ফাঁসিতে ঝুলিয়ে মৃত্যুদণ্ড নির্ভয়া ধর্ষণ-হত্যার ৪ আসামির - মেডিকেল ও কারিগরি - দৈনিকশিক্ষা

ফাঁসিতে ঝুলিয়ে মৃত্যুদণ্ড নির্ভয়া ধর্ষণ-হত্যার ৪ আসামির

দৈনিকশিক্ষা ডেস্ক |

ভারতের দিল্লিতে ২০১২ খ্রিষ্টাব্দে চলন্ত বাসে এক মেডিক্যালছাত্রীকে ধর্ষণের পর হত্যার ঘটনায় করা মামলার রায়ে দেওয়া মৃত্যুদণ্ড কার্যকর করা হয়েছে। 

ঘটনার প্রায় সাত বছর পর শুক্রবার (২০ মার্চ) স্থানীয় সময় ভোর সাড়ে ৫টায় আসামিদের ফাঁসিতে ঝুলিয়ে মৃত্যুদণ্ড কার্যকর করা হয়।

মৃত্যুদণ্ডরা হলেন,  মুকেশ সিং, পবন গুপ্ত, বিনয় শর্মা ও অক্ষয় কুমার সিংহ। ছবি সংগৃহীত 

এর আগে বৃহস্পতিবার (১৯ মার্চ) মামলাটির আসামি মুকেশ সিং, পবন গুপ্ত, বিনয় শর্মা ও অক্ষয় কুমার সিংহের সব আবেদন খারিজ করে দেন দিল্লির আদালত। এ হিসেবে নির্ধারিত সময় শুক্রবার সকাল সাড়ে ৫ টায় তাদের ফাঁসি কার্যকর করতে আর কোনো আইনি বাধা থাকেনি।

এরও আগে আসামিরা ফাঁসির আদেশ বাতিলের আবেদন জানিয়ে দাবি করেছিলেন, আইনি পথ বাকি রয়েছে তাদের।

রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী ইরফান আহমেদ স্থানীয় সংবাদমাধ্যম এনডিটিভিকে জানিয়েছেন, তাদের আর কোনো আইনি পথ বাকি নেই। পবন আর অক্ষয় রাষ্ট্রপতির কাছে প্রাণভিক্ষা চেয়েছিলেন, সেটিও নাকচ হয়েছে।

গত জানুয়ারি থেকে তিন বার ফাঁসি কার্যকর হওয়ার কথা এলেও শেষ মুহূর্তে এসে তা বাতিল হয়ে যায়।

২০১২ খ্রিষ্টাব্দের ১৬ ডিসেম্বর চলন্ত বাসে মেডিক্যাল ছাত্রী নির্ভয়াকে দলবেঁধে ধর্ষণের পর নির্মম নির্যাতন করা হয়। এরপর ২৯ ডিসেম্বর মারা যান ওই মেধাবী শিক্ষার্থী। এ ঘটনায় গোটা ভারতসহ পার্শ্ববর্তী দেশগুলোতে নারী নিরাপত্তা নিয়ে ব্যাপক আলোচনার সৃষ্টি হয়। 

বিশ্ব এক হলেই শুধু করোনা মোকাবেলা সম্ভব : জাতিসংঘ - dainik shiksha বিশ্ব এক হলেই শুধু করোনা মোকাবেলা সম্ভব : জাতিসংঘ সংসদ টিভিতে ক্লাসের নতুন রুটিন প্রকাশ - dainik shiksha সংসদ টিভিতে ক্লাসের নতুন রুটিন প্রকাশ জুন পর্যন্ত কিস্তি না আদায় নিশ্চিতে ৯ সদস্যের মনিটরিং সেল - dainik shiksha জুন পর্যন্ত কিস্তি না আদায় নিশ্চিতে ৯ সদস্যের মনিটরিং সেল শিক্ষকদের বৈশাখী ভাতার ২০ শতাংশ অসহায় মানুষের কল্যাণে - dainik shiksha শিক্ষকদের বৈশাখী ভাতার ২০ শতাংশ অসহায় মানুষের কল্যাণে ১০ এপ্রিল সরকারকে করোনা শনাক্তের কিট দেবে গণস্বাস্থ্য - dainik shiksha ১০ এপ্রিল সরকারকে করোনা শনাক্তের কিট দেবে গণস্বাস্থ্য ‘প্রধানমন্ত্রীর গৃহীত পদক্ষেপে মানুষ নিরাপদ থাকার চেষ্টা করছে’ - dainik shiksha ‘প্রধানমন্ত্রীর গৃহীত পদক্ষেপে মানুষ নিরাপদ থাকার চেষ্টা করছে’ ছুটি বাড়ল ১১ এপ্রিল পর্যন্ত - dainik shiksha ছুটি বাড়ল ১১ এপ্রিল পর্যন্ত টিভিতে পাঠদান : সারাদেশের শিক্ষকরাই সুযোগ পাবেন - dainik shiksha টিভিতে পাঠদান : সারাদেশের শিক্ষকরাই সুযোগ পাবেন করোনা সন্দেহ হলে যা করতে হবে - dainik shiksha করোনা সন্দেহ হলে যা করতে হবে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া - dainik shiksha জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া শিক্ষার এক্সক্লুসিভ ভিডিও দেখতে দৈনিক শিক্ষার ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন - dainik shiksha শিক্ষার এক্সক্লুসিভ ভিডিও দেখতে দৈনিক শিক্ষার ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন please click here to view dainikshiksha website