জাবিতে আন্দোলন : ৩ দাবির দুটি মেনে নিলেন উপাচার্য - বিশ্ববিদ্যালয় - দৈনিকশিক্ষা

জাবিতে আন্দোলন : ৩ দাবির দুটি মেনে নিলেন উপাচার্য

জাবি প্রতিনিধি |
array(2) { [0]=> string(1007) "
" [1]=> string(1431) "
" }

জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে যে তিন দফা দাবিতে আন্দোলন চলছে, সেগুলোর মধ্যে দুটি দাবি উপাচার্য মেনে নিয়েছেন। আরেকটি দাবির বিষয়ে তিনি সময় চেয়েছেন। বৃহস্পতিবার (১২ সেপ্টেম্বর) আন্দোলনকারীদের সঙ্গে দীর্ঘ বৈঠকে এসব সিদ্ধান্ত হয়। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার রহিমা কানিজ।

আন্দোলনকারীদের তিন দফা দাবি হলো জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের অধিকতর উন্নয়ন প্রকল্পে দুর্নীতির অভিযোগের বিচার বিভাগীয় তদন্ত করতে হবে; উন্নয়ন মহাপরিকল্পনা পুনর্বিন্যাস করতে হবে এবং আবাসিক হল নির্মাণের স্থান পুনর্নির্ধারণ করতে হবে। এসব দাবিতে কয়েক দিন ধরে ক্যাম্পাসে আন্দোলন চালিয়ে আসছে শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের একটি অংশ। গতকাল বিকেলে এসব দাবির বিষয়ে আন্দোলনকারীদের সঙ্গে বৈঠকে বসেন জাবি উপাচার্য অধ্যাপক ড. ফারজানা ইসলাম। বিশ্ববিদ্যালয়ের নতুন প্রশাসনিক ভবনে প্রায় ছয় ঘণ্টা এই বৈঠক চলে।

বৈঠকে উপস্থিত কর্মকর্তা এবং আন্দোলনকারীদের প্রতিনিধিরা জানান, আবাসিক হল পুনর্নির্মাণের বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন বলেছে, বিশ্বকবি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর হলের পাশ থেকে দুটি হল স্থানান্তর করা হবে। তবে নতুন জায়গা কোথায় হবে, তা সব পক্ষের সঙ্গে আলোচনা করে সিদ্ধান্ত নেয়া হবে। বিচার বিভাগীয় তদন্তের বিষয়ে বিশেষজ্ঞদের পরামর্শ নিতে উপাচার্য তিন কার্যদিবস সময় চেয়েছেন। এরপর আগামী বুধবার এ নিয়ে একটি বৈঠক হবে। আর মহাপরিকল্পনা পুনর্বিন্যাসের দাবি পর্যালোচনা করে প্রয়োজনীয় সংশোধন করা হবে, তবে ‘রিভাইস’ করা হবে না।

এসএসসি-এইচএসসি পরীক্ষা দু’একমাস পেছাতে পারে - dainik shiksha এসএসসি-এইচএসসি পরীক্ষা দু’একমাস পেছাতে পারে প্রথম থেকে নবম শ্রেণি পর্যন্ত লটারির মাধ্যমে ভর্তি : শিক্ষামন্ত্রী - dainik shiksha প্রথম থেকে নবম শ্রেণি পর্যন্ত লটারির মাধ্যমে ভর্তি : শিক্ষামন্ত্রী এসএসসির ৭৫ শতাংশ ও জেএসসির ২৫ শতাংশে এইচএসসির ফল - dainik shiksha এসএসসির ৭৫ শতাংশ ও জেএসসির ২৫ শতাংশে এইচএসসির ফল অষ্টম শ্রেণি উত্তীর্ণদের সার্টিফিকেট দেবে শিক্ষাবোর্ডগুলোই - dainik shiksha অষ্টম শ্রেণি উত্তীর্ণদের সার্টিফিকেট দেবে শিক্ষাবোর্ডগুলোই অ্যাসাইনমেন্ট মূল্যায়নে শিক্ষকদের জন্য নতুন নির্দেশনা - dainik shiksha অ্যাসাইনমেন্ট মূল্যায়নে শিক্ষকদের জন্য নতুন নির্দেশনা নিজ প্রতিষ্ঠানের শিক্ষকরা প্রাথমিকের শিক্ষার্থীদের মূল্যায়ন করবেন - dainik shiksha নিজ প্রতিষ্ঠানের শিক্ষকরা প্রাথমিকের শিক্ষার্থীদের মূল্যায়ন করবেন জাল সনদধারী শিক্ষক শনাক্তকরণ শুরু - dainik shiksha জাল সনদধারী শিক্ষক শনাক্তকরণ শুরু মাদরাসায় জ্যেষ্ঠ প্রভাষকের পদ - dainik shiksha মাদরাসায় জ্যেষ্ঠ প্রভাষকের পদ এমপিওর অর্ধেক টাকা পাওয়ার শর্তে জাল সনদধারীকে নিয়োগ দিয়েছিলেন অধ্যক্ষ - dainik shiksha এমপিওর অর্ধেক টাকা পাওয়ার শর্তে জাল সনদধারীকে নিয়োগ দিয়েছিলেন অধ্যক্ষ please click here to view dainikshiksha website