please click here to view dainikshiksha website

শিক্ষার্থীদের স্বার্থ নিয়ে ভাবা উচিত

শাহেদুর রহমান | আগস্ট ১৯, ২০১৭ - ৮:৪৫ পূর্বাহ্ণ
dainikshiksha print

২০১৩ সালে বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশনের উদ্যোগে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ে সব পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যদের নিয়ে এক বৈঠকে গুচ্ছভিত্তিক ভর্তি পরীক্ষা নেওয়ার সিদ্ধান্ত হয়েছিল। ওই বৈঠকে চার বিশ্ববিদ্যালয় নিয়ে একটি কমিটি, পাঁচটি কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় নিয়ে একটি এবং চারটি প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় নিয়ে একটিসহ মোট তিনটি কমিটি গঠন করার পরিকল্পনা করা হয়েছিল। এ ছাড়া একটি কেন্দ্রীয় কমিটিও গঠন করা হয়েছিল। বৈঠকের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী গত বছর তা বাস্তবায়ন করা সম্ভব না হলেও বলা হয়েছিল পরবর্তী বছর অর্থাৎ ২০১৬ সাল থেকে শুরু হতে পারে।

কিন্তু এবারও কোনো বিশ্ববিদ্যালয় এই সমন্বিত ভর্তি পরীক্ষায় রাজি হয়নি। শিক্ষার্থীদের ভোগান্তির কথা বিবেচনা করে কয়েক বছর আগে থেকে শিক্ষা মন্ত্রণালয় গুচ্ছ পদ্ধতিতে ভর্তি পরীক্ষা নেওয়ার উদ্যোগ নিয়েছিল। এ নিয়ে কয়েক দফা বৈঠকও হয়। কিন্তু ইতিবাচক ফল পাওয়া যায়নি। পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়গুলোয় সমন্বিত ভর্তি পরীক্ষা হয় না। কেননা, পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ এই ইস্যুতে একমত হতে পারছে না। তারা মনে করছে, সমন্বিত ভর্তি পরীক্ষা নেওয়া হলে এসব প্রতিষ্ঠানের স্বাতন্ত্র্য থাকবে না।

তাই তারা এতে আগ্রহী নয়। পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়গুলো স্বতন্ত্র ভর্তি পরীক্ষার মাধ্যমে মোটা অঙ্কের অর্থ উপার্জন করে। সমন্বিত পরীক্ষা হলে সে আয় থেকে বঞ্চিত হবে। তবে পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের সমন্বিত ভর্তি পরীক্ষা শিক্ষার্থীদের স্বার্থসংশ্লিষ্ট।

শাহেদুর রহমান

কালাই, জয়পুরহাট।

সংবাদটি শেয়ার করুন:


পাঠকের মন্তব্যঃ ১টি

  1. মোঃ জাইদুল ইসলাম জাহিদ শিক্ষক উচ্চতর গণিত says:

    মেডিকেল পারলে আপনাদের ও পারতে হবে ।

আপনার মন্তব্য দিন