স্কুল মাঠে হাঁটুপানি - স্কুল - দৈনিকশিক্ষা

স্কুল মাঠে হাঁটুপানি

দৈনিকশিক্ষা ডেস্ক |

বর্ষার শুরু থেকে বগুড়ার আদমদীঘি উপজেলার সান্তাহার পৌর শহরের এসএমআই একাডেমি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সামনের মাঠে জমে রয়েছে হাঁটুপানি। প্রায় তিন মাস ধরে এই জলাবদ্ধতা থাকলেও সমস্যা সমাধানে কোনো পদক্ষেপ নেয়া হচ্ছে না। ফলে শিক্ষার্থীদের স্কুলে যাওয়া-আসায় চরম সমস্যা দেখা দিয়েছে। জলাবদ্ধতার কারণে সেখানে এডিস মশা জন্ম নিতে পারে—এমন আতঙ্কে বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা। শনিবার (২৪ আগস্ট) প্রথম আলো পত্রিকায় প্রকাশিত এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানা যায়।

বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক খোরসেদা খানম বলেন, ‘এটি নিচু এলাকা হওয়ায় ও পানি নিষ্কাশনের ব্যবস্থা না থাকায় একটু বৃষ্টি হলেই স্কুলটির সামনের মাঠসহ চারপাশে প্রচণ্ড জলাবদ্ধতার সৃষ্টি হয়। সমাবেশ করা যায় না। শিক্ষার্থীদের মধ্যে ডেঙ্গু-আতঙ্ক দেখা দিয়েছে।  শিক্ষার্থীদের প্রাণ রক্ষা সংশ্লিষ্ট সবার সহযোগিতা চাই।’

সরেজমিনে দেখা গেছে, সান্তাহার এসএমআই একাডেমি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রবেশপথ, সামনের খেলার মাঠ, বিদ্যালয় ভবনের নিচে পানি জমে রয়েছে। কোমলমতি শিক্ষার্থীরা পানি ভেঙে স্কুলে প্রবেশ করছে। বৃষ্টি হলে চারপাশের ময়লা-আবর্জনা ভেসে এসে মাঠের পানিতে জমা হচ্ছে।

 সান্তাহার এসএমআই একাডেমি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে প্রবেশ করতে এসএমআই একাডেমি উচ্চবিদ্যালয়ের মাঠ পেরিয়ে যেতে হয়। উচ্চবিদ্যালয়ের মাঠেও জলাবদ্ধতার সৃষ্টি হয়েছে। প্রাথমিক বিদ্যালয়ের নিচতলা আশ্রয়কেন্দ্র, সেখানেও পানি জমে রয়েছে।

বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী রওনক জাহান, শাহিন আরা, শফিউল ইসলাম জানায়, অনেক দিন থেকে খেলার মাঠে পানি জমে রয়েছে। পানি পার হয়ে তাদের বিদ্যালয় ভবনে যেতে হয়। পানি জমে থাকায় সেখানে প্রচুর মশা জন্ম নিয়েছে। মশার ভয়ে বাবা-মা বিদ্যালয়ে আসতে বারণ করছেন।

ওই এলাকার বাসিন্দা দুলাল হোসেন বলেন, ‘প্রতি বর্ষায় বিদ্যালয়ের মাঠসহ আশপাশে জলাবদ্ধতা সৃষ্টি হলেও তা নিরসনে পৌর কর্তৃপক্ষ কোনো উদ্যোগ নেয় না। পানি ভেঙে আমাদের বাসায় যেতে হয়। নোংরা পানি হাত-পায়ে লেগে নানা ধরনের চর্মরোগ দেখা দেয়। এর সঙ্গে যোগ হয়েছে ডেঙ্গু-আতঙ্ক। সমস্যাটি নিরসনেবিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান, পৌরসভার মেয়র, ওয়ার্ড কাউন্সিলর ও উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তাকে অবগত করেছে।’

সান্তাহার পৌরসভার ৩ নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সিলর শাকিল আলম বলেন, ‘বিদ্যালয় ও আশপাশের এলাকার জলাবদ্ধতার দূর করার জন্য আমরা পৌরসভার পক্ষ থেকে পানি নিষ্কাশনের উদ্যোগ নিচ্ছি। আশা করছি, অল্প সময়ের মধ্যে সমস্যাটির সমাধান হবে।’ পৌরসভার মেয়র তোফাজ্জল হোসেন বলেন, ‘স্কুলটির জলাবদ্ধতার সমস্যা দীর্ঘদিনের। তারপরও আমরা পৌরসভার পক্ষ থেকে সমস্যাটি সমাধানের চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছি।’

উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা শামসুল আলম দেওয়ান বলেন, ‘স্কুলটির জলাবদ্ধতাসহ অন্যান্য সমস্যার বিষয়ে অবগত আছি। সমস্যা সমাধানে সরকারি বরাদ্দের বিষয়ে ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষ বরাবর আবেদন করা হয়েছে।’

মাদরাসায় নবসৃষ্ট পদে নিয়োগে দ্রুত পদক্ষেপ নেয়া হবে : অর্থমন্ত্রী - dainik shiksha মাদরাসায় নবসৃষ্ট পদে নিয়োগে দ্রুত পদক্ষেপ নেয়া হবে : অর্থমন্ত্রী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে দপ্তরী নিয়োগের নীতিমালা প্রকাশ - dainik shiksha প্রাথমিক বিদ্যালয়ে দপ্তরী নিয়োগের নীতিমালা প্রকাশ অতিরিক্ত সচিব মাহমুদুল হককে শিক্ষা মন্ত্রণালয় থেকে বদলি - dainik shiksha অতিরিক্ত সচিব মাহমুদুল হককে শিক্ষা মন্ত্রণালয় থেকে বদলি এইচএসসি পরীক্ষার সূচি প্রকাশ - dainik shiksha এইচএসসি পরীক্ষার সূচি প্রকাশ কোন পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের কবে ভর্তি পরীক্ষা, এক নজরে - dainik shiksha কোন পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের কবে ভর্তি পরীক্ষা, এক নজরে শিক্ষার এক্সক্লুসিভ ভিডিও দেখতে দৈনিক শিক্ষার ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন - dainik shiksha শিক্ষার এক্সক্লুসিভ ভিডিও দেখতে দৈনিক শিক্ষার ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া - dainik shiksha জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া please click here to view dainikshiksha website