বাংলাদেশ-আফগানিস্তান যুগ্ম চ্যাম্পিয়ন - খেলাধুলা - দৈনিকশিক্ষা

বাংলাদেশ-আফগানিস্তান যুগ্ম চ্যাম্পিয়ন

নিজস্ব প্রতিবেদক |

এমনটা হবে আগেই ধারণা করা হচ্ছিল। টানা বৃষ্টির কারণে টস তো হলোই না, ম্যাচই পণ্ড হয়ে গেল। যেহেতু রিজার্ভ ডে নেই, তাই ত্রিদেশীয় টি-টোয়েন্টি সিরিজের ফাইনাল মাঠে না গড়ানোয় বাংলাদেশ ও আফগানিস্তান শিরোপা ভাগাভাগি করেছে।

বাংলাদেশের জন্য এটাই প্রথম কোনো বহুজাতিক টি-টোয়েন্টি সিরিজের শিরোপা জয়। এর আগে মাশরাফি বিন মর্তুজার নেতৃত্বে আয়ারল্যান্ডে ত্রিদেশীয় ওয়ানডে সিরিজের শিরোপা জিতেছিল বাংলাদেশ।

মঙ্গলবার (২৪ সেপ্টেম্বর) সন্ধ্যা সাড়ে ৬টায় মিরপুর শেরে বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে ত্রিদেশীয় টি-টোয়েন্টি সিরিজের ফাইনালে মুখোমুখি হওয়ার কথা ছিল বাংলাদেশ ও আফগানিস্তানের। কিন্তু দুপুর থেকে টানা মুষলধারে বৃষ্টির পর কিছুক্ষণ বন্ধ থাকলেও টস শুরুর আগে ফের গুঁড়িগুঁড়ি বৃষ্টি শুরু হয়।

বৃষ্টির কারণে টসে বিলম্ব হওয়ার পর খেলা শুরুর শেষ সময় বেঁধে দেওয়া হয় ৯-৪৫ মি. পর্যন্ত। অর্থাৎ ওই সময় খেলা শুরু হলে ইনিংসের দৈর্ঘ্য হতো ৬ ওভার করে। কিন্তু এরপর বৃষ্টি থামার কোনো সম্ভাবনা দেখা যায়নি। আর সহসা বৃষ্টি থামলেও মাঠ খেলার উপযোগী হতে অনেক সময় লাগবে। তাই দুই দল মিলে শিরোপা ভাগ করে নেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

বৃষ্টি বাগড়া না দিলে টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটের কোনো আসরে এই নিয়ে তৃতীয় ফাইনাল খেলতে নামতো বাংলাদেশ। এর আগে ২০১৬ সালে এশিয়া কাপ আর ২০১৮ সালে নিদাহাস ট্রফিতে ভারতের কাছে হার নিয়ে ফিরতে হয়েছিল। এবার বাধা ছিল আফগানিস্তান।
 
বাংলাদেশ ও আফগানিস্তান, দুই দলই প্রথম পর্বে পরস্পরকে একবার করে হারিয়েছিল। সর্বশেষ দেখায় জয়টা যেহেতু বাংলাদেশই পেয়েছিল, তাই টাইগারভক্তদের জন্য এই ম্যাচটি ছিল অনেক আকাঙ্ক্ষার। কিন্তু বেরসিক বৃষ্টি সব উত্তেজনা শেষ করে দিল। তবু একটা সান্ত্বনা থাকছে, প্রথমবারের মতো কোনো বহুজাতিক টি-টোয়েন্টি সিরিজের শিরোপার ভাগ তো পাওয়া গেল।

এমপিওভুক্তির তালিকায় প্রধানমন্ত্রীর অনুমোদন - dainik shiksha এমপিওভুক্তির তালিকায় প্রধানমন্ত্রীর অনুমোদন মেডিকেলে ভর্তি পরীক্ষার ফল প্রকাশ - dainik shiksha মেডিকেলে ভর্তি পরীক্ষার ফল প্রকাশ মারধরে অসুস্থ হলে আবরারকে অন্য রুমে নিয়ে গিয়ে পেটাই : রবিন - dainik shiksha মারধরে অসুস্থ হলে আবরারকে অন্য রুমে নিয়ে গিয়ে পেটাই : রবিন কী আছে শিক্ষক গোকুল দাশের লাইব্রেরিতে, কেন বিক্রির বিজ্ঞাপন? - dainik shiksha কী আছে শিক্ষক গোকুল দাশের লাইব্রেরিতে, কেন বিক্রির বিজ্ঞাপন? ৪২ শতাংশই অন্য চাকরি না পেয়ে শিক্ষকতায় এসেছেন - dainik shiksha ৪২ শতাংশই অন্য চাকরি না পেয়ে শিক্ষকতায় এসেছেন ডিগ্রি ১ম বর্ষ পরীক্ষার ফল পুনঃনিরীক্ষণের আবেদন ২৭ অক্টোবর পর্যন্ত - dainik shiksha ডিগ্রি ১ম বর্ষ পরীক্ষার ফল পুনঃনিরীক্ষণের আবেদন ২৭ অক্টোবর পর্যন্ত শিক্ষার এক্সক্লুসিভ ভিডিও দেখতে দৈনিক শিক্ষার ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন - dainik shiksha শিক্ষার এক্সক্লুসিভ ভিডিও দেখতে দৈনিক শিক্ষার ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া - dainik shiksha জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া please click here to view dainikshiksha website