ফিফার বর্ষসেরা মেসি - খেলাধুলা - দৈনিকশিক্ষা

ফিফার বর্ষসেরা মেসি

দৈনিকশিক্ষা ডেস্ক |

তিন বছর পর আবারো ফিফা বর্ষসেরা ফুটবলারের খেতাব জিতলেন বার্সেলোনা মহাতারকা লিওনেল মেসি। এর মধ্য দিয়ে পাঁচবারের বর্ষসেরা ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদোকে পেছনে ফেললেন এই আর্জেন্টাইন। মেসির ঝুঁলিতে এখন ছয়টি বর্ষসেরার পুরস্কার। গতকাল সোমবার রাতে ইতালির মিলান শহরের অপেরা হাউস লা স্কালায় এক অনুষ্ঠানে তার হাতে এ সম্মাননা তুলে দেওয়া হয়।

‘দ্য বেস্ট’ নাম ধারনের পর এবারই প্রথম পুরস্কারটি জিতলেন মেসি। ২০১৬ সালে ফিফার পুরস্কারটি নতুন করে চালু হওয়ার পর প্রথম দুইবার জিতেছিলেন রোনালদো, আর গতবার হাতে উঠেছিল লুকা মদরিচের। এবার সেটার স্বাদ নিলেন মেসি। জাতীয় দলের কোচ ও অধিনায়কের ‍সঙ্গে ‍সাংবাদিক ও ভক্তদের ভোটে রোনালদো-ফন ডাইককে পেছনে ফেলেছেন বার্সেলোনা ফরোয়ার্ড। সব মিলিয়ে মেসির হাতে ওঠে ফিফার ষষ্ঠ বর্ষসেরার পুরস্কার।

যদিও এবারের ফিফা বর্ষসেরা হওয়ার দৌড়ে ফেভারিট ধরা হয়েছিল ফন ডাইককে। ডাচ ডিফেন্ডার উয়েফার বর্ষসেরার লড়াইয়ে এই মেসির সঙ্গে রোনালদোকে হারিয়েই প্রথমবার জিতেছিলেন পুরস্কারটি। একে লিভারপুরের জার্সিতে চ্যাম্পিয়নস লিগ জিতেছিলেন, এর ওপর আবার উয়েফা নেশনস লিগে নেদারল্যান্ডসের ফাইনাল খেলার পথে রেখেছিলেন গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা। এরপরও ভোটারদের রায় গেছে মেসির পক্ষে।

রোনালদোও ছিলেন আলোচনায়। স্পেন থেকে ইতালিতে গিয়েও পারফরম্যান্সের ধারা সচল রেখেছেন তিনি। গত মৌসুমে জুভেন্টাসকে জিতিয়েছেন লিগ শিরোপা। অন্যদিকে জাতীয় দল পর্তুগালের উয়েফা নেশনস লিগ জয়ের পথে রেখেছিলেন কার্যকরী ভূমিকা।

গত বছর রোনালদো ও মোহাম্মদ সালাহকে হারিয়ে ফিফা বর্ষসেরা খেলোয়াড় হয়েছিলেন ‍মদরিচ। অন্যদিকে সেরা তিনে না থাকা মেসি এবার জিতে নিয়েছেন ফিফার শ্রেষ্ঠত্ব।

এমপিওভুক্তির তালিকায় প্রধানমন্ত্রীর অনুমোদন - dainik shiksha এমপিওভুক্তির তালিকায় প্রধানমন্ত্রীর অনুমোদন মেডিকেলে ভর্তি পরীক্ষার ফল প্রকাশ - dainik shiksha মেডিকেলে ভর্তি পরীক্ষার ফল প্রকাশ মারধরে অসুস্থ হলে আবরারকে অন্য রুমে নিয়ে গিয়ে পেটাই : রবিন - dainik shiksha মারধরে অসুস্থ হলে আবরারকে অন্য রুমে নিয়ে গিয়ে পেটাই : রবিন কী আছে শিক্ষক গোকুল দাশের লাইব্রেরিতে, কেন বিক্রির বিজ্ঞাপন? - dainik shiksha কী আছে শিক্ষক গোকুল দাশের লাইব্রেরিতে, কেন বিক্রির বিজ্ঞাপন? ৪২ শতাংশই অন্য চাকরি না পেয়ে শিক্ষকতায় এসেছেন - dainik shiksha ৪২ শতাংশই অন্য চাকরি না পেয়ে শিক্ষকতায় এসেছেন ডিগ্রি ১ম বর্ষ পরীক্ষার ফল পুনঃনিরীক্ষণের আবেদন ২৭ অক্টোবর পর্যন্ত - dainik shiksha ডিগ্রি ১ম বর্ষ পরীক্ষার ফল পুনঃনিরীক্ষণের আবেদন ২৭ অক্টোবর পর্যন্ত শিক্ষার এক্সক্লুসিভ ভিডিও দেখতে দৈনিক শিক্ষার ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন - dainik shiksha শিক্ষার এক্সক্লুসিভ ভিডিও দেখতে দৈনিক শিক্ষার ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া - dainik shiksha জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া please click here to view dainikshiksha website