মধ্যরাতে উপাচার্যের বাসভবন ঘেরাও করে শাবি ছাত্রীদের বিক্ষোভ - বিশ্ববিদ্যালয় - দৈনিকশিক্ষা

মধ্যরাতে উপাচার্যের বাসভবন ঘেরাও করে শাবি ছাত্রীদের বিক্ষোভ

শাবি প্রতিনিধি |

হল প্রভোস্টের পদত্যাগ, আবাসিক ছাত্রীহলের বিভিন্ন সমস্যা এবং বিভিন্ন দাবিতে উপাচার্যের বাসভবনের সামনে অবস্থান করছেন শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের বেগম সিরাজুন্নেসা চৌধুরী ছাত্রী হলের আবাসিক শিক্ষার্থীরা।

বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে ১১টা থেকে বিভিন্ন দাবিতে এ অবস্থান কর্মসূচি করছেন তারা।

এসময় শিক্ষার্থীরা হল প্রভোস্টদের পদত্যাগ, হল প্রভোস্টদের প্রকাশ্যে ক্ষমা চাওয়াসহ বিভিন্ন দাবিদাওয়া তুলে ধরেন।

এর আগে হল প্রভোস্টকে ফোন দিলে ‘বের হয়ে গেলে বের হয়ে যাও, কোথায় যাবা তোমরা? আমার ঠেকা পড়ে নাই’ বিভিন্ন দাবিতে আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের এমন মন্তব্য করেছেন বেগম সিরাজুন্নেসা চৌধুরী ছাত্রীহলের প্রভোস্ট সহযোগী অধ্যাপক জাফরিন আহমেদ। 

শিক্ষার্থীরা বলেন, আমরা বিভিন্ন দাবিতে হল প্রভোস্টকে ফোন দিলে তিনি বলেন 'বের হয়ে গেলে বের হয়ে যাও, কোথায় যাবা তোমরা? আমার ঠেকা পড়ে নাই।' শিক্ষার্থীরা বিষয়টি জরুরি উল্লেখ করলে তিনি বলেন, 'কিসের জরুরি? কেউ তো আর মারা যায় নাই'।  

শিক্ষার্থীরা বলেন, হল প্রভোস্টরা বিভিন্ন সময় শিক্ষার্থীদের সাথে খারাপ ব্যবহার করেন। হল প্রভোস্টরা শিক্ষার্থীদের প্রায় সময়ই বলেন 'আমরা শিক্ষার্থীদের দয়া করে থাকতে দিয়েছি এটাই বেশি'।

এর আগে বৃহস্পতিবার রাত আটটা থেকে বিভিন্ন দাবিতে সিরাজুন্নেসা চৌধুরী হলের শিক্ষার্থীরা একসাথে জড়ো হয়ে হল প্রভোস্টদের অবগত করেন। এরপর এতরাতে আসতে পারবোনা বলে তিনি শিক্ষার্থীদের এমন মন্তব্য করেন।

এ বিষয়ে হল প্রভোস্ট জাফরিন আহমেদ বলেন, এত রাতে হল প্রভোস্টরা আসতে পারছেন না। আমরা তাদের বলেছি তারা যেন হলে ফিরে যায়। আমরা তাদের সাথে সমস্যাগুলো নিয়ে বসবো।

ফাজিল পরীক্ষা স্থগিত - dainik shiksha ফাজিল পরীক্ষা স্থগিত মাস্ক ছাড়া বের হলেই জরিমানা করা হবে : জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী - dainik shiksha মাস্ক ছাড়া বের হলেই জরিমানা করা হবে : জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী উপবৃত্তির টাকা পাঠানো শুরু, দ্রুত তুলতে হবে শিক্ষার্থী-অভিভাবকদের - dainik shiksha উপবৃত্তির টাকা পাঠানো শুরু, দ্রুত তুলতে হবে শিক্ষার্থী-অভিভাবকদের মাদরাসায়ও অনলাইন ক্লাস, খোলা থাকবে অফিস - dainik shiksha মাদরাসায়ও অনলাইন ক্লাস, খোলা থাকবে অফিস কওমি মাদরাসাকে বোর্ডের অধীনে নিয়ে আসা প্রয়োজন : শিক্ষামন্ত্রী - dainik shiksha কওমি মাদরাসাকে বোর্ডের অধীনে নিয়ে আসা প্রয়োজন : শিক্ষামন্ত্রী ভিসির পদত্যাগের দাবি অযৌক্তিক, চাইলেই সরানো যায় না : শিক্ষা উপমন্ত্রী - dainik shiksha ভিসির পদত্যাগের দাবি অযৌক্তিক, চাইলেই সরানো যায় না : শিক্ষা উপমন্ত্রী উপবৃত্তির টাকা পাঠানো শুরু, দ্রুত তুলতে হবে শিক্ষার্থী-অভিভাবকদের - dainik shiksha উপবৃত্তির টাকা পাঠানো শুরু, দ্রুত তুলতে হবে শিক্ষার্থী-অভিভাবকদের please click here to view dainikshiksha website