আইনি ছায়ায় দত্তক দেয়া হবে সেই নবজাতক অপরাজিতাকে - বিবিধ - দৈনিকশিক্ষা

আইনি ছায়ায় দত্তক দেয়া হবে সেই নবজাতক অপরাজিতাকে

বিশেষ প্রতিনিধি, বাউফল থেকে |

আইনি ছায়ায় দত্তক দেয়া হবে সেই ‘পাগলী’ শাহনাজের নবজাতক মেয়ে অপরাজিতাকে। দশ দিনেও মা ও নবজাতক অপরাজিতার (চিকিৎসকের দেয়া নাম)  স্বজনদের খোঁজ মেলেনি। পটুয়াখালীর বাউফল উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন আছে মা-মেয়ে দু্ই জনই।

ছবি : বাউফল প্রতিনিধি

বুধবার (৯ জুন) দুপুরে সরেজমিন উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের বেডে নতুন পোশাকে দেখা গেছে প্রসূতি মা ও মেয়েকে। এ সময় স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের নার্স ও চিকিৎসা নিতে আসা পাশের বেডের কয়েকজন দৈনিক শিক্ষাডটকমকে জানায়, চিকিৎসরা নবজাতকের নাম দিয়েছেন অপরাজিতা। মানসিক ভারসাম্যহীন আপনভোলা হলেও মা শাহনাজ মাঝে মধ্যেই শিশু অপরাজিতাকে বুকের দুধ পান করান। মনে চাইলে করেন ছোটখাট পরিস্কার পরিচ্ছতার কাজও। সুস্থ আছে মা-মেয়ে দু’জনই। চিকিৎসক ও স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসা নিতে আসা কয়েকজন তাদের দুজনকেই কিনে দিয়েছেন নতুন পোশাক।

আরও পড়ুন : দৈনিক শিক্ষাডটকম পরিবারের প্রিন্ট পত্রিকা ‘দৈনিক আমাদের বার্তা’

দৈনিক শিক্ষা ও আমাদের বার্তার কাছে ত্রিশ-বত্রিশ বছর বয়সী প্রসূতি ‘পাগলী’ শুরুতে নিজের নাম শাহনাজ জানালেও কারও কারও কাছে আবার তার নাম আফরোজা জানায়। নিজ গ্রামের নাম জানায়, কখনো কাউখালী, কখনো বানারীপাড়া আবার কখনো উত্তর নলুয়া। স্বামীর নাম জানায় কাওছার।

সারারাত প্রসব ব্যাথায় কাতরিয়ে গত ৩১মে সকাল ৯টার দিকে এক ফুটফুটে কন্যা সন্তানের জন্ম দেয় রাজাপুর মাতবরের বাজার এলাকায় খোলা ট্রলঘরে শাহনাজ ‘পাগলী’। ওই সময় বেদনায় কাতরাতে থাকলেও এগিয়ে আসছিল না কেউ। প্রসবের পর জ্ঞান হারায় সে। আবার সন্তান প্রসবের আগেই কেউ কেউ শঙ্কিত হয় সন্তানের দায়িত্ব নিয়ে। কাঁচা বাজারের খোলা ট্রলঘরেই সন্তান জন্মদানের পর রেনুবালা নামে একজন ছুটে গিয়ে মশারি টানিয়ে সামন্য পরিস্কার পরিচ্ছনতার দায়িত্ব নিয়ে এগিয়ে এলেও সন্তানসহ জরুরী চিকিৎসা সাহায্য প্রয়োজন হয় দু’জনেরই। দৈনিক শিক্ষা ও আমাদের বার্তার বিশেষ প্রতিনিধি এম এ বশার খবর জেনে সঙ্গে সঙ্গে উপজেলা নির্বাহী কর্র্মকর্তা জাকির হোসেনকে অবহিত করলে অতি দ্রুত উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের মাধ্যমে প্রসূতি ও তার নবাগত সন্তানকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে এনে চিকিৎসার নির্দেশ দেয়া হয়।

দৈনিক আমাদের বার্তার ইউটিউব চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব ও ফেসবুক পেইজটি ফলো করুন

সেই থেকেই স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধিন আছে তারা। এ বিষয়ে সন্তান প্রসব করেছে শাহনাজ ‘পাগলী’ জরুরি চিকিৎসা সাহায্যের আবেদন’, ‘প্রসূতি ‘পাগলী’ শাহনাজ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসা পাচ্ছেন’ শিরোনামে দৈনিক শিক্ষা ও আমাদের বার্তার অনলাইনসহ প্রিন্ট সংস্করণে একাধিক রিপোর্ট প্রকাশ করে।

চার-পাঁচ মাস ধরে যুবতী বয়সের ‘পাগলী’ শাহনাজকে দেখে আসছিল রাজাপুর মাতবর বাজার এলাকার লোকজন। দোকানে দোকানে হাত পেতে খাবার খেত। থাকতো কাঁচা বাজারের ট্রলঘরে।

উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের চিকিৎসক এ এস এম সায়েম দৈনিক শিক্ষাডটকমকে বলেন, ‘নবজাতক ও প্রসূতির প্রয়োজনীয় চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে। বর্তমানে শিশুটি ও তার মা পুরোপুরি সুস্থ আছে।’

উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা প্রশান্ত কুমার সাহা (পিকেসা) দৈনিক শিক্ষাডটকমকে বলেন, ‘শারীরিক সুস্থ্যতা ফিরে পেলেও মানসিক ভারসাম্যহীন হওয়ায় শিশুটিকে তার মায়ের দায়িত্বে দেওয়া যাচ্ছে না। যতদিন লিগ্যাল অভিভাবক পাওয়া না যাবে ততদিন স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে রাখার ব্যবস্থা নিতে উপজেলা নির্বাহি কর্মকর্তাকে বলা হয়েছে।’

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা জাকির হোসেন দৈনিক শিক্ষাডটকমকে বলেন, ‘শিশুটি ও তার মা সুস্থ আছেন। এটা ভাল লেগেছে। ওই প্রসূতির জানানো ঠিকানায় তার কোনো স্বজনের খোঁজ পাওয়া যায়নি। মানসিক ভারসাম্যহীন হওয়ায় তার কাছে শিশুটি নিরাপদ না। কোনো দম্পত্তি দত্তক নিতে চাইলে যথাযথ আইনি প্রক্রিয়ায় হস্তান্তর করা হবে।’ 

তিনি আরও বলেন, ‘এ নিয়ে সংবাদ প্রকাশ হলে এবার ওই নারীর আপনজন কারো নজরে আসতে পারে। দত্তক দেয়ার পরিবর্তে মাথা গোঁজার ঠাই মিলতে পারে শিশু ও তার মায়ের।’

সব শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ছুটি ৩০ জুন পর্যন্ত - dainik shiksha সব শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ছুটি ৩০ জুন পর্যন্ত ২০ বিশ্ববিদ্যালয়ের গুচ্ছ ভর্তি পরীক্ষা স্থগিত - dainik shiksha ২০ বিশ্ববিদ্যালয়ের গুচ্ছ ভর্তি পরীক্ষা স্থগিত লকডাউন বাড়লে পেছাতে পারে বুয়েটের ভর্তি পরীক্ষা - dainik shiksha লকডাউন বাড়লে পেছাতে পারে বুয়েটের ভর্তি পরীক্ষা দৈনিক আমাদের বার্তায় শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞাপন দিন ৩০ শতাংশ ছাড়ে - dainik shiksha দৈনিক আমাদের বার্তায় শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞাপন দিন ৩০ শতাংশ ছাড়ে ৬ষ্ঠ-৯ম শ্রেণির শিক্ষার্থীদের ষষ্ঠ সপ্তাহের অ্যাসাইনমেন্ট প্রকাশ - dainik shiksha ৬ষ্ঠ-৯ম শ্রেণির শিক্ষার্থীদের ষষ্ঠ সপ্তাহের অ্যাসাইনমেন্ট প্রকাশ সেই রায়ের ওপর স্থগিতাদেশ পেলেই অর্ধলক্ষাধিক শিক্ষক পদে নিয়োগ সুপারিশ - dainik shiksha সেই রায়ের ওপর স্থগিতাদেশ পেলেই অর্ধলক্ষাধিক শিক্ষক পদে নিয়োগ সুপারিশ এসএসসি-এইচএসসি পরীক্ষা ও শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খোলা নিয়ে যা ভাবছে শিক্ষা প্রশাসন - dainik shiksha এসএসসি-এইচএসসি পরীক্ষা ও শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খোলা নিয়ে যা ভাবছে শিক্ষা প্রশাসন অনলাইনে পাবলিক পরীক্ষা নেয়া ‘অসম্ভব’ - dainik shiksha অনলাইনে পাবলিক পরীক্ষা নেয়া ‘অসম্ভব’ তিন ম্যাচ নিষিদ্ধ সাকিব, জরিমানা ৫ লাখ টাকা - dainik shiksha তিন ম্যাচ নিষিদ্ধ সাকিব, জরিমানা ৫ লাখ টাকা করোনার চেয়ে নির্বাচন বেশি গুরুত্বপূর্ণ : সিইসি - dainik shiksha করোনার চেয়ে নির্বাচন বেশি গুরুত্বপূর্ণ : সিইসি please click here to view dainikshiksha website