জেএসসি পরীক্ষা দিতে না দিলে স্কুলের পাঠদানের অনুমতি বাতিল - জেএসসি/জেডিসি - Dainikshiksha

জেএসসি পরীক্ষা দিতে না দিলে স্কুলের পাঠদানের অনুমতি বাতিল

নিজস্ব প্রতিবেদক |

চলতি বছরের অষ্টম শ্রেণির জুনিয়র স্কুল সার্টিফিকেট (জেএসসি) ও জুনিয়র দাখিল সার্টিফিকেট (জেডিসি) পরীক্ষার অনলাইনে আবেদন ফরম পূরণ আজ মঙ্গলবার শেষ হচ্ছে। অষ্টম শ্রেণির সব শিক্ষার্থীকে জেএসসি ও জেডিসি পরীক্ষায় অংশ নিতে দিতে হবে। স্কুল কর্তৃপক্ষ এ পরীক্ষার জন্য কোনো ধরনের বাছাই পরীক্ষা বা নির্বাচনী পরীক্ষা নিতে পারবে না। নির্বাচনী পরীক্ষায় কেউ পাস না করলে তাকে চূড়ান্ত পরীক্ষায় অংশ নিতে বাধা দিলে সংশ্লিষ্ট শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে জানিয়েছে আন্তঃবোর্ড সমন্বয় কমিটি।

আগামী ১ নভেম্বর থেকে আটটি সাধারণ শিক্ষা বোর্ডের অধীনে জেএসসি এবং মাদরাসা বোর্ডের অধীনে জেডিসি পরীক্ষা শুরু হবে। অষ্টম শ্রেণির প্রায় ২৫ লাখ শিক্ষার্থী এই পরীক্ষায় অংশ নেবে। রাজধানীসহ বিভিন্ন শহরের নাম করা স্কুল ও মাদরাসা নির্বাচনী পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হতে না পারলে জেএসসি ও জেডিসি পরীক্ষার সুযোগ দিচ্ছে না। শিক্ষার্থী ও তাদের অভিভাবকরা এ ধরনের অভিযোগ করছে বোর্ডে।

এ প্রসঙ্গে ঢাকা শিক্ষা বোর্ডের পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক তপন কুমার সরকার বলেন, জেএসসি ও জেডিসি পরীক্ষার জন্য কোনো ধরনের নির্বাচনী পরীক্ষার নেয়ার বিধান নেই। অষ্টম শ্রেণির বার্ষিক পরীক্ষা হিসেবে জেএসসি ও জেডিসি পরীক্ষা নেয়া হয়। তবে স্কুল কর্তৃপক্ষ শিক্ষার্থীদের প্রস্তুতির জন্য নির্বাচনী পরীক্ষা নিলে শিক্ষা বোর্ড নিষেধ করবে না। কিন্তু নির্বাচনী পরীক্ষার ফলাফলের ভিত্তিতে কোনো শিক্ষার্থীকে চূড়ান্ত পরীক্ষায় অংশ নিতে বাধা দিলে সংশ্লিষ্ট শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেয়া হবে। কোনো অভিভাবক এ ধরনের অভিযোগ জানালে ওই শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের পাঠদান বাতিলসহ কঠোর ব্যবস্থা নেবে শিক্ষা বোর্ড।

তিনি বলেন, এ ধরনের কিছু অভিযোগ আমাদের কাছেও এসেছে। তবে, কোনো স্কুল কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে এ ধরনের অভিযোগ পাওয়া গেলেই তাদের বিরুদ্ধে শিক্ষা বোর্ড ব্যবস্থা নেবে। আবেদনকারী সব শিক্ষার্থীকেই চূড়ান্ত পরীক্ষায় অংশ নেয়ার সুযোগ দিতে হবে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানকে। পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক তপন কুমার আরো জানান, ১ নভেম্বর থেকে ১৮ নভেম্বরের মধ্যে জেএসসি ও জেডিসি পরীক্ষার সময়সূচির প্রস্তাব করে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের অনুমোদনের জন্য পাঠানো হয়েছে। এবার জেএসসিতে ২১ লাখ স্কুল শিক্ষার্থী এবং জেডিসিতে ৪ লাখ মাদরাসা শিক্ষার্থী অংশ নিতে পারে।

স্টুডেন্টস কেবিনেট নির্বাচন ১৪ মার্চ - dainik shiksha স্টুডেন্টস কেবিনেট নির্বাচন ১৪ মার্চ এনটিআরসিএর ভুল, আমি পরিপত্র মানি না.. (ভিডিও) - dainik shiksha এনটিআরসিএর ভুল, আমি পরিপত্র মানি না.. (ভিডিও) এমপিওভুক্তির নামে প্রতারণা, মন্ত্রণালয়ের গণবিজ্ঞপ্তি - dainik shiksha এমপিওভুক্তির নামে প্রতারণা, মন্ত্রণালয়ের গণবিজ্ঞপ্তি শিক্ষকদের কোচিং করাতে দেয়া হবে না: শিক্ষামন্ত্রী - dainik shiksha শিক্ষকদের কোচিং করাতে দেয়া হবে না: শিক্ষামন্ত্রী জারির অপেক্ষায় অধ্যক্ষ-উপাধ্যক্ষ নিয়োগ যোগ্যতার সংশোধনী - dainik shiksha জারির অপেক্ষায় অধ্যক্ষ-উপাধ্যক্ষ নিয়োগ যোগ্যতার সংশোধনী ৬০ বছরেই ছাড়তে হবে দায়িত্ব - dainik shiksha ৬০ বছরেই ছাড়তে হবে দায়িত্ব ফল পরিবর্তনের চার ‘গ্যারান্টিদাতা’ গ্রেফতার - dainik shiksha ফল পরিবর্তনের চার ‘গ্যারান্টিদাতা’ গ্রেফতার নকলের সুযোগ না দেয়ায় শিক্ষিকাকে জুতাপেটা - dainik shiksha নকলের সুযোগ না দেয়ায় শিক্ষিকাকে জুতাপেটা প্রাথমিকে সায়েন্স ব্যাকগ্রাউন্ড প্রার্থীদের ২০ শতাংশ কোটা - dainik shiksha প্রাথমিকে সায়েন্স ব্যাকগ্রাউন্ড প্রার্থীদের ২০ শতাংশ কোটা ১৮২ শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের এমপিও বন্ধের প্রক্রিয়া শুরু - dainik shiksha ১৮২ শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের এমপিও বন্ধের প্রক্রিয়া শুরু প্রাথমিকে সহকারী শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষা ১৫ মার্চ - dainik shiksha প্রাথমিকে সহকারী শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষা ১৫ মার্চ ২০১৯ খ্র্রিস্টাব্দের স্কুলের ছুটির তালিকা - dainik shiksha ২০১৯ খ্র্রিস্টাব্দের স্কুলের ছুটির তালিকা জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া - dainik shiksha জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া please click here to view dainikshiksha website