ডিসেম্বরের মাঝামাঝি জেঁকে বসতে পারে শীত - বিবিধ - দৈনিকশিক্ষা

ডিসেম্বরের মাঝামাঝি জেঁকে বসতে পারে শীত

নিজস্ব প্রতিবেদক |

বাংলা বর্ষপঞ্জিতে আজ ১৪ অগ্রহায়ণ। আর কিছুদিন পরই বিদায় নেবে হেমন্ত ঋতু। আগমন ঘটবে শীতকালের। কুয়াশায় ঢেকে যাবে রাজধানীসহ সারা দেশ।

শীতকাল আসার আগে হেমন্তকেই বলা হয় শীতের দূত। হেমন্তের রাতে মৃদু কুয়াশা, বাতাসে শীতের হিম হিম স্পর্শ লক্ষ্য করা গেছে। ভোরের নরম রোদে কুয়াশার আঁচল সরিয়ে শিশিরবিন্দু মুক্তো দানার মতো দ্যুতি ছড়াতে শুরু করেছে। হেমন্তের প্রভাবে নভেম্বরে দেশের উত্তরাঞ্চলে শীত জেঁকে বসলেও রাজধানীতে এখনো পড়েনি শীত। এরইমধ্যে উত্তরাঞ্চলে তাপমাত্রা নেমে এসেছে ১৩ থেকে ১৪ ডিগ্রি সেলসিয়াসে।

অন্যদিকে শীতের আগমন বার্তায় অনেকেই গুছিয়ে রাখা শীতবস্ত্র বের করতে শুরু করেছেন। কেউ কেউ কিনতে শুরু করেছেন শীতবস্ত্র। আবার কেউ গায়ে চাপিয়েছেন হালকা শীতের কাপড়।

আবহাওয়া অফিস বলছে, ডিসেম্বর মাসের মাঝামাঝিতে অর্থাৎ পৌষের শুরুতে রাজধানীসহ সারাদেশে জেঁকে বসতে পারে শীত। শৈত্যপ্রবাহের সম্ভাবনা কম থাকলেও কুয়াশার তীব্রতা বাড়তে পারে। তাপমাত্রা অনেকটা হ্রাস পেতে পারে। তবে ডিসেম্বরের শেষের দিকে হালকা থেকে মাঝারি শৈত্যপ্রবাহের সম্ভাবনা রয়েছে।

শুক্রবার (২৯ নভেম্বর) ভোরে রাজধানীতে হালকা কুয়াশা পড়তে দেখা যায়। শিশিরে ভিজেছে শহরের সবুজ সমারোহ। সকাল সাড়ে ৭টার পর থেকে সূর্যের প্রখরতা বাড়তে থাকে। তবে বেলা ৩টার দিকে হারিয়ে যায় সূর্য। এরপর থেকে গম্ভীর হয়ে আছে আকাশ। হালকা শীতল অনুভবও হচ্ছে।

আবহাওয়াবিদ ওমর ফারুক বলেন, ‘এখন ঠান্ডা হাওয়া আর কুয়াশা পড়লেও পুরোপুরি শীত শুরু হয়নি। ডিসেম্বর মাসের ৩ অথবা ৪ তারিখ থেকে শীত পড়া শুরু হতে পারে। তবে মাঝামাঝি শীতের তীব্রতা বাড়বে। একই সঙ্গে কুয়াশার তীব্রতাও বাড়বে। শৈত্যপ্রবাহের সম্ভাবনা নেই। এর মধ্যে বৃষ্টিরও সম্ভাবনা নেই।’

শুক্রবার সন্ধ্যা ৬টা থেকে আগামী ২৪ ঘণ্টার আবহাওয়ার পূর্বাভাসে বলা হয়েছে, মৌসুমের স্বাভাবিক লঘুচাপ দক্ষিণ বঙ্গোপসাগরে অবস্থান করছে। এর একটি বর্ধিতাংশ উত্তর-পূর্ব বঙ্গোপসাগর পর্যন্ত বিস্তৃত রয়েছে। অস্থায়ীভাবে আংশিক মেঘলা আকাশসহ সারাদেশের আবহাওয়া শুষ্ক থাকতে পারে।

শেষরাত থেকে সকাল পর্যন্ত দেশের কোথাও কোথাও হালকা থেকে মাঝারি ধরনের কুয়াশা পড়তে পারে। সারাদেশে রাত ও দিনের তাপমাত্রা প্রায় অপরিবর্তিত থাকতে পারে। ধীরে ধীরে রাতের তাপমাত্রা আরও হ্রাস পেতে পারে।

করোনায় আরও ২৯ জনের মৃত্যু, নতুন শনাক্ত ৩ হাজার ২৮৮ - dainik shiksha করোনায় আরও ২৯ জনের মৃত্যু, নতুন শনাক্ত ৩ হাজার ২৮৮ এমপিওভুক্ত হলেন আরও ৭৩ শিক্ষক - dainik shiksha এমপিওভুক্ত হলেন আরও ৭৩ শিক্ষক সরকারি স্কুল-কলেজ কর্মচারীদের অনলাইনে পিডিএস পূরণের নির্দেশ - dainik shiksha সরকারি স্কুল-কলেজ কর্মচারীদের অনলাইনে পিডিএস পূরণের নির্দেশ শ্রান্তি বিনোদন ভাতা তুলতে চাঁদা নেয়ার অভিযোগ তিন শিক্ষক নেতার বিরুদ্ধে - dainik shiksha শ্রান্তি বিনোদন ভাতা তুলতে চাঁদা নেয়ার অভিযোগ তিন শিক্ষক নেতার বিরুদ্ধে শিক্ষা কর্মকর্তার গাফিলতিতে ১৭ স্কুল মেরামতের সাড়ে ৩৫ লাখ টাকা ফেরত - dainik shiksha শিক্ষা কর্মকর্তার গাফিলতিতে ১৭ স্কুল মেরামতের সাড়ে ৩৫ লাখ টাকা ফেরত পলিটেকনিকে ভর্তিতে বয়সসীমা থাকছে না - dainik shiksha পলিটেকনিকে ভর্তিতে বয়সসীমা থাকছে না সরকারি কলেজের অধ্যক্ষ-উপাধ্যক্ষ পদের আবেদন শুরু - dainik shiksha সরকারি কলেজের অধ্যক্ষ-উপাধ্যক্ষ পদের আবেদন শুরু বিনামূল্যে আন্তর্জাতিক মানের ডিজিটাল কনটেন্ট দিচ্ছে টিউটর্সইঙ্ক - dainik shiksha বিনামূল্যে আন্তর্জাতিক মানের ডিজিটাল কনটেন্ট দিচ্ছে টিউটর্সইঙ্ক শিক্ষকদের ফ্রি অনলাইন প্রশিক্ষণ চলছে - dainik shiksha শিক্ষকদের ফ্রি অনলাইন প্রশিক্ষণ চলছে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া - dainik shiksha জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া please click here to view dainikshiksha website