দাবি জানাচ্ছি। 

গাভারামচন্দ্রপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক গোলাম মাওলা মাসুম শেরওয়ানি বলেন, ‘জনপ্রতিনিধি হিসেবে কয়েকটি স্থানেই শহিদ মিনারে ফুল দিয়েছি। জুতা পড়া ছিলো কিনা মনে নেই। যদি হয়ে থাকে এটা ভুলে হয়েছে।

১৬তম শিক্ষক নিবন্ধনের প্রিলিমিনারি ৩০ আগস্ট - dainik shiksha ১৬তম শিক্ষক নিবন্ধনের প্রিলিমিনারি ৩০ আগস্ট স্কুল-কলেজ শিক্ষকদের মে মাসের এমপিওর চেক ব্যাংকে - dainik shiksha স্কুল-কলেজ শিক্ষকদের মে মাসের এমপিওর চেক ব্যাংকে ম্যানেজিং কমিটির শিক্ষাগত যোগ্যতা নিয়ে সংসদীয় কমিটিতে বিতর্ক - dainik shiksha ম্যানেজিং কমিটির শিক্ষাগত যোগ্যতা নিয়ে সংসদীয় কমিটিতে বিতর্ক প্রাথমিকে শিক্ষক নিয়োগ: ৫ দিন আগে অ্যাডমিট না পেলে যা করবেন - dainik shiksha প্রাথমিকে শিক্ষক নিয়োগ: ৫ দিন আগে অ্যাডমিট না পেলে যা করবেন নতুন সূচিতে কোন জেলায় কবে প্রাথমিকের শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষা - dainik shiksha নতুন সূচিতে কোন জেলায় কবে প্রাথমিকের শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষা বিশ্ববিদ্যালয় র‍্যাংকিং নিয়ে যা বললেন ড. জাফর ইকবাল - dainik shiksha বিশ্ববিদ্যালয় র‍্যাংকিং নিয়ে যা বললেন ড. জাফর ইকবাল সেহরি ও ইফতারের সময়সূচি - dainik shiksha সেহরি ও ইফতারের সময়সূচি ২০১৯ খ্রিষ্টাব্দের স্কুলের ছুটির তালিকা - dainik shiksha ২০১৯ খ্রিষ্টাব্দের স্কুলের ছুটির তালিকা জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া - dainik shiksha জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া please click here to view dainikshiksha website