মৌখিক পরীক্ষায় অতিরিক্ত টাকা আদায় - কলেজ - দৈনিকশিক্ষা

মৌখিক পরীক্ষায় অতিরিক্ত টাকা আদায়

লোহাগড়া (নড়াইল) প্রতিনিধি |

নড়াইলের লোহাগড়া সরকারি আদর্শ মহাবিদ্যালয়ে বাংলা বিভাগের অনার্স চতুর্থ বর্ষের মৌখিক পরীক্ষা বাবদ পরীক্ষার্থীদের কাছ থেকে অতিরিক্ত টাকা আদায় করা হয়েছে। 

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক পরীক্ষার্থীরা জানান, লোহাগড়া সরকারি আদর্শ কলেজে বাংলা বিভাগের অনার্স চতুর্থ বর্ষের মৌখিক পরীক্ষায় এ বছর ৩২ জন পরীক্ষার্থী অংশগ্রহণ করেন। জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নিয়ম অনুযায়ী মৌখিক পরীক্ষা বাবদ নিয়মিত পরীক্ষার্থীদের কাছ থেকে ৭৫ এবং অনিয়মিতদের কাছ থেকে ১০০ টাকা নেওয়ার নির্দেশনা রয়েছে। কিন্তু এ নির্দেশনাকে উপেক্ষা করে বাংলা বিভাগের প্রধান প্রভাষক পীযূষ কান্তি রায়ের নির্দেশে প্রত্যেক পরীক্ষার্থীর কাছ থেকে ৩০০ টাকা করে আদায় করা হয়।

এ ঘটনা কেন্দ্র করে গত বৃহস্পতিবার অধ্যক্ষের কক্ষে মার্কেটিং বিভাগের প্রভাষক ইরাদত হোসেনের সঙ্গে প্রভাষক পীযূষ কান্তি রায়ের বাকবিতণ্ডার ঘটনা ঘটে। এ ব্যাপারে বাংলা বিভাগের প্রভাষক পীযূষ কান্তি রায় অতিরিক্ত অর্থ আদায়ের অভিযোগ স্বীকার করে বলেন, পরীক্ষকদের আপ্যায়ন, যাতায়াত ও সম্মানী হিসেবে এ অতিরিক্ত টাকা নেওয়া হয়েছে। শিক্ষার্থীদের অভিযোগ থাকলে তা ফেরত দেওয়া হবে।

এ ব্যাপারে শনিবার কলেজের অধ্যক্ষ অধ্যাপক মহাব্বত আলী বলেন, জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের নিয়ম অনুযায়ী নির্ধারিত টাকা নেওয়ার কথা বলা হলেও বাংলা বিভাগের প্রভাষক পীযূষ কান্তি রায় তা অমান্য করে অতিরিক্ত টাকা আদায় করেছেন। আগামী শিক্ষক কাউন্সিলের সভায় এ বিষয়ে সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হবে।

এসএসসি-এইচএসসি পরীক্ষা দু’একমাস পেছাতে পারে - dainik shiksha এসএসসি-এইচএসসি পরীক্ষা দু’একমাস পেছাতে পারে প্রথম থেকে নবম শ্রেণি পর্যন্ত লটারির মাধ্যমে ভর্তি : শিক্ষামন্ত্রী - dainik shiksha প্রথম থেকে নবম শ্রেণি পর্যন্ত লটারির মাধ্যমে ভর্তি : শিক্ষামন্ত্রী এসএসসির ৭৫ শতাংশ ও জেএসসির ২৫ শতাংশে এইচএসসির ফল - dainik shiksha এসএসসির ৭৫ শতাংশ ও জেএসসির ২৫ শতাংশে এইচএসসির ফল অষ্টম শ্রেণি উত্তীর্ণদের সার্টিফিকেট দেবে শিক্ষাবোর্ডগুলোই - dainik shiksha অষ্টম শ্রেণি উত্তীর্ণদের সার্টিফিকেট দেবে শিক্ষাবোর্ডগুলোই অ্যাসাইনমেন্ট মূল্যায়নে শিক্ষকদের জন্য নতুন নির্দেশনা - dainik shiksha অ্যাসাইনমেন্ট মূল্যায়নে শিক্ষকদের জন্য নতুন নির্দেশনা নিজ প্রতিষ্ঠানের শিক্ষকরা প্রাথমিকের শিক্ষার্থীদের মূল্যায়ন করবেন - dainik shiksha নিজ প্রতিষ্ঠানের শিক্ষকরা প্রাথমিকের শিক্ষার্থীদের মূল্যায়ন করবেন জাল সনদধারী শিক্ষক শনাক্তকরণ শুরু - dainik shiksha জাল সনদধারী শিক্ষক শনাক্তকরণ শুরু মাদরাসায় জ্যেষ্ঠ প্রভাষকের পদ - dainik shiksha মাদরাসায় জ্যেষ্ঠ প্রভাষকের পদ এমপিওর অর্ধেক টাকা পাওয়ার শর্তে জাল সনদধারীকে নিয়োগ দিয়েছিলেন অধ্যক্ষ - dainik shiksha এমপিওর অর্ধেক টাকা পাওয়ার শর্তে জাল সনদধারীকে নিয়োগ দিয়েছিলেন অধ্যক্ষ please click here to view dainikshiksha website