মন্তব্য লিখতে লগইন অথবা রেজিস্টার করুন

মন্তব্যের তালিকা

মো. সোহেল মিয়া, ১৩ জুন, ২০২০
মাননীয় শিক্ষামন্ত্রী, আমাদের শিক্ষকদের দাবী দাওয়া বিষয়ের প্রতি আপনার বিশেষ নজর দেয়া দরকার। কারণ আমরা যারা নন এমপিও শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে জব করি গত তিন মাস যা্বত বেতন ভাতা পাচ্ছি না । এখন আমরা কিভাবে সংসার চালাব ভেবে পাচ্ছি না। এই পরিস্থিতি চলতে থাকলে আমাদের পরিবারের লোকজন না খেয়ে অনাহারে মরে যাবে। অতএব নন এমপিও শিক্ষা প্রতিষ্ঠানকে একযোগে এমপিও করা দরকার আপনার কাছে এটাই আমাদের দাবি আমরা যেন আমাদের পরিবার নিয়ে কোনভাবে ডাল ভাত খেয়ে বেঁচে থাকতে পারি।
Md. Rayhan Ali, ১২ জুন, ২০২০
এই সমস্ত অযোগ্য রাজনীতিবিদদের মুখরোচক কথা শুনতে কেমন জানি লাগে। কিছুই করার নাই রে ভাই, তবে শেষ বিচার একদিন হবেই, সেদিন কারও উপর জুলুম করা হবে না।
MD.EDRISH ALI, ১২ জুন, ২০২০
কপালে থাকলে হবে,না থাকলে হবে না!সরকারি প্রতিষ্ঠানে ছাত্রছাত্রী মোট 5বা6 জন সকলেই পাস 100%আর যোগ্যতাও 100%অর্জন করেছে!আর স্বীকৃতিপ্রাপ্তদের কত যোগ্যতার মাপকাঠি পার করতে হবে!একেই বলে কপালে থাকলে ঠেকায় কে?আমাদের অনেকের কপালে হয়তো এমপিওর সাথে সাক্ষাৎ না হয়ে আজরাইল (আ)এর সাক্ষাৎ হতে পারে!তাতে কি হবে তাদের পরিবার গুলো পথে বসবে!
Murad, ১২ জুন, ২০২০
মাননীয় শিক্ষামস্ত্রী আপনার কাছে আমাদের সবিনয়ে অনুরোধ কারিগরি অদিদপতরের 19সালে এমপিও ভুক্তি শিক্ষক কর্মচারী এখনো বেতন পাইনাই। যদি একটু দ্রুত ব্যবস্তা করতেন তাহলে ১৪বছর না খেয়ে থাকা মানুষ গুলো এই করোনার কালে দুমুঠো ভাত খেয়ে মরতে পারতো।
MD.EDRISH ALI, ১২ জুন, ২০২০
রুপ্যের মূল্য আর স্বর্ণের মূল্য একই থাকবে না পরিবর্তন হবে?গ্রামের অবহেলিত প্রতিষ্ঠানের অসহায় বাবা মায়ের ছেলে মেয়ে আর শহরের আদরের দুলালীদের এক সাথে হিসাব এখনোও কি করা হচ্ছে?তাহলে গ্রামের অবহেলিত প্রতিষ্ঠান কোনো দিনও মাথা তুলে দাঁড়াতে পারবে না!