স্কার্ট পরা ছাত্রীদের অজান্তে অশ্লীল ভিডিও করতেন শিক্ষক! - স্কুল - দৈনিকশিক্ষা

স্কার্ট পরা ছাত্রীদের অজান্তে অশ্লীল ভিডিও করতেন শিক্ষক!

দৈনিকশিক্ষা ডেস্ক |

স্কার্ট পরে স্কুলে আসে ছাত্রীরা। কারণ ওটাই স্কুলের ইউনিফর্ম। কিন্তু ডেস্কে বসে ক্লাস করার সময় সেই স্কার্ট উঠে গেলে পকেট থেকে মোবাইল ফোন বের করে লুকিয়ে ভিডিও করতেন শিক্ষক। দু’একটা নয়, তিন বছর ধরে ১৬০টি এমন অশ্লীল ভিডিও করেছেন ওই শিক্ষক। সিঙ্গাপুরের একটি স্কুলের এই ঘটনা সামনে এনেছে চ্যানেল নিউজ এশিয়া।

২০১৫ খ্রিষ্টাব্দের এপ্রিল মাস থেকে ২০১৮ খ্রিষ্টাব্দের জুন মাস পর্যন্ত অন্তত ১৬০টি এমন ভিডিও করেছেন ওই শিক্ষক। গত ২৩ জুন সিঙ্গাপুরের আদালত তাকে দোষী সাব্যস্ত করেছে। আগামী জুলাই মাসে সাজা ঘোষণা হবে। চ্যানেল নিউজ এশিয়ার রিপোর্ট অনুযায়ী, ওই শিক্ষকের বিরুদ্ধে নারীদের অজান্তে তাদের জনসমক্ষে অসম্মান করা এবং অশ্লীল ভিডিও বানানোর অভিযোগ প্রমাণিত হয়েছে।

তবে, সামাজিক নিরাপত্তার স্বার্থে ছাত্রীদের নাম এবং স্কুলের নাম গোপন রাখা হয়েছে বলে নিউজ এশিয়ার প্রতিবেদনে বলা হয়েছে। ২০১৫ খ্রিষ্টাব্দে স্কুলের মোট ১৫টি অনুষ্ঠানে আট জন ছাত্রীর ভিডিও তোলে। ২০১৬ খ্রিষ্টাব্দের প্রথম পর্বে আরও আট ছাত্রীর ভিডিও মোবাইলবন্দি করে ওই শিক্ষক। ২০১৭ খ্রিষ্টাব্দে সংখ্যাটা আরও বেড়ে যায়। ৩২ জন ছাত্রীর ১০৫টি ভিডিও তোলেন ওই শিক্ষক। ২০১৮ খ্রিষ্টাব্দের জুলাই পর্যন্ত ৩৬টি অনুষ্ঠানে ৩৯টি ভিডিও তোলা হয়।

পুলিশ বলেছে, কোনো ভিডিওই দীর্ঘ নয়। সবকটিই খুব বেশি হলে ১০-১৫ সেকেন্ডের। সেগুলি জুড়েই অশ্লীল ছবি বানাচ্ছিল ওই ব্যক্তি। শুধু তাই নয়, মোবাইল ফোন ঘেঁটে দেখা গিয়েছে তার এক আত্মীয়েরও ভিডিও তুলেছিল সে। একটি শপিংমলে একজন অচেনা মহিলার ভিডিও মিলেছে তার ফোনে।

সিঙ্গাপুরের শিক্ষা মন্ত্রণালয় ঘটনার কথা স্বীকার করে জানিয়েছে, এই ব্যক্তি দীর্ঘদিন ধরে শিক্ষকতার সঙ্গে যুক্ত নয়। শিক্ষকতার একটি তিন বছরের কোর্সের জন্য ওই স্কুলে যুক্ত হয়েছিল সে। মন্ত্রণালয়ের এক মুখপাত্র জানিয়েছেন, গুরুতর এই অভিযোগ পাওয়ার পর কয়েক মাস আগেই অভিযুক্তের বিরুদ্ধে বিভাগীয় তদন্ত শুরু হয়। তারপর পুলিশকে জানানো হয়। তার বক্তব্য, অভিযুক্ত বিকৃত যৌন মানসিকতা থেকেই এই ঘটনা ঘটিয়েছে।

আগামী ১৪ জুলাই তাকে আদালতে তোলা হবে। সিঙ্গাপুরের আইন অনুযায়ী তার এক বছরের জেল ও বিপুল পরিমাণ টাকা জরিমানা হতে পারে।

সূত্র- দ্য ওয়াল।

করোনা : আরও ৫৫ জনের মৃত্যু, নতুন শনাক্ত ৩ হাজার ২৭ - dainik shiksha করোনা : আরও ৫৫ জনের মৃত্যু, নতুন শনাক্ত ৩ হাজার ২৭ এনটিআরসিএর নতুন চেয়ারম্যান আকরাম হোসেন - dainik shiksha এনটিআরসিএর নতুন চেয়ারম্যান আকরাম হোসেন প্রাথমিকে ৪০ হাজার শিক্ষক নিয়োগ আসছে - dainik shiksha প্রাথমিকে ৪০ হাজার শিক্ষক নিয়োগ আসছে গার্ডেনিং করতে ৫ হাজার করে টাকা পাবে ১০ হাজার স্কুল - dainik shiksha গার্ডেনিং করতে ৫ হাজার করে টাকা পাবে ১০ হাজার স্কুল কারিগরি ও মাদরাসা বিভাগের নতুন সচিব আমিনুল ইসলাম - dainik shiksha কারিগরি ও মাদরাসা বিভাগের নতুন সচিব আমিনুল ইসলাম চলতি মাসেই স্থায়ী হচ্ছেন প্রাথমিকের অস্থায়ী প্রধান শিক্ষকরা - dainik shiksha চলতি মাসেই স্থায়ী হচ্ছেন প্রাথমিকের অস্থায়ী প্রধান শিক্ষকরা সৌদি আরবে থেকেও নিয়মিত হাজিরা, এমপিওভুক্তি! - dainik shiksha সৌদি আরবে থেকেও নিয়মিত হাজিরা, এমপিওভুক্তি! শিক্ষায় বঙ্গবন্ধুর অবদান নিয়ে লেখা আহ্বান - dainik shiksha শিক্ষায় বঙ্গবন্ধুর অবদান নিয়ে লেখা আহ্বান শিক্ষক প্রশিক্ষণের নামে টেসলের বিরুদ্ধে প্রতারণার অভিযোগ - dainik shiksha শিক্ষক প্রশিক্ষণের নামে টেসলের বিরুদ্ধে প্রতারণার অভিযোগ বিনামূল্যে আন্তর্জাতিক মানের ডিজিটাল কনটেন্ট দিচ্ছে টিউটর্সইঙ্ক - dainik shiksha বিনামূল্যে আন্তর্জাতিক মানের ডিজিটাল কনটেন্ট দিচ্ছে টিউটর্সইঙ্ক শিক্ষকদের ফ্রি অনলাইন প্রশিক্ষণ চলছে - dainik shiksha শিক্ষকদের ফ্রি অনলাইন প্রশিক্ষণ চলছে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া - dainik shiksha জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া please click here to view dainikshiksha website