সেতুর অভাবে চরম দুর্ভোগে শিক্ষার্থীরা - বিবিধ - Dainikshiksha

সেতুর অভাবে চরম দুর্ভোগে শিক্ষার্থীরা

গাইবান্ধা প্রতিনিধি |

গাইবান্ধার সুন্দরগঞ্জ উপজেলা তিস্তার শাখা নদীর ওপর নির্মিত রামডাকুয়া সেতুটি ২০১৫ খ্রিস্টাব্দের বন্যা ভেসে যায়। তখন থেকে আজ পর্যন্ত স্থানীয় প্রশাসন বিকল্প কোন ব্যবস্থা গ্রহণ না করায় নৌকা দিয়ে পারাপার করতে হচ্ছে উপজেলার ২০ গ্রামের মানুষজনকে। বিশেষ করে স্কুল ও কলেজগামী শিক্ষার্থীদের চরম দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে। ঘণ্টার পর ঘণ্টার খেয়াঘাটে দাঁড়িয়ে থেকে পার হতে হচ্ছে তাদের।

ফলে নিয়মিতভাবে ক্লাস করতে পারছে না তারা। ২০১২ খ্রিস্টাব্দে তৎকালীন এমপি আব্দুল কাদের খান নিজের খরচে প্রকৌশল পরিকল্পনা ছাড়াই পৌর শহরের ওপর দিয়ে তিস্তার শাখা নদীতে রামডাকুয়া সেতু নির্মাণ করেন। নির্মাণের পর থেকেই সেতুটি নড়বড়ে ছিল। যানবাহন চলাচল ছিল অত্যন্ত ঝুঁকিপূর্ণ। গত ২০১৫ খ্রিস্টাব্দে কয়েক দফা বন্যার স্রোতে সেতুটি ভেসে যায়। তখন থেকে নৌকাযোগে সুন্দরগঞ্জ উপজেলার তারাপুর, বেলকা, হরিপুর ইউনিয়নের চর খোদ্দা, খোদ্দা, চর তারাপুর, নিজাম খাঁ, তালুক বেলকা, বেলকা নবাবগঞ্জ, কানি চরিতা বাড়ী, চর বিরহীম, শ্যামলার পাট, চরিতাবাড়ী, কাশিম বাজার, বজরা, রিয়াজ মিয়ারচরসহ ২০ গ্রামের স্কুল, মাদ্রাসও কলেজের শিক্ষার্থী এবং বিভিন্ন পেশাজীবী মানুষজন চলাচল করে আসছে। উপজেলার ২০ গ্রামবাসীর এখন একমাত্র ভরসা হচ্ছে নৌকা। চরাঞ্চলের ছেলে-মেয়েরা প্রতিদিন নৌকায় করে স্কুল ও কলেজে যাওয়া আসা করে। খেয়াঘাটে এক-দেড় ঘণ্টা দাঁড়িয়ে থাকতে হয় তাদের। ফলে  প্রতিদিন যথাসময়ে স্কুল-কলেজে পৌঁছাতে পারে না তারা।

শিক্ষার্থী স্মৃতি আক্তার  জানান, নৌকা দিয়ে পার হওয়ার কারণে সকালে বাড়ি থেকে বের হতে হয়। তারপরও খেয়াঘাটে এসে দাঁড়িয়ে থাকতে হয় ঘণ্টার পর ঘণ্টা। 

উপজেলা প্রকৌশলী আবুল মুনছুর জানান, সেতুটি টেন্ডারের অপেক্ষায় রয়েছে। খুব শিগগিরই কাজ শুরু হবে।

পেন্সিলে লেখা যাবে না স্কুল ভর্তি পরীক্ষায় - dainik shiksha পেন্সিলে লেখা যাবে না স্কুল ভর্তি পরীক্ষায় আগামী বছর সব স্কুলে একযোগে প্রাক প্রাথমিকে শিক্ষক নিয়োগ - dainik shiksha আগামী বছর সব স্কুলে একযোগে প্রাক প্রাথমিকে শিক্ষক নিয়োগ ৬০ লাখ টাকার আর্থিক অনিয়ম করে ফাঁসছেন প্রধান শিক্ষক - dainik shiksha ৬০ লাখ টাকার আর্থিক অনিয়ম করে ফাঁসছেন প্রধান শিক্ষক তথ্য গোপন করে উচ্চতর স্কেলে বেতন, এমপিও বাতিল হচ্ছে শিক্ষকের - dainik shiksha তথ্য গোপন করে উচ্চতর স্কেলে বেতন, এমপিও বাতিল হচ্ছে শিক্ষকের এক নজরে শিক্ষক নিবন্ধন পরীক্ষার নম্বর বিভাজন - dainik shiksha এক নজরে শিক্ষক নিবন্ধন পরীক্ষার নম্বর বিভাজন প্রাথমিক সমাপনী ও জেএসসি পরীক্ষার ফল ২৪ ডিসেম্বর - dainik shiksha প্রাথমিক সমাপনী ও জেএসসি পরীক্ষার ফল ২৪ ডিসেম্বর জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া - dainik shiksha জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া please click here to view dainikshiksha website