লকডাউন এখনই নয়, বাস্তবায়নে আরও ৪-৫ দিন : তাপস - বিবিধ - দৈনিকশিক্ষা

লকডাউন এখনই নয়, বাস্তবায়নে আরও ৪-৫ দিন : তাপস

নিজস্ব প্রতিবেদক |

ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনে ‘রেড জোন’ হিসিবে চিহ্নিত এলাকাগুলোতে লকডাউন বাস্তবায়ন করতে আরও চার থেকে পাঁচ দিন লাগবে। এ কথা বলেছেন মেয়র শেখ ফজলে নূর তাপস। তিনি বলেছেন, অতি সংক্রমণের পাড়া-মহল্লা সুনির্দিষ্ট করতেই দুই থেকে তিন দিন লেগে যাবে। তারপরে লকডাউন বাস্তবায়ন করতে আরও ৪৮ থেকে ৭২ ঘণ্টা সময় লাগবে।

মঙ্গলবার (১৬ জুন) দুপুরে কোভিড-১৯ নিয়ন্ত্রণে জোনিং সিস্টেম বাস্তবায়ন বিষয়ক ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের কেন্দ্রীয় ব্যবস্থাপনা কমিটির এক বৈঠক শেষে সংবাদ সম্মেলনে মেয়র একথা বলেন।

ফজলে নূর তাপস বলেন, 'গতকাল মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ থেকে একটি প্রজ্ঞাপন এসেছে। এ নিয়ে কিছু কনফিউশনও সৃষ্টি হয়েছে, কিন্তু আমি মনে করি এখানে কনফিউশনের কোনো অবকাশ নেই। এখানে আমাদের যে লাল জোন চিহ্নিত করে দেওয়া হবে আমরা সেই লাল জোন এলাকায় লকডাউন বাস্তবায়ন করার জন্য উদ্যোগ গ্রহণ করব। এই প্রজ্ঞাপন পাওয়ার প্রেক্ষিতেই আমরা আজকের এই সভা ডেকেছি'।

তিনি আরও বলেছেন, ‘একটি ব্যবস্থাপনা কমিটিও করে দেওয়া হয়েছে। এই কমিটির আওতায় সকলকে নিয়ে আমরা আলোচনা করেছি কীভাবে বাস্তবায়ন করব।’

নির্ধারিত ওয়ার্ড বা পুরো এলাকা অবরুদ্ধ না করে শুধু বেশি আক্রান্ত এলাকায় লকডাউন বাস্তবায়ন করা হবে বলে জানান মেয়র। তিনি বলেন, স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় থেকে যে গাইডলাইন তৈরি করা হয়েছে সে অনুযায়ী কাজ করবেন তারা।
মেয়র তাপস বলেন বিশেষ করে জোনিংয়ের মধ্যে রেড জোন নিয়েই উদ্বেগ বেশি,সেটা বাস্তবায়ন করাই প্রথম দায়িত্ব। যেই এলাকায় সংক্রমণ বেড়ে যেতে পারে,নির্ধারিত কর্তৃপক্ষ সুনির্দিষ্টভাবে জানাবে যে, এই এলাকাটা এই মহল্লাটা বা রাস্তাটা রেড জোন হিসেবে চিহ্নিত হয়েছে। সেটাকে রেড জোনের আওতায় এনে লকডাউন বাস্তবায়ন করা হবে।

ফজলে নূর তাপস বলেন, ‘আশা করছি, ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের আওতায় যে সুনির্দিষ্ট এলাকা সেখানে আমাদের আইনশৃঙ্খলা বাহিনী, স্থানীয় কাউন্সিলর, স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের প্রতিনিধিসহ এই উদ্যোগের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট সকলকে নিয়ে সামাজিক গণ্যমান্য ব্যক্তিদের নিয়ে আমরা সেটা বাস্তবায়ন করব।’

দক্ষিণ সিটির মেয়র বলেন, ‘লকডাউন বাস্তবায়নে প্রস্তুতি নেওয়ার জন্যই আমরা আজ সভা করেছি। প্রাথমিকভাবে আলাপ-আলোচনার মাধ্যমে কার্যপরিধিগুলো বুঝে নিয়েছি। আমরা আশা করছি, দু-এক দিনের মধ্যে এলাকাগুলো চিহ্নিত হলেই কার্যক্রম শুরু করতে পারব।’

ফজলে নূর তাপস বলেন, ‘আমাদের সামগ্রিকভাবে ২৮টি এলাকার কথা জানানো হয়েছে। সেই এলাকাগুলো অনেক বড়। আমরা বিষয়টি তাদেরও (স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়) জানিয়েছি। তারাও বিষয়টি অনুধাবন করেছেন। আমরা চাই, যারা শুধু সংক্রমিত তাদের এর আওতায় আনা। বাকিদের জীবন ও জীবিকা যাতে স্বাভাবিকভাবে চলতে পারে। কারণ, একটি ওয়ার্ড অনেক বড়। সরকারও চায় না সব এলাকা এর আওতায় আসুক।’

নগরবাসীর উদ্দেশে মেয়র বলেন, ‘আমরা সবাই অনুধাবন করেছি এটা একটা সংক্রামক ব্যাধি। আমাদের অনেক আপনজন গণ্যমান্য ব্যক্তি এই ব্যাধিতে আক্রান্ত হয়ে আমাদের ছেড়ে চলে যাচ্ছেন। আমরা কিন্তু কিছুই করতে পারছি না। আমরা এতটুকু করতে পারি যে আগামী ১৪ থেকে ২১ দিন একটু কষ্ট সাধন করে হলেও নিজে নিরাপদ থাকব এবং অন্যকে নিরাপদে রাখব। এই কষ্টটা করা ছাড়া মহামারি থেকে পরিত্রাণের উপায় নেই।’

তাপস বলেন, ‘আমি জানি এই লকডাউনে অনেকের কষ্ট হবে, অনেকের অসুবিধা হবে। কিন্তু এই ব্যক্তিগত অসুবিধা কষ্টগুলোকে গ্রহণ করে নেবেন। এর থেকে মুক্ত হওয়ার উপায় সহজ নয়। আমাদের সবাইকে কষ্ট করতে হবে।’

সমন্বয় সভায় এটুআইয়ের পলিসি এডভাইজার আনির চৌধুরী ও আইইডিসিআরের পরিচালক মীরজাদী সেব্রিনা এ সময় অনলাইনে সভায় সংযুক্ত হয়ে রেড জোন-সংক্রান্ত সর্বশেষ তথ্য উপাত্ত উপস্থাপন করেন। বৈঠকে ডিএমপির যুগ্ম কমিশনার, লালবাগের ডিসি, ঢাকা জেলার সিভিল সার্জন, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) ও সাজেদা ফাউন্ডেশনের প্রতিনিধি উপস্থিত ছিলেন।

Admission going on at Navy Anchorage School and College Chattogram - dainik shiksha Admission going on at Navy Anchorage School and College Chattogram একাদশ শ্রেণিতে ভর্তির আবেদন করবেন যেভাবে - dainik shiksha একাদশ শ্রেণিতে ভর্তির আবেদন করবেন যেভাবে please click here to view dainikshiksha website