ফোনালাপ ফাঁস, যা বললেন ভিপি নুর - বিশ্ববিদ্যালয় - দৈনিকশিক্ষা

ফোনালাপ ফাঁস, যা বললেন ভিপি নুর

নিজস্ব প্রতিবেদক |

ফাঁস হওয়া ফোনালাপকে বিকৃত বলে অভিযোগ করেছেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদের (ডাকসু) ভিপি নুরুল হক নুর। মঙ্গলবার একটি বেসরকারি টিভি চ্যানেলে ফাঁস করা হয় ভিপি নুরের একটি ফোনালাপের অডিওক্লিপ। এরপর আরো কয়েকটি ইলেকট্রনিক মিডিয়াসহ বিভিন্ন অনলাইনে বিষয়টি প্রচারিত হয়।

এরইমধ্যে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভিপি নুরের সেই অডিওক্লিপটি ভাইরাল হয়ে পড়ে। এ নিয়ে নুরের সমালোচনায় মেতে ওঠেন নেটিজেনদের একাংশ।

ফোনালাপের একটি কণ্ঠ যে তারই তা ইতিমধ্যে স্বীকার করেছেন ভিপি নুর। তবে টেলিভিশন চ্যানেলটি উদেশ্যপ্রণোদিতভাবে তার ফোনালাপকে আংশিক প্রচার করে বিভ্রান্তির সৃষ্টি করেছে বলে অভিযোগ করেছেন ডাকসুর এই ভিপি।

বিষয়টি পরিস্কার করতে ভিপি নুর মঙ্গলবার রাতেই ফেসবুক লাইভে আসেন। সেখানে তিনি দাবি করেন, ‘আমার একটি ফোনালাপ ইলেকট্রনিক মিডিয়ায় বিকৃতভাবে উপস্থাপন করা হয়েছে। আমার পুরোপুরি কথা না শুনিয়ে এর আংশিক প্রচার করা হয়েছে। এট সাংবাদিকতার নীতি বিরুদ্ধ।

আমি এর বিরুদ্ধে একটি প্রতিবাদলিপি ও উকিল নোটিশ পাঠাব। টেলিভিশন চ্যানেলটি ফোনালাপের আংশিক তথ্য তুলে ধরেছে। ওখানে কিন্তু ক্লিয়ার করা নেই যে আমি কাউকে কাজের কথা বলছি বা কারো কাছে কাজ চাচ্ছি বা কাউকে সুপারিশ করছি। এমনভাবে সাজিয়ে গুছিয়ে তারা অডিওক্লিপটি প্রচার করেছে যেন বিভ্রান্তির সৃষ্টি হয়।

ওই ব্যক্তির কাছে তিনি কি বিষয়ে সাহায্য চেয়েছেন তা লাইভে পরিস্কার করেন ভিপি নুর।

তিনি বলেন, আমার এক আন্টি আগে থেকেই কন্সট্রাকশনের বিজনেস করেন। তার একটি প্রকল্পে ১৩ কোটি টাকার কাজ ছিল। কাজটির জন্য ব্যাংক গ্যারান্টি দেয়ার লাস্ট তারিখের আগের দিন আন্টি আমাকে ফোন দেন। এসময় তিনি পরিচিত কারো মাধ্যমে যাদের লাইসেন্স আছে, তাদের মাধ্যমে যেন ব্যাংক গ্যারান্টার করে রাখি। শেষ দিন হওয়ায় আমি আমার পরিচিত এক কন্ডাক্টরকে কাজটি করতে পারবে কি-না সেটা জিজ্ঞেস করি। এটাই ছিল ফোনালাপ।

তিনি বলেন, বিষয়টা আমাদের পারিবারিক ব্যবসাসংক্রান্ত। আর সেটাকেই এভাবে বিকৃতভাবে উপস্থাপন করা হলো। আমি ডাকসুর ভিপি। আমার ফোন নম্বর লাখো মানুষের কাছে আছে। এখন ছাত্রলীগের কেউ যদি ষড়যন্ত্র করে আমাকে ফাঁসানোর জন্য টাকা দেবে বলে ই-মেইল অ্যাড্রেস চায় তো আমি জবাবে কি বলেছি সেটা ফোনালাপে নেই। আমি কী বলছি সেটা অডিওতে যোগ না করে আমাকে কি বলেছে সেটা যোগ করা হয়েছে। এটা কেউ উদ্দেশ্য প্রণোদিতভাবে আমাকে বিব্রত করতেই করেছে।

নুর যোগ করেন, আমি সেখানে কী বলছি সেটার রিপ্লাইও শোনানো উচিত। এমন ফোনতো যে কেউ করতে পারে। শুধু তার অংশটুকু শুনেই জাস্টিফাই করা উচিত নয়। কিন্তু আমি তাকে বলে দিছি, অপরিচিত কারও কাছ থেকে সহযোগিতা নেব না। যদি প্রয়োজন হয়, আপনাকে জানাব। আমার উত্তরটা ছিল এমন। অডিওতে এটা যোগ করা হয়নি। এখানে কোন আর্থিক লেনদেনের ঘটনা ঘটেনি।

লাইভে নুরের দাবি, ‘আমাদের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র হচ্ছে। ক্ষমতাধরদের বিভিন্ন দুর্বৃত্তায়ন নিয়ে কথা বলছি, বিভিন্ন বাহিনী দিয়ে নির্যাতনের চিত্র তুলে ধরছি বলেই এই ষড়যন্ত্র। আমাদেরকে প্রশ্নবিদ্ধ করতেই এই ফোনলাপ ফাঁস করা হয়েছে।’

তিনি বলেন, ‘এর আগেও বিভিন্ন সংবাদসম্মেলনে আমি বলেছি, কোটা সংস্কার আন্দোলনের সময় আমাদেরকে হোটেল রেডিসনে নিয়ে বড় চাকরি দেয়াসহ বিভিন্ন প্রলোভন দেখানো হয়েছিল। তারা বলেছিল, আমরা যেন কোটা সংস্কার নিয়ে কোনো নাড়াচড়া না করি। এছাড়াও ছাত্রলীগের পক্ষ থেকেও পদ-পদবি দেয়ার প্রলোভন দেখানো হয়েছিল। তবে আমরা সেসব লোভে সাড়া দিইনি। এখন মিডিয়ার মাধ্যমে বিকৃতভাবে ফোনালাপ ফাঁস করে আমাদের হেয় ও বিব্রত করার চেষ্টা করা হয়েছে।

ফাঁস হওয়া ফোনালাপে জনৈক ব্যক্তির সঙ্গে কি বলেছিলেন ভিপি নুর তা পাঠকের উদ্দেশে দেয়া হলো-

ভিপি নুর: ‘ওই যে আমি একটা কাজ পাইছেলাম ১৩ কোটি টাকার। এখন ওই কাজটা আমার এক আন্টিরই। উনি জয়েনভেনচরে একজনেরে দিয়া দেওয়াছিলো। এখন কালকে আপনি ওইটা শিওর করলে টাকা ওই আন্টিই দেবে আনে, আমার আন্টি সম্পর্ক হয়। কিন্তু অ্যাকাউন্টে যাদের লোন থাকে ওনাদের তো ইজিলি হয়, আপনিতো কাজবাজ করান। আপনি কি একটা পারফর্মেন্সের গ্যারান্টি ইয়ে করতে পারবেন?’

অপর ব্যক্তি: এখন কোন ফার্মের নামে করমু, কি করমু?’ নুরু বলেন, ‘তাহলে আমি ডিটেইলস্ লইয়া আপনার কাছে আমু আমি।

এছাড়া ওই ব্যক্তি নুরুকে বলেন, ‘আমি কিছু টাকা পয়সা উঠিয়ে পাঠাতে চাচ্ছি, আমি জানি তোমাদের টাকা পয়সা দরকার খুব। আমি হোয়াটসঅ্যাপে ফোন করছি।’

এদিকে ফোনালাপ ফাঁস হওয়ার ঘটনায় ভিপি নুরুল হক নুরের বহিষ্কারের জন্য আহ্বান জানিয়েছেন সমাজবিজ্ঞান বিভাগের শিক্ষক ও মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চের উপদেষ্টা অধ্যাপক মোজাম্মেল হক।

মঙ্গলবার রাতে ফেসবুক লাইভে ঢাবি উপাচার্যের প্রতি এই আহ্বান জানান তিনি। এ বিষয়ে আজ বুধবার ডাকসু অফিসের সামনে মানববন্ধন ও নুরের কুশপুতুল দাহ করা হবে বলে ফেসবুক লাইভে বলেন ওই ঢাবি শিক্ষক।

আমার যা চেহারা, অভিনেতা হওয়ার কোনো চান্সই ছিল না

বিশ্ব এক হলেই শুধু করোনা মোকাবেলা সম্ভব : জাতিসংঘ - dainik shiksha বিশ্ব এক হলেই শুধু করোনা মোকাবেলা সম্ভব : জাতিসংঘ মহামারিতেও দপ্তরিদের কাছ থেকে আদায় করা হচ্ছে ঋণের টাকা - dainik shiksha মহামারিতেও দপ্তরিদের কাছ থেকে আদায় করা হচ্ছে ঋণের টাকা মৃতদের শরীর থেকে করোনা ভাইরাস ছড়ায় না : ডব্লিউএইচও - dainik shiksha মৃতদের শরীর থেকে করোনা ভাইরাস ছড়ায় না : ডব্লিউএইচও সংসদ টিভিতে ক্লাসের নতুন রুটিন প্রকাশ - dainik shiksha সংসদ টিভিতে ক্লাসের নতুন রুটিন প্রকাশ সমাপনী জুনিয়র পরীক্ষা এখনই বাতিল ঘোষণা করুন - dainik shiksha সমাপনী জুনিয়র পরীক্ষা এখনই বাতিল ঘোষণা করুন জুন পর্যন্ত কিস্তি না আদায় নিশ্চিতে ৯ সদস্যের মনিটরিং সেল - dainik shiksha জুন পর্যন্ত কিস্তি না আদায় নিশ্চিতে ৯ সদস্যের মনিটরিং সেল শিক্ষকদের বৈশাখী ভাতার ২০ শতাংশ অসহায় মানুষের কল্যাণে - dainik shiksha শিক্ষকদের বৈশাখী ভাতার ২০ শতাংশ অসহায় মানুষের কল্যাণে ১০ এপ্রিল সরকারকে করোনা শনাক্তের কিট দেবে গণস্বাস্থ্য - dainik shiksha ১০ এপ্রিল সরকারকে করোনা শনাক্তের কিট দেবে গণস্বাস্থ্য ‘প্রধানমন্ত্রীর গৃহীত পদক্ষেপে মানুষ নিরাপদ থাকার চেষ্টা করছে’ - dainik shiksha ‘প্রধানমন্ত্রীর গৃহীত পদক্ষেপে মানুষ নিরাপদ থাকার চেষ্টা করছে’ ছুটি বাড়ল ১১ এপ্রিল পর্যন্ত - dainik shiksha ছুটি বাড়ল ১১ এপ্রিল পর্যন্ত টিভিতে পাঠদান : সারাদেশের শিক্ষকরাই সুযোগ পাবেন - dainik shiksha টিভিতে পাঠদান : সারাদেশের শিক্ষকরাই সুযোগ পাবেন করোনা সন্দেহ হলে যা করতে হবে - dainik shiksha করোনা সন্দেহ হলে যা করতে হবে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া - dainik shiksha জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া শিক্ষার এক্সক্লুসিভ ভিডিও দেখতে দৈনিক শিক্ষার ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন - dainik shiksha শিক্ষার এক্সক্লুসিভ ভিডিও দেখতে দৈনিক শিক্ষার ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন please click here to view dainikshiksha website