মাদক মামলায় সাজা বই পড়া - বই - দৈনিকশিক্ষা

মাদক মামলায় সাজা বই পড়া

নিজস্ব প্রতিবেদক |

৩০ পিস ইয়াবার মামলায় এক আসামিকে বই পড়া, সিনেমা দেখা ও বৃক্ষ রোপণ করার সাজা দিয়েছেন ঢাকার একটি আদালত। বুধবার (১৭ ফেব্রুয়ারি) ঢাকার মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট বেগম মাহমুদা আক্তার মো. রাজিব হোসেন রাজু নামে এক আসামিকে এমন সাজা দেন।

সিএমএম আদালতের স্পেশাল পাবলিক প্রসিকিউটর আজাদ রহমান এ তথ্য জানান। তিনি বলেন, আদালত রায়ে রাজুকে মুক্তিযুদ্ধ ও নৈতিকতার ওপর ৪টি বই পড়া, মুক্তিযুদ্ধে ওপর নির্মিত একটি সিনেমা দেখা এবং ৫টি গাছ রোপণের আদেশ দিয়েছেন। গাছের মধ্যে দুটি বনজ ও তিনটি ফলজ।  

রায়ে আদালত বলেন, আসামিকে শাস্তির পরিবর্তে প্রবেশন অফিসারের তত্ত্বাবধায়নে এক বছরের জন্য প্রবেশন মঞ্জুর করা হলো। এই সময়ের মধ্যে আসামি একই ধরনের বা অন্য কোনো অপরাধ করবেন না। মাদক সেবন করবেন না, খারাপ সঙ্গীর সঙ্গে মিশবেন না। কোর্ট ও আইন প্রয়োগকারী সংস্থা তলব করলে যথাসময়ে উপস্থিত হবেন।

এই সময়ে তাকে মহান মুক্তিযুদ্ধে ওপর প্রকাশিত ‘একাত্তরের দিনগুলি’, ‘একাত্তরের চিঠি’ এবং নৈতিকতার ওপর প্রকাশিত ২টি বই পড়তে হবে। পাশাপাশি মুক্তিযুদ্ধের ওপর নির্মিত সিনেমা ‘আগুনের পরশমনি’ দেখতে হবে। একই সময়ে তিনি ২টি বনজ ও ৩টি ফলজ বৃক্ষ রোপণ করতে হবে।  

আসামি উল্লিখিত কোনো শর্ত ভঙ্গ করলে বা তার আচরণ সন্তোষজনক না হলে প্রবেশন বাতিল হবে এবং ৬ মাসের কারাদণ্ড হবে। তবে তার প্রবেশন সময় সন্তোষজনক হলে আসামির চাকরিসহ ভবিষ্যৎ জীবনে কোথাও অযোগ্য বলে গণ‌্য হবেন না।

রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী আজাদ রহমান বলেন, ঢাকার আদালতে এ ধরনের রায় আগে হয়েছে বলে আমার জানা নেই। বিচারের অন্যতম উদ্দেশ্য হলো অপরাধীকে সংশোধন করা। একজন ব্যক্তিকে বাইরে রেখেই যদি সংশোধন করা যায়, তাহলে কারাবন্দি রাখার প্রয়োজন নাই। নেই। এ রায় একটি দৃষ্টান্ত। আশা করছি মাদকাসক্ত যুবকরা এ রায় থেকে শিক্ষা নিয়ে সুপথে ফিরে আসবে। 

মামলার বিবরণীতে জানা যায়, ২০১৭ সালের ৬ নভেম্বর রাজুকে গেন্ডারিয়া থানাধীন এসকে দাস রোডস্থ নাজির হোসেনের বাড়ির সামনে থেকে ৩০ পিস ইয়াবাসহ আটক করা হয়। এ ঘটনায় পরদিন গেন্ডারিয়া থানার উপ পরিদর্শক (এসআই) মো. সাজ্জাদুজ্জামান মাদক আইনে রাজুর বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেন। তদন্ত শেষে ওই বছরের ২৭ নভেম্বর গেন্ডারিয়া থানার এসআই রাশেদুল আলম অভিযোগপত্র দাখিল করেন।

নাছির মাহমুদসহ ৬ জনের বিরুদ্ধে পরীমণির মামলা - dainik shiksha নাছির মাহমুদসহ ৬ জনের বিরুদ্ধে পরীমণির মামলা পরীক্ষা পেছাতে পারে পাঁচ-ছয় মাস তবু অটোপাস নয় : চেয়ারম্যান - dainik shiksha পরীক্ষা পেছাতে পারে পাঁচ-ছয় মাস তবু অটোপাস নয় : চেয়ারম্যান দৈনিক আমাদের বার্তায় শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞাপন দিন ৩০ শতাংশ ছাড়ে - dainik shiksha দৈনিক আমাদের বার্তায় শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞাপন দিন ৩০ শতাংশ ছাড়ে ডিজিটাল বিশ্ববিদ্যালয়ের ৮০ ভাগ শিক্ষার্থীই অনলাইনে পরীক্ষায় অনাগ্রহী - dainik shiksha ডিজিটাল বিশ্ববিদ্যালয়ের ৮০ ভাগ শিক্ষার্থীই অনলাইনে পরীক্ষায় অনাগ্রহী শিক্ষামন্ত্রীও এক বছর ছুটিতে গেলে দেশের কী ক্ষতি হবে, প্রশ্ন মিলনের - dainik shiksha শিক্ষামন্ত্রীও এক বছর ছুটিতে গেলে দেশের কী ক্ষতি হবে, প্রশ্ন মিলনের আগামী বছরের এইচএসসি পরীক্ষার্থীদের ১ম সপ্তাহের অ্যাসাইনমেন্ট প্রকাশ - dainik shiksha আগামী বছরের এইচএসসি পরীক্ষার্থীদের ১ম সপ্তাহের অ্যাসাইনমেন্ট প্রকাশ পরীমণিকে নির্যাতনকারী কে এই নাছির মাহমুদ? - dainik shiksha পরীমণিকে নির্যাতনকারী কে এই নাছির মাহমুদ? পরীক্ষা এক বছর না দিলে ক্ষতি হবে না : শিক্ষামন্ত্রী - dainik shiksha পরীক্ষা এক বছর না দিলে ক্ষতি হবে না : শিক্ষামন্ত্রী সব শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ছুটি ৩০ জুন পর্যন্ত - dainik shiksha সব শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ছুটি ৩০ জুন পর্যন্ত ৬ষ্ঠ-৯ম শ্রেণির শিক্ষার্থীদের ষষ্ঠ সপ্তাহের অ্যাসাইনমেন্ট প্রকাশ - dainik shiksha ৬ষ্ঠ-৯ম শ্রেণির শিক্ষার্থীদের ষষ্ঠ সপ্তাহের অ্যাসাইনমেন্ট প্রকাশ please click here to view dainikshiksha website