স্কুলে বরাদ্দকৃত টাকা আত্মসাতের অভিযোগ - বিবিধ - Dainikshiksha

স্কুলে বরাদ্দকৃত টাকা আত্মসাতের অভিযোগ

বড়লেখা প্রতিনিধি |

বড়লেখার উত্তর বর্নি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষিকা রুবিয়া বেগম, সাবেক সভাপতি রহিম উদ্দিন ও সাবেক প্রধান শিক্ষক আবদুল করিমের বিরুদ্ধে স্কুলের জন্যে সরকারি বরাদ্দের ৪০ হাজার টাকা আত্মসাতের অভিযোগ উঠেছে। বর্তমান স্কুল ম্যানেজিং কমিটির সভাপতিসহ অন্যান্য সদস্য ও এলাকাবাসী এ অভিযোগ করেন।

জানা গেছে, উপজেলার স্কুল লেভেল ইমপ্রুভমেন্ট প্রজেক্টের (স্লিপ) অংশ হিসেবে ৪০ হাজার টাকা সরকারি বরাদ্দ পাওয়া যায়। চলিত বছরের ৩০ জুন বরাদ্দকৃত টাকা স্কুলের সংশ্লিষ্ট ব্যাংক হিসাবে জমা দেয়া হয়। গত ১৭ ফেব্রুয়ারি এ স্কুল থেকে সুড়িকান্দি প্রাইমারি স্কুলে বদলি হন তৎকালীন প্রধান শিক্ষক আবদুল করিম। ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষিকার দায়িত্ব পান তারই স্ত্রী সহকারী শিক্ষিকা রুবিয়া বেগম। প্রায় দেড় বছর আগে স্কুল ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি ছিলেন রহিম উদ্দিন বুদুর।

বর্তমান কমিটিকে অন্ধকারে রেখে স্কুলের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষকা রুবিয়া বেগম, সাবেক প্রধান শিক্ষক আবদুল করিম ও সাবেক সভাপতি রহিম উদ্দিন বুদু গত ৩০ জুলাই গোপনে ব্যাংক থেকে স্লিপের ৪০ হাজার টাকা উত্তোলন করেন। সোনালী ব্যাংক বড়লেখা শাখা তাদের ৩ জনের স্বাক্ষরে টাকা উত্তোলনের বিষয়টি বৃহস্পতিবার নিশ্চিত করেছে।

সরেজমিনে গিয়ে স্লিপের বরাদ্দের টাকায় স্কুলের কোনো উন্নয়ন কাজের অস্তিত্ব খুঁজে পাওয়া যায়নি। স্কুল ম্যানেজিং কমিটির বর্তমান সভাপতি আবদুল মোহিত বলেন, স্কুলের উন্নয়ন কাজের জন্য গত জুন মাসে ৪০ হাজার টাকা বরাদ্দ মেলে। কিন্তু ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষিকাকে এ টাকা উত্তোলনের ব্যবস্থা নিতে বারবার তাগিদ দিলেও তিনি ব্যবস্থা নেননি। পরে জানতে পারি তিনি, সাবেক প্রধান শিক্ষক আবদুল করিম ও সাবেক সভাপতি রহিম উদ্দিন যোগসাজশ করে টাকা উত্তোলন করে আত্মসাৎ করেন।

স্কুলের সাবেক সভাপতি রহিম উদ্দিন বুদু জানান, প্রধান শিক্ষক আবদুল করিম গত ৩০ জুলাই ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষিকা রুবিনা বেগমের নামে ৪০ হাজার টাকার একটি চেকে স্বাক্ষর নিতে তার কাছে গেলে তিনি তাতে স্বাক্ষর করে দেন। তিনি ব্যাংকে যাননি। তারাই টাকা তুলেছে। পরে টাকা দিয়ে তারা কী করল না করল এর কিছুই তিনি জানেন না।

ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষিকা রুবিয়া বেগম অত্যন্ত মানসিক চাপে রয়েছেন জানিয়ে এব্যাপারে কোনোকিছুই বলতে রাজি হননি। সাবেক প্রধান শিক্ষক আবদুল করিমের মোবাইল ফোনে যোগাযোগ করা হলে তিনি রিসিভ না করায় তার বক্তব্য পাওয়া যায়নি। উপজেলা শিক্ষা অফিসার রফিজ মিয়া জানান, সাবেক সভাপতি ও বদলি হওয়া শিক্ষকের স্বাক্ষরে স্কুলের টাকা উত্তোলন সম্পূর্ণ অবৈধ। তদন্ত করে দায়ীদের বিরুদ্ধে বিধি মোতাবেক ব্যবস্থা নেয়া হবে।

২১ থেকে ২৫ জুলাইয়ের এগ্রিকালচার ডিপ্লোমা পরীক্ষা স্থগিত - dainik shiksha ২১ থেকে ২৫ জুলাইয়ের এগ্রিকালচার ডিপ্লোমা পরীক্ষা স্থগিত একাদশে ভর্তিকৃতদের তালিকা নিশ্চয়ন ২৫ জুলাইয়ের মধ্যে - dainik shiksha একাদশে ভর্তিকৃতদের তালিকা নিশ্চয়ন ২৫ জুলাইয়ের মধ্যে বেসরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ম্যানেজিং কমিটির বিকল্প প্রয়োজন - dainik shiksha বেসরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ম্যানেজিং কমিটির বিকল্প প্রয়োজন এমপিওভুক্ত হলেন আরও ৮০ শিক্ষক - dainik shiksha এমপিওভুক্ত হলেন আরও ৮০ শিক্ষক একাদশে ভর্তিকৃতদের অনলাইনে রেজিস্ট্রেশন ৩১ জুলাইয়ের মধ্যে - dainik shiksha একাদশে ভর্তিকৃতদের অনলাইনে রেজিস্ট্রেশন ৩১ জুলাইয়ের মধ্যে স্কুল-কলেজ খোলা রেখে বন্যার্তদের আশ্রয় দেয়ার নির্দেশ - dainik shiksha স্কুল-কলেজ খোলা রেখে বন্যার্তদের আশ্রয় দেয়ার নির্দেশ শিক্ষার এক্সক্লুসিভ ভিডিও দেখতে দৈনিক শিক্ষার ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন - dainik shiksha শিক্ষার এক্সক্লুসিভ ভিডিও দেখতে দৈনিক শিক্ষার ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া - dainik shiksha জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া please click here to view dainikshiksha website