বিসিএস পরীক্ষার প্রশ্নপত্রে ভুল - 1

বিসিএস পরীক্ষার প্রশ্নপত্রে ভুল

নিজস্ব প্রতিবেদক |

BCS-1

শুক্রবার অনুষ্ঠিত হলো বিসিএস প্রিলিমিনারি পরীক্ষা। এই পরীক্ষার প্রশ্নপত্রে কিছু ভুল পাওয়া গেছে।

বিসিএসের মতো দেশের সর্বোচ্চ ক্যাডার সার্ভিস পরীক্ষার প্রশ্নপত্রে ভুল থাকাকে অপ্রত্যাশিত ও লজ্জাজনক বলে মন্তব্য করেছেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সমাজ বিজ্ঞান বিভাগের অধ্যাপক সাদেকা হালিম।

তিনি বলেন, আমাদের দেশের শিক্ষামন্ত্রী সবকিছুতে নজরদারি করছেন। ছেলে মেয়েদের পরীক্ষায় ভাল ফলাফল করার জন্য বিভিন্ন পদক্ষেপ নিচ্ছেন। কিন্তু আমরা দেখতে পাচ্ছি শিক্ষার্থীরা এ প্লাস পাচ্ছে বিভিন্ন কারণে। যার মধ্যে রয়েছে প্রশ্নপত্র ফাঁস।

তবে আজকের অনুষ্ঠিত বিসিএস পরীক্ষায় যে ভুলগুলো আছে সেটি আমাদের জন্য খুবই লজ্জাজনক। এটি অত্যাপ্রত্যাশিত। আশাকরি যারা এখানে দায়িত্বে আছেন তারা এ বিষয়গুলোর প্রতি বিশেষভাবে যত্নবান হবেন। যাতে ভবিষ্যতে এ ধরনের ভুল আর না হয়।

এ প্রসঙ্গে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের আইন বিভাগের শিক্ষক অধ্যাপক ড. আসিফ নজরুল বলেন, পাবলিক সার্ভিস কমিশনের পরীক্ষা হলো বাংলাদেশের সর্বোচ্চ পর্যায়ের একটি পরীক্ষা। এতে ভুল থাকা কোনভাবেই কাম্য নয়। পরীক্ষার কোয়ালিটি রক্ষা করার দায়িত্ব যাদের তারা এক্ষেত্রে যথেষ্ট মনোযোগী না হওয়ায় ধারাবাহিকভাবে এ ধরনের ভুল হচ্ছে।

তিনি বিষয়টি পুঙ্খাক্ষানুপুঙ্খ তদন্ত করে এ ব্যাপারে কঠোর পদক্ষেপ নেয়ার জন্য সরকারের প্রতি আহবান জানান।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগের অধ্যাপক রোবাইয়াত ফেরদৌস এ প্রসঙ্গে বলেন, বিসিএস পরীক্ষার প্রশ্নপত্রে ভুল এটা খুবই অনাকাঙ্খিত। এখানে যারা কাজ করেন তারা সতর্কভাবে কাজ করলে এ ধরনের ভুল হওয়ার কথা নয়। ভবিষ্যতে এ ধরনের ভুল যাতে আর না হয় সেজন্য সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাদের আরো সতর্কভাবে কাজ করার আহবান জানান।

BCS-2

এই মুঠোফোনসর্বস্ব যুগে Mobile Phone বানান লিখতে কারো ভুল হওয়ার কথা নয়। কিন্তু সবাইকে অবাক করে দিয়ে সত্যিই সেই ভুলটিই হলো সরকারি চাকরিপ্রার্থীদের হাড়-হিম-করা পরীক্ষা বিসিএসের প্রশ্নপত্রে। সেখানে লেখা হয়েছে ‘মোবাইল পোন’ (Mobile Pone)!

প্রশ্নটি এমন ছিল : Mobile Pone-এর কোনটি input device নয়? শুক্রবার ৩৬তম বিসিএসের প্রিলিমিনারি পরীক্ষায় এমন ‘হাস্যরসাত্মক’ ভুলটি হয়েছে।

চার নম্বর সেটের (দোলনচাঁপা) ১৮৬ নম্বর প্রশ্নটিতে ‘ফোন’ ‘পোন’-এ রূপান্তরিত হওয়ায় তা পরীক্ষার্থীদের অনেকের কাছেই দৃষ্টিকটু মনে হয়েছে।

এদিকে, একই সেটের ১৩৩ নম্বর প্রশ্নে রয়েছে, বর্তমানে NAM এর সদস্য সংখ্যা কত ?

উত্তরে দেয়া আছে ক ) ৩৩, খ) ১৫, গ)৭৭, ঘ) ২১। অথচ এর সঠিক উত্তর হবে ১২০।

প্রথমবারের মতো বিসিএস পরীক্ষায় অংশগ্রহণকারী আব্দুল্লাহ নুমান বলেন, ‘গুণগত মানের দিক থেকে প্রশ্নপত্র অনেক ভালো হয়েছে। তবে মোবাইল ফোন বানানে ভুল এবং বর্তমানে NAM এর বর্তমান সদস্য সংখ্যা কত ? এমন প্রশ্নের উত্তরে ভুল থাকার বিষয়টি নিয়ে হতাশা প্রকাশ করেন তিনি। বলেন, ‘বিসিএসের মতো এত বড় পরীক্ষায় এ ধরনের ভুল সত্যিই দুঃখজনক।’

৩৬তম বিসিএস প্রিলিমিনারি পরীক্ষায় ২ লাখের বেশি পরীক্ষার্থী অংশগ্রহণ করেন। দুই ঘণ্টার এ পরীক্ষা শুক্রবার সকাল সাড়ে ৯টায় শুরু হয়ে সাড়ে ১১টায় শেষ হয়। ঢাকাসহ দেশের ১৬১টি পরীক্ষা কেন্দ্রে এবারের বিসিএস পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়েছে। পিএসসির তথ্যমতে এই বিসিএসের মাধ্যমে দুই হাজারের বেশি লোকবল বিভিন্ন ক্যাডারে নিয়োগ দেয়া হবে।


নিবন্ধন পরীক্ষায় উত্তীর্ণদের তথ্য চেয়ে গণবিজ্ঞপ্তি - dainik shiksha নিবন্ধন পরীক্ষায় উত্তীর্ণদের তথ্য চেয়ে গণবিজ্ঞপ্তি একাদশে ভর্তির আবেদন ও ফল প্রকাশের সময়সূচি - dainik shiksha একাদশে ভর্তির আবেদন ও ফল প্রকাশের সময়সূচি জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া - dainik shiksha জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া please click here to view dainikshiksha website