পাবলিক ও প্রাইভেট বিশ্ববিদ্যালয়ের পার্থক্য করা হয় না: শিক্ষামন্ত্রী

বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিনিধি | জানুয়ারি ১০, ২০১৭ - ১০:৪৩ পূর্বাহ্ণ
dainikshiksha print

শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ বলেছেন, ‘বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের সংখ্যা ও শিক্ষার্থীর সংখ্যা পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের চেয়ে অনেক বেশি। আমরা পাবলিক ও প্রাইভেট বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর মধ্যে কোনো পার্থক্য করি না। সকল শিক্ষার্থীই আমাদের সন্তান ও ভবিষ্যৎ।’
আগারগাঁওয়ে বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে গতকাল সোমবার বিকেলে উত্তরা ইউনিভার্সিটি পঞ্চম সমাবর্তন-২০১৭ অনুষ্ঠানে সভাপতির বক্তব্যে শিক্ষামন্ত্রী এসব কথা বলেন।


বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়গুলো এক বিরাট সম্ভাবনাময় উচ্চশিক্ষার খাত হিসেবে গড়ে উঠেছে উল্লেখ করে শিক্ষামন্ত্রী বলেন, বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীর সংখ্যা পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের চেয়ে প্রায় এক লাখ বেশি। বর্তমানে প্রায় ১ হাজার ৬৩০ জন বিদেশি শিক্ষার্থী বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ে অধ্যয়ন করছেন। এটা বৃদ্ধি পাবে। অনেক প্রতিষ্ঠান মান বৃদ্ধি করতে সর্বোচ্চ প্রচেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে।
সমাবর্তন বক্তৃতায় ইমেরিটাস অধ্যাপক আনিসুজ্জামান বলেন, উচ্চশিক্ষালাভ নাগরিকদের অধিকার। এটা নিতান্ত ভ্রান্ত ধারণা। উচ্চশিক্ষা কেবল মেধাবীদের অধিকার। মেধা ও যোগ্যতা না থাকলে উচ্চশিক্ষা নেওয়ার আশা বিড়ম্বনামাত্র।
পঞ্চম সমাবর্তনের এই আসরে উত্তরা ইউনিভার্সিটির স্নাতক ও স্নাতকোত্তর পর্যায়ের ১ হাজার ৬৩৬ শিক্ষার্থী অংশ নেন। এবারের সমাবর্তনে পাস করা ছয়জনকে স্বর্ণপদক দেওয়া হয়। এ ছাড়া চ্যান্সেলরস, ট্রাস্টি ও ডিন ক্যাটাগরিতে ১৫০ জনকে সনদ ও পদক দেওয়া হয়।
ইংরেজি বিভাগ থেকে সদ্য স্নাতক করা মাইনুল ইসলাম পেয়েছেন চ্যান্সেলরস অ্যাওয়ার্ড। তিনি  বলেন, ‘ভালো ফলাফলের ইচ্ছে ছিল। কিন্তু কখনো ভাবিনি এই অ্যাওয়ার্ড পাব। চার বছরের পরিশ্রম, বাবা-মার দোয়া, শিক্ষকদের সহযোগিতা—সব মিলিয়ে এই প্রাপ্তি।’

সংবাদটি শেয়ার করুন:


আপনার মন্তব্য দিন