উৎসব ভাতা ও বদলি : শিক্ষক নেতারা যা বুঝলেন ও বোঝালেন - এমপিও - দৈনিকশিক্ষা

উৎসব ভাতা ও বদলি : শিক্ষক নেতারা যা বুঝলেন ও বোঝালেন

নিজস্ব প্রতিবেদক |

বেসরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের এমপিও নীতিমালা ও জনবল কাঠামো-২০২১ জারি হয়েছে। সোমবার (২৯ মার্চ) সন্ধ্যায় সম্পূর্ণ বাংলা ভাষায় ৪৪ পৃষ্ঠার নীতিমালাটি প্রকাশের পর কয়েকজন কর্মরত ও অবসরপ্রাপ্ত শিক্ষক নিজ নিজ ফেসবুকে ‘উল্লাস ও উচ্ছ্বাস' প্রকাশ করে চলছেন। তারা বিভিন্ন প্রচার মাধ্যমে নিজ নিজ মতামতও দিয়েছেন। কোনো কোনো শিক্ষক প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা, শিক্ষামন্ত্রী দীপু মনি ও শিক্ষা উপমন্ত্রী মহিবুল হাসান চৌধুরীর ছবি ব্যবহার করে তাদেরকে ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতাও জানিয়েছেন। 

দৈনিক শিক্ষার পর্যবেক্ষণে আরো জানা যায়, কয়েকটি প্রচারমাধ্যম শতভাগ উৎসব ভাতা ও বদলি চালু হয়েছে মর্মে প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে। এমপিওভুক্ত অনেক শিক্ষক-কর্মচারীই নিজেদের সাংবাদিক দাবি করেন। কেউ ফেসবুক টিভি আবার কেউ ফেসবুকীয় পত্রিকার মালিক, সম্পাদক ও প্রকাশক। আবার কেউ মাসিক ও সাপ্তাহিক পত্রিকারও সম্পাদক এবং প্রকাশক।  

নজরুল ইসলাম রনির ফেসবুক  থেকে নেয়া। 

পেশাদার সাংবাদিক কর্তৃক পরিচালিত শিক্ষা বিষয়ক দেশের একমাত্র পত্রিকা দৈনিক শিক্ষার পর্যবেক্ষণে আরো জানা যায়, বাংলাদেশ শিক্ষক সমিতির কেন্দ্রীয় সভাপতি ও মীরপুর সিদ্ধান্ত হাইস্কুলের প্রধান শিক্ষক মো. নজরুল ইসলাম রনি নিজ ফেসবুকে ও একাধিক প্রচারমাধ্যমে ‘সরকারের এই সিদ্ধান্তকে’ স্বাগত জানিয়েছেন। প্রজ্ঞাপন জারি হয়েছে বলেও তিনি ফেসবুকে লিখেছেন। রনি নাকি এটা জেনেছেন ‘বিশ্বস্ত সূত্রে’। তিনি বলেছেন, ‘দীর্ঘ প্রতীক্ষার পর সরকারের এই সিদ্ধান্তে শিক্ষকরা আন্তরিকতার সঙ্গে দায়িত্ব পালনে সচেষ্ট থাকবেন।’ 

নজরুল ইসলাম রনির ফেসবুক থেকে নেয়া 

একটু সময় নিয়ে আজ ৩০ মার্চ সকালে স্বাধীনতা শিক্ষক পরিষদের সাধারণ সম্পাদক ও বেসরকারি শিক্ষক কর্মচারী কল্যাণ ট্রাস্টের সচিব অধ্যক্ষ মো. শাহজাহান আলম সাজু প্রধানমন্ত্রী, শিক্ষামন্ত্রী ও শিক্ষা উপমন্ত্রীর ছবি একত্রিত করে নিজ ফেসবুকে লিখেছেন, ‘পূর্ণাঙ্গ উৎসব ভাতা  ও বদলি বিষয়ে নীতিমালায় অন্তর্ভুক্ত  করায় মাননীয় প্রধানমন্ত্রী, শিক্ষা মন্ত্রী ও  শিক্ষা উপমন্ত্রীকে প্রাণঢালা অভিনন্দন। ঐতিহাসিক মুজিব জন্মশতবর্ষে বেসরকারি শিক্ষক কর্মচারীদের বহু কাঙ্ক্ষিত পুর্ণাঙ্গ উৎসব ভাতা ও বেসরকারি শিক্ষকদের প্রতিষ্ঠান পরিবর্তন বিষয়ে নীতিমালায়  অন্তর্ভুক্ত করায় মানবতার জননী, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী,জননেত্রী শেখ হাসিনা, কর্মবীর শিক্ষা মন্ত্রী ডাঃ দীপু মনি এমপি ও উপমন্ত্রী ব্যারিস্টার মহিবুল হাসান চৌধুরী এমপিকে বাংলাদেশের প্রায় সাড়ে পাচ লক্ষ এমপিওভূক্ত শিক্ষক কর্মচারির প্রতিনিধিত্বশীল সংগঠন স্বাধীনতা শিক্ষক পরিষদ, (স্বাশিপ) এর  পক্ষ থেকে প্রাণঢালা শুভেচ্ছা ও  অভিনন্দন।’ 

অধ্যক্ষ শাহজাহান আলম সাজুর ফেসবুক থেকে নেয়া 

শাহজাহান সাজু নিজ ফেসবুকে আরো লিখেছেন, ‘গতকাল বেসরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান (স্কুল ও কলেজ) জনবল কাঠামো ও এম পি ও নীতিমালা-২০১৯ এ  বেসরকারি শিক্ষক কর্মচারীদের শতভাগ উৎসব ভাতা প্রদানের সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার। এ প্রসঙ্গে গতকাল শিক্ষা মন্ত্রনালয় থেকে প্রকাশিত  এমপিও নীতিমালা ২০২১ এর ধারা  ১১.৭ এর উপধারা  ঙ তে  উল্লেখ করা হয়েছে "বেসরকারি শিক্ষক- কর্মচারীদের মুল বেতন/বোনাসের নির্ধারিত অংশ /উৎসব ভাতার নির্ধারিত অংশ /বৈশাখী ভাতার নির্ধারিত অংশ সরকারের জাতীয় বেতন স্কেল -২০১৫/সরকারের সর্বশেষ জাতীয় বেতন স্কেলের সাথে অথবা সরকারের নির্দেশনার সাথে মিল রেখে করতে হবে"।


বেসরকারি এমপিওভুক্ত শিক্ষা প্রতিষ্ঠান পরিবর্তন সম্পর্কে প্রকাশিত নীতিমালার ধারা ১২.২ এ উল্লেখ করা হয়েছে "এনটিআরসিএ'র সুপারিশপ্রাপ্ত হয়ে নিয়োগপ্রাপ্ত এমপিওভুক্ত শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে কর্মরত শিক্ষক /প্রদর্শক/ প্রভাষকদের কোনো প্রতিষ্ঠানে পদ শুন্য থাকা সাপেক্ষে সমপদে ও সমস্কেলে প্রতিষ্ঠান পরিবর্তনের জন্য মন্ত্রনালয় নীতিমালা প্রণয়ন করে জনস্বার্থে আদেশ কারি করতে পারবে"। 

অভিনন্দন জানিয়ে লিখেছেন অনেকে 

শাহজাহান সাজুকে অভিনন্দন জানিয়েছেন কয়েকশত অধ্যক্ষ, উপাধ্যক্ষ, প্রধান শিক্ষক ও সাধারণ শিক্ষক। 

নিজেকে বাংলাদেশ শিক্ষক ইউনিয়নের সভাপতি পরিচয় দেয়া অবসরপ্রাপ্ত সহকারী প্রধান শিক্ষক আবুল বাশার হওলাদারও ৩০ মার্চ  সকালে একই কাজ করেন।    

অবসরপ্রাপ্ত সহকারি প্রধান শিক্ষক আবুল বাশার হাওলাদারের ফেসবুক থেকে নেয়া 

 

 

শতভাগ উৎসব ভাতা ও বদলির প্রকৃত খবর জানতে শুধু দৈনিক শিক্ষার লাইভ ও প্রতিবেদনে চোখ রাখুন। শতভাগ উৎসব ভাতা ও বদলি চালু  হয়েছে এমন কোনো খবর দৈনিক শিক্ষায় প্রকাশিত হয়নি। 

হেফাজত নেতা মামুনুল গ্রেফতার - dainik shiksha হেফাজত নেতা মামুনুল গ্রেফতার লকডাউন আরো এক সপ্তাহ বাড়তে পারে - dainik shiksha লকডাউন আরো এক সপ্তাহ বাড়তে পারে পিঠে অক্সিজেন সিলিন্ডার বেঁধে মোটরসাইকেলে শিক্ষিকা মাকে নিয়ে হাসপাতালে - dainik shiksha পিঠে অক্সিজেন সিলিন্ডার বেঁধে মোটরসাইকেলে শিক্ষিকা মাকে নিয়ে হাসপাতালে উপবৃত্তির টাকা হাতিয়ে নেয়া প্রতারক চক্রের বিরুদ্ধে অ্যাকশন শুরু - dainik shiksha উপবৃত্তির টাকা হাতিয়ে নেয়া প্রতারক চক্রের বিরুদ্ধে অ্যাকশন শুরু পাস কম তাই মাদরাসার এমপিও বন্ধ - dainik shiksha পাস কম তাই মাদরাসার এমপিও বন্ধ মিনা পাল থেকে যেভাবে ঢাকাই চলচ্চিত্রের 'মিষ্টি মেয়ে' - dainik shiksha মিনা পাল থেকে যেভাবে ঢাকাই চলচ্চিত্রের 'মিষ্টি মেয়ে' ইবতেদায়ি শিক্ষকদের তিন মাসের অনুদানের চেক ব্যাংকে - dainik shiksha ইবতেদায়ি শিক্ষকদের তিন মাসের অনুদানের চেক ব্যাংকে সেহরি ও ইফতারের সূচি - dainik shiksha সেহরি ও ইফতারের সূচি দৈনিক আমাদের বার্তায় শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞাপন দিন ৩০ শতাংশ ছাড়ে - dainik shiksha দৈনিক আমাদের বার্তায় শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞাপন দিন ৩০ শতাংশ ছাড়ে please click here to view dainikshiksha website