মন্তব্য লিখতে লগইন অথবা রেজিস্টার করুন

মন্তব্যের তালিকা

raju, ০২ আগস্ট , ২০১৮
এই জামায়েত নেতার ইঙ্গিতেই মাদ্রাসায় জনবল কাঠামো ২০১৮ নীতিমালা সম্পুর্ন কালো নীতিমালা তৈরি হয়েছে,আমরা দ্রুত গ্রন্থাগারিক ও সহকারী গ্রন্থাগারিক পদের ৩৫ নং কলামের পরিবর্তন চাই,,,,লাইব্রেরী হচ্ছে একটি জাতির মেরুদন্ড,সেই মেরুদন্ডকে ভাঙ্গার জন্যই এই জামায়াতি নতুন পরিকল্পনা,আমরা এই নীতিমালাটির সংশোধন চাই।মাদ্রাসা থেকে পাস করা গ্রন্থাগারিকরা স্কুল কলেজে চাকুরি করতে পারবে আর আমরা মাদ্রাসায় পারবো না,এটা কীসের নিতীমালা?তারা বুঝাতে চাচ্ছেন কি জানি না তবে মাদ্রাসার ডিপ্লামাধারীরা হিসাব বিঃ/আইসিটি বিষয়ে এবং পদার্থ,রসায়নে কিছুই বুঝেনা এত কিছুতে ও স্কুল কলেজ কতৃপখ তাদের নিচ্ছে তাহলে আমাদের জেনারেলদের তার মাদ্রাসার নিতীমালায় রাখলো না কেন? আমরা এই জামায়েতি নীতিমালা বাস্তবায়ন হতে দিবো না।