৬৩ হাজার পরীক্ষার্থীর একলাখ উত্তরপত্র চ্যালেঞ্জ - পরীক্ষা - Dainikshiksha

৬৩ হাজার পরীক্ষার্থীর একলাখ উত্তরপত্র চ্যালেঞ্জ

নিজস্ব প্রতিবেদক |

ঢাকা শিক্ষা বোর্ডের প্রায় সাড়ে ৬৩ হাজার পরীক্ষার্থী একলাখ ৪১ হাজারের বেশি উত্তর পত্রের নম্বর পরিবর্তন চেয়ে আবেদন করেছেন। গত ৬ মে প্রকাশিত এসএসসি পরীক্ষায় কাঙ্ক্ষিত ফল না পেয়ে তারা এই আবেদন করেন। ঢাকা শিক্ষাবোর্ডের সিনিয়র সিস্এটেম অ্যানালিস্ট প্রকৌশলী মনজুরুল ইসলাম সোমবার (১৪ মে) দৈনিক শিক্ষাডটকমকে এ খবর নিশ্চিত করেছেন।

ঢাকা শিক্ষা বোর্ডের তথ্যানুযায়ী, প্রতি বছরই এসএসসি পরীক্ষার খাতা পুনর্নিরীক্ষণের আবেদনের সংখ্যা বাড়ছে।  এবার এসএসসি পুনর্নিরীক্ষণের আবেদন করেছেন ৬৩ হাজার ৪০০ জন পরীক্ষার্থী। গত বছর এ সংখ্যা ছিল  ৫৫ হাজার ৩৩০ জন। ২০১৭ খ্রিস্টাব্দে পুনর্নিরীক্ষণের আবেদন করেছিলেন ৫৫ হাজার ৩৩০ জন শিক্ষার্থী।

এদিকে চলতি বছর একাদশে ভর্তির নীতিমালায় বলা হয়েছে, ভর্তির জন্য অনলাইন ও এসএমএসে আবেদন গ্রহণ শুরু হবে আগামী ১৩ মে থেকে। আবেদনের শেষ সময় ২৪ মে। তবে ফল পুনর্নিরীক্ষণের যাদের ফল পরিবর্তন হবে, তাদের আবেদন আগামী ৫ ও ৬ জুন গ্রহণ করা হবে। প্রথম পর্যায়ে নির্বাচিত শিক্ষার্থীদের ফল প্রকাশ করা হবে ১০ জুন। এবার শিক্ষার্থী ভর্তির নিশ্চায়ন না করলে নির্বাচন ও আবেদন বাতিল হবে। এরপর দ্বিতীয় পর্যায়ের আবেদন গ্রহণ করা হবে ১৯ ও ২০ জুন। দ্বিতীয় পর্যায়ের আবেদনের ফল প্রকাশ করা হবে ২১ জুন। তৃতীয় পর্যায়ে আবেদন গ্রহণ করা হবে ২৪ জুন। এই পর্যায়ের ফল প্রকাশ হবে ২৫ জুন। আনুষঙ্গিক কাজ শেষ করে ২৭ থেকে ৩০ জুন পর্যন্ত ভর্তি কার্যক্রম চলবে। আগামী ১ জুলাই থেকে ক্লাস শুরু হবে।

মহাপরিচালকের চিকিৎসায় মানবিক সাহায্যের আবেদন - dainik shiksha মহাপরিচালকের চিকিৎসায় মানবিক সাহায্যের আবেদন সরকারি সুবিধা চান ৫৯ অতিক্রান্ত কলেজ শিক্ষকরা - dainik shiksha সরকারি সুবিধা চান ৫৯ অতিক্রান্ত কলেজ শিক্ষকরা সদ্য সরকারিকৃত ২৯৮ কলেজে সমন্বিত পদ সৃজনের সিদ্ধান্ত - dainik shiksha সদ্য সরকারিকৃত ২৯৮ কলেজে সমন্বিত পদ সৃজনের সিদ্ধান্ত বড় নিয়োগ আসছে প্রাক প্রাথমিকে - dainik shiksha বড় নিয়োগ আসছে প্রাক প্রাথমিকে একীভূত শিক্ষাব্যবস্থা: ৬৪ প্রাথমিক বিদ্যালয়ের তালিকা - dainik shiksha একীভূত শিক্ষাব্যবস্থা: ৬৪ প্রাথমিক বিদ্যালয়ের তালিকা একাডেমিক স্বীকৃতি পেল ৩০ প্রতিষ্ঠান - dainik shiksha একাডেমিক স্বীকৃতি পেল ৩০ প্রতিষ্ঠান পাঠ্যসূচিতে ট্রাফিক আইন থাকা উচিত: মুহম্মদ জাফর ইকবাল - dainik shiksha পাঠ্যসূচিতে ট্রাফিক আইন থাকা উচিত: মুহম্মদ জাফর ইকবাল চলতি দায়িত্বে থাকা প্রধান শিক্ষকদের পদোন্নতি শিগগিরই - dainik shiksha চলতি দায়িত্বে থাকা প্রধান শিক্ষকদের পদোন্নতি শিগগিরই দৈনিক শিক্ষায় বিজ্ঞাপন পাঠান ইমেইলে - dainik shiksha দৈনিক শিক্ষায় বিজ্ঞাপন পাঠান ইমেইলে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া - dainik shiksha জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নামে খোলা সব ফেসবুক পেজই ভুয়া please click here to view dainikshiksha website