মন্তব্য লিখতে লগইন অথবা রেজিস্টার করুন

মন্তব্যের তালিকা

Partha Sarathi Ray, ২২ এপ্রিল, ২০১৯
এসব ঘুষখোরদের ধরার জন্য গণমাধ্যমে মোবাইল অথবা ফোন নাম্বার দিয়ে বিজ্ঞাপন দেয়া হোক যাতে প্রতারিত ব্যাক্তি সহজেই ঘুষ দেয়া-নেয়ার দিন-খন ও সময় আইন প্রয়োগকারী সংস্থাকে জানাতে পারে।
Partha Sarathi Ray, ২২ এপ্রিল, ২০১৯
বাংলাদেশে এমন কোনো শিক্ষা অফিস পাওয়া যাবেনা যেখানে ঘুষ ছাড়া ফাইল চলে। জেলা শিক্ষা অফিস ও মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসের সহকারীরাই এসব কাজের নাটের গুরু। জেলা শিক্ষা অফিসার ও মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার থাকেন ধরা-ছোঁয়ার বাইরে, কিন্তু সবকিছুই তারা জানেন।
S.M. Saiful Islam, ১৮ এপ্রিল, ২০১৯
শিক্ষা অফিসে ‘ঘুষ বাণিজ্য চলে সাতক্ষীরার কয়েকটি উপজেলাতেও। ঘুষ নেওয়াটা যেন তাদের স্বভাবে পরিনত হয়েছে। সরকার ও শিক্ষা কর্মকর্তাদের পক্ষ থেকে উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তাদের ঘুষের কারবার বন্ধে বিভিন্ন নির্দেশনা দেওয়া হলেও অধিকাংশ অফিসার তা মানছেন না। কোনো কার্যক্রম ঘুষ-লেনদেন ব্যতিরেকে হবেই না এমনটিই যেন নিয়ম হয়ে দাড়িয়েছে। বিষয়টি উদ্ধর্তন কতৃর্পক্ষকে তদন্তপূবর্ক ব্যবস্থা গ্রহণ করা অতি জরুরী।
Rahmat Ali, ১৮ এপ্রিল, ২০১৯
দুদক যদি প্রত্যেক অফিসে অভিযান চালায় তাহলে দেখতে পাবে কেউ না কেউ কোন না কোন দূর্নীতীতে জরিত।
Rahmat Ali, ১৮ এপ্রিল, ২০১৯
দুদক যদি প্রত্যেক অফিসে অভিযান চালায় তাহলে দেখতে পাবে কেউ না কেউ কোন না কোন দূর্নীতীতে জরিত।