ফাঁসিতে দণ্ডিতরা বিদেশে পালায় আর কারাগারে মরতে হয় মুশতাককে : মানবাধিকার সমিতি - সমিতি সংবাদ - দৈনিকশিক্ষা

ফাঁসিতে দণ্ডিতরা বিদেশে পালায় আর কারাগারে মরতে হয় মুশতাককে : মানবাধিকার সমিতি

নিজস্ব প্রতিবেদক |

ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের মামলায় গাজীপুরের কাশিমপুর হাই সিকিউরিটি কেন্দ্রীয় কারাগারে বন্দি লেখক মুসতাক আহমেদের মৃত্যু মানবাধিকার লঙ্ঘন বলে মন্তব্য করে বাংলাদেশ জাতীয় মানবাধিকার সমিতির নেতারা। তারা বলেছেন, ফাঁসির দণ্ডপ্রাপ্ত আসামিরা দেশ থেকে পালায়-জামিনে মুক্ত হয়, অথচ সামান্য লেখার জন্য, সমালোচনা করার জন্য লেখক মুশতাককে কারাগারে মরতে হয়।

শুক্রবার (২৬ ফেব্রুয়ারি) সমিতির পক্ষ থেকে পাঠানো এক সংবাদ বিবৃতিতে এসব মন্তব্য করা হয়। 
 
বিবৃতিতে সমিতির চেয়ারম্যান মো. মঞ্জুর হোসেন ঈসা, মহাসচিব এডভোকেট সাইফুল ইসলাম সেকুল ও সাংগঠনিক সম্পাদক লায়ন আল আমিন কারাগারে মুশতাকের মৃত্যুর জন্য দায়ীদের বিচার দাবি করেন। তারা বলেন, নিরাপত্তা আইন বাতিল করে অবিলম্বে সমস্ত লেখক, কলামিস্ট, ব্লগারসহ যাদেরকে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে আটক করা হয়েছে তাদের মুক্তি দিতে হবে।

নেতারা লেখক মুসতাকের মৃত্যুতে গভীর শোক ও দু:খ প্রকাশ এবং শোকসন্তপ্ত পরিবারের প্রতি সমবেদনা জ্ঞাপন করেন। তারা আরও বলেন, যে দেশে লিখে জেলখানায় মরতে হয়। চাপাতির কোপে মস্তক বিচ্ছিন্ন হয়। সে দেশে মানবাধিকার প্রশ্নবিদ্ধ হয়ে পড়ে।

নেতারা বলেন, ফাঁসির দণ্ডপ্রাপ্ত আসামিরা দেশ থেকে পালিয়ে যায়, তারা জামিনে মুক্ত হয়, অথচ সামান্য লেখার জন্য, কথা বলার জন্য, সমালোচনা করার জন্য লেখক মুশতাককে কারাগারে মরতে হয়। অসুস্থ থাকার পরও জামিন পায় না, সেখানে আইনের শাসন প্রশ্নবিদ্ধ।

হেফাজত নেতা মামুনুল গ্রেফতার - dainik shiksha হেফাজত নেতা মামুনুল গ্রেফতার লকডাউন আরো এক সপ্তাহ বাড়তে পারে - dainik shiksha লকডাউন আরো এক সপ্তাহ বাড়তে পারে পিঠে অক্সিজেন সিলিন্ডার বেঁধে মোটরসাইকেলে শিক্ষিকা মাকে নিয়ে হাসপাতালে - dainik shiksha পিঠে অক্সিজেন সিলিন্ডার বেঁধে মোটরসাইকেলে শিক্ষিকা মাকে নিয়ে হাসপাতালে উপবৃত্তির টাকা হাতিয়ে নেয়া প্রতারক চক্রের বিরুদ্ধে অ্যাকশন শুরু - dainik shiksha উপবৃত্তির টাকা হাতিয়ে নেয়া প্রতারক চক্রের বিরুদ্ধে অ্যাকশন শুরু পাস কম তাই মাদরাসার এমপিও বন্ধ - dainik shiksha পাস কম তাই মাদরাসার এমপিও বন্ধ মিনা পাল থেকে যেভাবে ঢাকাই চলচ্চিত্রের 'মিষ্টি মেয়ে' - dainik shiksha মিনা পাল থেকে যেভাবে ঢাকাই চলচ্চিত্রের 'মিষ্টি মেয়ে' ইবতেদায়ি শিক্ষকদের তিন মাসের অনুদানের চেক ব্যাংকে - dainik shiksha ইবতেদায়ি শিক্ষকদের তিন মাসের অনুদানের চেক ব্যাংকে সেহরি ও ইফতারের সূচি - dainik shiksha সেহরি ও ইফতারের সূচি দৈনিক আমাদের বার্তায় শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞাপন দিন ৩০ শতাংশ ছাড়ে - dainik shiksha দৈনিক আমাদের বার্তায় শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞাপন দিন ৩০ শতাংশ ছাড়ে please click here to view dainikshiksha website