মন্তব্য লিখতে লগইন অথবা রেজিস্টার করুন

মন্তব্যের তালিকা

subhas Chandra chowdhury, ০২ মে, ২০১৯
৬% চাঁদা প্রদানকারীরা কি সুবিধা কম পেয়েছেন?১০% প্রদানকারীগন কি এই আইনের চেয়ে বেশী সুবিধা পাবেন? যেহেতু পাবেন না সেহেতু বেশী কর্তন অমানবিক ও অযৌক্তিক।সরকার যেহেতু পেনশন ও গ্র্যাচুইটি দেন না যেহেতু ঘাটতি সরকার পূরণ করবেন।আর নাহয় এটিকে কন্ট্রিবিউটরী ভবিষ্য তহবিলে পরিবর্তন করবেন।
Md Afzal Alam Chowdhury, ২২ এপ্রিল, ২০১৯
যে শিক্ষকরা ১০০০ টাকা বাড়ি ভাড়া পায়, ৫০০ টাকা চিকিতসা ভাতা পায়, তাদের বেতন হতে প্রতিমাসে অবসর ভাতা প্রাপ্তির শর্তে ৪% এবং কল্যাণ ভাতা প্রাপ্তির শর্তে ২% কেটে রাখা হচ্ছে প্রতি মাসে, তার উপর আয়কর রিটার্ন দাখিল বাধ্যতামূলক করা হয়েছে। এবার মরার উপর খাড়ার ঘা আরো ৪% কর্তনের প্রজ্ঞাপন! সত্যি কি শিক্ষা বান্ধব পরিবেশ। বহু শিক্ষক তার মূল বেতনের চেয়ে কম টাকা উত্তোলন করতে পারছেন। আবার ৪% বর্ধিত কর্তনের ঘা তৈরি হচ্ছে। শিক্ষরা কার কাছে যাবে? কোথায় বলবে তাদের ক্ষোভের কথা? সত্যিই কি কোন জায়গা আছে!
Md Afzal Alam Chowdhury, ২২ এপ্রিল, ২০১৯
কল্যাণ ট্রাস্টের কর্তাব্যাক্তিগণ ও শিক্ষক। কিন্তু তারা কি করে এটা মেনে নিচ্ছেন। আমার বেতন হতে অতিরিক্ত কর্তৃত টাকা আমি ফেরত পাবো না, এটা মেনে নেয়ার কোন কারণ আছে কি? সরকার যদি মনে করে আরো টাকা দরকার তবে বরাদ্ধ দিলেইতো হয়। টাকা না থাকলে আমরা উন্নয়নশীল দেশের উন্নত পর্যায়ে যাচ্ছি কিভাবে! শিক্ককদের টাকা কেটে অবসরের টাকার ঘাটতি মেটাতে সমস্যা নেই। কিন্তু আমার অতিরিক্ত কর্তনকৃত টাকা আমাকে ততকালীন মূল্যে ফেরতদানের ব্যবস্থা করতে হবে। আগে ঘোষনা চাই অতিরক্ত কর্তনকৃত টাকা শিক্ষকরা ফেরত পাবে কিভাবে?