জবি থেকেই উপাচার্য-কোষাধ্যক্ষ নিয়োগ চায় শিক্ষক সমিতি - দৈনিকশিক্ষা

জবি থেকেই উপাচার্য-কোষাধ্যক্ষ নিয়োগ চায় শিক্ষক সমিতি

জবি প্রতিনিধি |

জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের কর্মরত অধ্যাপকদের মধ্যে থেকে উপাচার্য ও কোষাধ্যক্ষ নিয়োগের দাবি জানিয়েছে বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতি। বুধবার এ দাবি জানিয়ে শিক্ষামন্ত্রী দীপু মনি বরাবর স্মারকলিপি পাঠিয়েছেন সমিতির শিক্ষক নেতারা।

স্মারকলিপিতে বলা হয়, জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের সার্বিক উন্নয়ন ও স্থিতিশীলতার স্বার্থে বর্তমান উপাচার্য এবং ট্রেজারারের মেয়াদ শেষে বঙ্গবন্ধুর আদর্শে উজ্জীবিত জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ে কর্মরত অধ্যাপকদের মধ্য থেকে উপাচার্য এবং ট্রেজারার পদে নিয়োগ দেয়ার বিষয়ে শিক্ষকরা ঐক্যমত প্ৰকাশ করেছেন। শিক্ষক সমিতির সাধারণ সভায় সমিতির সদস্যরা দক্ষতা ও গ্রহণযোগ্যতা বিবেচনা সাপেক্ষে জবির যেকোনো একজন অধ্যাপককে এ দুই পদে নিয়োগ দেয়ার জন্য সরকারের দৃষ্টি আকর্ষণ করার ব্যাপারে মত দেন যা ইতোমধ্যে গত ২৭ সেপ্টেম্বর শিক্ষামন্ত্রীকে জানানো হয়েছে।

শিক্ষক নেতারা জানান, জবিতে বর্তমানে গ্রেড-১ পদে ৩৬ জন, গ্রেড-২ পদে ৪৬ জন এবং গ্রেড-৩ পদে ৭৪ জন মিলিয়ে সর্বমোট ১৫৬ জন অধ্যাপক আছেন। এর মধ্যে দুজন অধ্যাপককে পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ে উপাচার্য হিসেবে এবং দুজন অধ্যাপককে উপ-উপাচার্য হিসেবে নিয়োগ দেয়া হয়েছে। তারা সুনামের সঙ্গে কাজ করে যাচ্ছেন। এছাড়াও প্রাইভেট বিশ্বদ্যিালয়ের উপাচার্য ও উপ-উপাচার্য পদে এই বিশ্ববিদ্যালয়ের কয়েকজন অধ্যাপক বর্তমানে দায়িত্ব পালন করছেন। ফলে নিজ শিক্ষকদেরই যোগ্যতা আছে বলে মনে করেন তারা।

গতকাল মঙ্গলবার শিক্ষক সমিতির সাধরণ সভায় জবি নীলদলের দুপক্ষের এক যৌথ সর্বসম্মতিক্রমে এসব প্রস্তাবনা পাশ হলে এ স্মারকলিপি পাঠানো হয়। 

জানতে চাইলে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক সমিতির সভাপতি অধ্যাপক ড.আইনুল ইসলাম বলেন, বিশ্ববিদ্যালয়ের স্বার্থে শিক্ষকরা সবাই একমত হয়েছে। শিক্ষকরা তাদের দাবি জানিয়েছে।

যেসব চাকরির পরীক্ষা স্থগিত - dainik shiksha যেসব চাকরির পরীক্ষা স্থগিত কোটা আন্দোলনকারীদের সঙ্গে আলোচনায় বসছে সরকার - dainik shiksha কোটা আন্দোলনকারীদের সঙ্গে আলোচনায় বসছে সরকার উত্তরায় গুলিতে ২ শিক্ষার্থী নিহত - dainik shiksha উত্তরায় গুলিতে ২ শিক্ষার্থী নিহত ছাত্রলীগ আক্রমণ করেনি, গণমাধ্যমে ভুল শিরোনাম হয়েছে - dainik shiksha ছাত্রলীগ আক্রমণ করেনি, গণমাধ্যমে ভুল শিরোনাম হয়েছে সহিংসতার দায় নেবে না বৈষম্যবিরোধী ছাত্র আন্দোলন - dainik shiksha সহিংসতার দায় নেবে না বৈষম্যবিরোধী ছাত্র আন্দোলন জবিতে আজীবনের জন্য ছাত্র রাজনীতি বন্ধের আশ্বাস প্রশাসনের - dainik shiksha জবিতে আজীবনের জন্য ছাত্র রাজনীতি বন্ধের আশ্বাস প্রশাসনের মোবাইল ইন্টারনেট বন্ধের কারণ জানালেন পলক - dainik shiksha মোবাইল ইন্টারনেট বন্ধের কারণ জানালেন পলক দৈনিক শিক্ষার নামে একাধিক ভুয়া পেজ-গ্রুপ ফেসবুকে - dainik shiksha দৈনিক শিক্ষার নামে একাধিক ভুয়া পেজ-গ্রুপ ফেসবুকে কওমি মাদরাসা: একটি অসমাপ্ত প্রকাশনা গ্রন্থটি এখন বাজারে - dainik shiksha কওমি মাদরাসা: একটি অসমাপ্ত প্রকাশনা গ্রন্থটি এখন বাজারে please click here to view dainikshiksha website Execution time: 0.0049059391021729