মারা গেছেন চিত্রশিল্পী কালিদাস কর্মকার - বিবিধ - দৈনিকশিক্ষা

মারা গেছেন চিত্রশিল্পী কালিদাস কর্মকার

নিজস্ব প্রতিবেদক |

চিত্রশিল্পী কালিদাস কর্মকার মারা গেছেন। শুক্রবার (১৮ অক্টোবর) দুপুর দেড়টার দিকে ইস্কাটনের বাসায় অচেতন অবস্থায় তাকে পাওয়া যায়। পরে পরিবারের সদস্যরা ল্যাবএইড হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন। মৃত্যুকালে কালিদাস কর্মকারের বয়স হয়েছিল ৭৪ বছর। গ্যালারি কসমসের নির্বাহী ব্যবস্থাপক চিত্রশিল্পী সৌরভ চৌধুরী এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

তিনি বলেন, কালিদাস কর্মকারকে দুপুর দেড়টার দিকে বাথরুমে অচেতন অবস্থায় দেখতে পেয়ে পরিবারের সদস্যরা হাসপাতালে নিয়ে যায়। এরপর চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করে।

তিনি আরও বলেন, ল্যাবএইড হাসপাতাল থেকে মরদেহ বারডেম হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হবে। কালিদাস কর্মকারের দুই মেয়ে কেয়া কর্মকার ও কঙ্কা কর্মকার যুক্তরাষ্ট্রে বসবাস করেন। তারা আসার পর পরবর্তী সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে। কালিদাস কর্মকার গ্যালারি কসমস এর উপদেষ্টা হিসেবে ছিলেন বলে জানান সৌরভ।

নিরীক্ষাপ্রবণতার জন্য বিখ্যাত চিত্রশিল্পী কালিদাস কর্মকার। ১৯৪৬ খ্রিষ্টাব্দের ব্রিটিশ ভারতের অন্তর্গত ফরিদপুরে তার জন্ম হয়। শৈশবেই তিনি আকতে শুরু করেন। স্কুল জীবন শেষে ঢাকা ইনস্টিটিউট অব আর্টস থেকে ১৯৬৩-৬৪ খ্রিষ্টাব্দে চিত্রকলায় আনুষ্ঠানিক শিক্ষা লাভ করেন। ১৯৬৯ খ্রিষ্টাব্দে কলকাতার গভর্নমেন্ট কলেজ অব ফাইন আর্টস অ্যান্ড ক্র্যাফট থেকে প্রথম বিভাগে প্রথম স্থান নিয়ে চারুকলায় স্নাতক ডিগ্রি অর্জন করেন।

জীবদ্দশায় একুশে পদক, শিল্পকলা পদকসহ অসংখ্য স্বীকৃতি পেয়েছেন বরেণ্য এই চিত্রশিল্পী।

স্বামী-স্ত্রী-শ্যালিকা-কন্যা চালিত শিক্ষার্থীবিহীন এমপিওভুক্ত একটি বিদ্যালয়ের গল্প - dainik shiksha স্বামী-স্ত্রী-শ্যালিকা-কন্যা চালিত শিক্ষার্থীবিহীন এমপিওভুক্ত একটি বিদ্যালয়ের গল্প ২৬ প্রতিষ্ঠান এমপিওভুক্তি নিয়ে শিক্ষামন্ত্রীর ব্যাখ্যা - dainik shiksha ২৬ প্রতিষ্ঠান এমপিওভুক্তি নিয়ে শিক্ষামন্ত্রীর ব্যাখ্যা গ্রেফতারের পরও বহিষ্কার দাবিতে কেন বুয়েটে আন্দোলন, প্রশ্ন শিক্ষা উপমন্ত্রীর - dainik shiksha গ্রেফতারের পরও বহিষ্কার দাবিতে কেন বুয়েটে আন্দোলন, প্রশ্ন শিক্ষা উপমন্ত্রীর সরকারি হচ্ছে আরও দুই কলেজ - dainik shiksha সরকারি হচ্ছে আরও দুই কলেজ কোন বোর্ডে কত শিক্ষার্থী পাবে এসএসসির বৃত্তি - dainik shiksha কোন বোর্ডে কত শিক্ষার্থী পাবে এসএসসির বৃত্তি ছাত্রীকে থাপ্পড় মারায় সহপাঠীর কারাদণ্ড - dainik shiksha ছাত্রীকে থাপ্পড় মারায় সহপাঠীর কারাদণ্ড স্কুলে মাকে অপমান করায় ক্ষোভে অজ্ঞান ছাত্রের মৃত্যু - dainik shiksha স্কুলে মাকে অপমান করায় ক্ষোভে অজ্ঞান ছাত্রের মৃত্যু সরকারি স্কুলে ভর্তির নীতিমালা প্রকাশ - dainik shiksha সরকারি স্কুলে ভর্তির নীতিমালা প্রকাশ এমপিও কমিটির সভা ২৪ নভেম্বর - dainik shiksha এমপিও কমিটির সভা ২৪ নভেম্বর জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া - dainik shiksha জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া শিক্ষার এক্সক্লুসিভ ভিডিও দেখতে দৈনিক শিক্ষার ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন - dainik shiksha শিক্ষার এক্সক্লুসিভ ভিডিও দেখতে দৈনিক শিক্ষার ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন please click here to view dainikshiksha website