করোনা লক্ষণ নিয়ে চিকিৎসক আইসোলেশনে - বিবিধ - দৈনিকশিক্ষা

করোনা লক্ষণ নিয়ে চিকিৎসক আইসোলেশনে

বরগুনা প্রতিনিধি |

বরগুনার আমতলী উপজেলার কুকুয়া স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের এক চিকিৎসককে করোনা আক্রান্ত সন্দেহে বরগুনা জেনারেল হাসপাতালের আইসোলেশন ইউনিটে ভর্তি করা হয়েছে। সোমবার (৩০ মার্চ) বিকেলে জ্বর, সর্দি, কাশি নিয়ে ওই চিকিৎসককে সেখানে ভর্তি করা হয়। তিনি বরগুনা পৌর এলাকার বাসিন্দা।

করোনা ভাইরাসের উপসর্গ দেখা দেয়ায় ওই চিকিৎসক গত বৃহস্পতিবার থেকে হোম কোয়ারেন্টাইনে ছিলেন। হোম কোয়ারেন্টাইনে থাকা অবস্থায় করোনা ভাইরাসের উপসর্গ না কমে তার স্বাস্থ্যের অবনতি হয়। এজন্য স্বেচ্ছায় তিনি বরগুনা জেনারেল হাসপাতালের আইসোলেশনে ভর্তি হন। ভর্তির সঙ্গে সঙ্গেই হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ তার নমুনা সংগ্রহ করে। এরপর বরগুনা জেলা প্রশাসনের তত্ত্বাবধানে একটি গাড়িতে করে ঢাকার আইইডিসিআরে নমুনা পাঠানো হয়।

বরগুনার সিভিল সার্জন ডা. হুমায়ূন শাহীন খান বলেন, করোনা আক্রান্ত সন্দেহে এক চিকিৎসকে বরগুনা জেনারেল হাসপাতালের আইসোলেশনে ভর্তি করা হয়েছে।

এর আগে ১৮ মার্চ বরগুনা সদর উপজেলায় করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত সন্দেহে এক ভারতীয় ব্যক্তি হাসপাতালে ভর্তি ছিলেন। তার আগে ১৭ ফেব্রুয়ারি বরগুনা সদর উপজেলার চীন ফেরত এক শিক্ষার্থী জ্বর নিয়ে বরগুনা জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি হন। ওই শিক্ষার্থীর নমুনা সংগ্রহ করে ঢাকায় পাঠানোর পর পরীক্ষা শেষে রোগতত্ত্ব, রোগ নিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা প্রতিষ্ঠান জানায়, তিনি করোনা আক্রান্ত ছিলেন না।

এ বিষয়ে বরগুনার জেলা প্রশাসক মোস্তাইন বিল্লাহ বলেন, করোনা ভাইরাসের উপসর্গ দেখা দেয়ায় এক চিকিৎসকের নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে, এটা জানতে পেরে আমরা সেই নমুনা বিশেষ ব্যবস্থাপনায় ঢাকায় পাঠিয়েছি।

শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ছুটি ৩০ জানুয়ারি পর্যন্ত - dainik shiksha শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ছুটি ৩০ জানুয়ারি পর্যন্ত ওয়েটিং লিস্ট থেকে সরকারি স্কুলে ভর্তি শুরু ২১ জানুয়ারি - dainik shiksha ওয়েটিং লিস্ট থেকে সরকারি স্কুলে ভর্তি শুরু ২১ জানুয়ারি উপবৃত্তি : নগদের পোর্টালে শিক্ষার্থীদের তথ্য এন্ট্রি করতে পারেনি বেশিরভাগ স্কুল - dainik shiksha উপবৃত্তি : নগদের পোর্টালে শিক্ষার্থীদের তথ্য এন্ট্রি করতে পারেনি বেশিরভাগ স্কুল এমপিও কমিটির সভা রোববার - dainik shiksha এমপিও কমিটির সভা রোববার অসম্ভব দুর্নীতি সম্ভব করা সেই অধ্যক্ষকে বদলি, শাস্তি নিশ্চিত করার দাবি শিক্ষকদের - dainik shiksha অসম্ভব দুর্নীতি সম্ভব করা সেই অধ্যক্ষকে বদলি, শাস্তি নিশ্চিত করার দাবি শিক্ষকদের এসএসসিতে বৃত্তি পাওয়া শিক্ষার্থীদের তথ্য সফটওয়্যারে অন্তর্ভুক্তি সোমবারের মধ্যে - dainik shiksha এসএসসিতে বৃত্তি পাওয়া শিক্ষার্থীদের তথ্য সফটওয়্যারে অন্তর্ভুক্তি সোমবারের মধ্যে ২০ জানুয়ারির মধ্যে সরকারি স্কুলে লটারিতে চান্স পাওয়া শিক্ষার্থীদের ভর্তি - dainik shiksha ২০ জানুয়ারির মধ্যে সরকারি স্কুলে লটারিতে চান্স পাওয়া শিক্ষার্থীদের ভর্তি ২১ ফেব্রুয়ারির মধ্যে অ্যাডহক নিয়োগের দাবিতে সরকারিকৃত শিক্ষকদের স্মারকলিপি - dainik shiksha ২১ ফেব্রুয়ারির মধ্যে অ্যাডহক নিয়োগের দাবিতে সরকারিকৃত শিক্ষকদের স্মারকলিপি যেসব শিক্ষকের এমপিও জটিলতা কাটলো - dainik shiksha যেসব শিক্ষকের এমপিও জটিলতা কাটলো please click here to view dainikshiksha website