সনদের কপি না পাঠালে সুপারিশ পাবেন না আইসিটি শিক্ষক পদে আবেদনকারীরা - শিক্ষক নিবন্ধন - দৈনিকশিক্ষা

সনদের কপি না পাঠালে সুপারিশ পাবেন না আইসিটি শিক্ষক পদে আবেদনকারীরা

নিজস্ব প্রতিবেদক |

বিভিন্ন বেসরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ৫৪ হাজারের বেশি শিক্ষক পদে নিয়োগ সুপারিশের আবেদন গ্রহণ চলছে। তবে, যেসব প্রার্থী তথ্য  যোগাযোগ প্রযুক্তি বিষয়ের সহকারী শিক্ষক পদে আবেদন করেছেন তাদের শিক্ষক নিবন্ধন ও কম্পিউটার বিষয়ক সনদের স্ক্যান কপি পাঠাতে বলেছে এনটিআরসিএ। আগামী ৬ মের মধ্যে ইমেইলে আইসিটি শিক্ষক পদে আবেদনকারী প্রার্থীদের তথ্য ও সনদের স্ক্যান কপি পাঠাতে বলা হয়েছে। এনটিআরসিএর কর্মকর্তারা বলছেন, সনদের কপি না পাঠালে আইসিটি শিক্ষক পদে আবেদকারী প্রার্থীরা নিয়োগ সুপারিশ পাবেন। বুধবার (২৮ এপ্রিল) দৈনিক শিক্ষাডটকমের সাথে আলাপকালে এসব তথ্য জানিয়েছেন তারা।

আরও পড়ুন : দৈনিক আমাদের বার্তার ইউটিউব চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব ও ফেসবুক পেইজটি ফলো করুন

কেন সনদের কপি পাঠাতে বলা হলো জানতে চাইলে কর্মকর্তারা দৈনিক শিক্ষাডটকমকে বলেন, আগে ৬ মাসের ডিপ্লোমায় কম্পিউটার বিষয়ের শিক্ষক পদের জন্য নিবন্ধিত হওয়ার সুযোগ ছিল। কিন্তু নতুন নীতিমালায় শিক্ষাগত যোগ্যতা হিসেবে ৬ মাসের ডিপ্লোমায় আইসিটি বিষয়ের সহাকারী শিক্ষক নিয়োগের সুযোগ নেই। ২০১৮ খ্রিষ্টাব্দের নীতিমালা ও সর্বশেষ জারি হওয়া ২০২১ খ্রিষ্টাব্দে জারি হওয়া নীতিমালায় তাদের নিয়োগের সুযোগ রাখা হয়নি। তাদের সুপারিশ করা হলেও নতুন প্রতিষ্ঠানে এমপিওভুক্ত হতে পারবেন না। সুপারিশ পেলেও এমপিওভুক্ত না হতে পারলে এনটিআরসিএ দায় নেবে না। 

কর্মকর্তারা দৈনিক শিক্ষাডটকমকে আরও বলেন, আমরা অভিযোগ পেয়েছি গণবিজ্ঞপ্তিতে আবেদনগ্রহণের সময় অনেকে ৬মাসের ডিপ্লোমা দিয়ে অর্জিত সনদ দিয়ে তথ্য গোপন করে আবেদন করছেন। তাদের আবেদনও নিচ্ছে সার্ভার। গত নিয়োগেও (২য় চক্রে) অনেক প্রার্থী তথ্য গোপন করে আবেদন করেছিলেন। সব আবেদন প্রক্রিয়ার পরে সার্ভার তাদেরও সুপারিশ করে ফেলে। পরে যথাযথ শিক্ষাগত যোগ্যতা না থাকায় তারা যোগদান করতে পারেননি। সে দোষ এনটিআরসিএকে দিচ্ছিন।

দৈনিক শিক্ষা পরিবারের নতুন সদস্য ‘দৈনিক আমাদের বার্তা’

তারা দৈনিক শিক্ষাডটকমকে বলেন, সেরকমটা যেন আর না হয় তা নিশ্চিত করতেই সনদের কপি পাঠাতে বলা হয়েছে আইসিটি পদে আবেদনকারী প্রার্থীদের। তারা সনদ ৬ মে পর্যন্ত সনদ পাঠানোর সুযোগ পাবেন। আমরা তাদের তথ্য মিলিয়ে দেখবো যাতে গতবারের মত ৬ মাসের ডিপ্লোমা নিয়ে তথ্য গোপন করে আবেদন করা প্রার্থীরা সুপারিশ না পায়। তাই এ পদটিতে আবেদনকারী প্রার্থীদের নিবন্ধন ও শিক্ষা সনদের কপি পাঠাতে বলা হয়েছে আবেদনকারীদের। বিষয়টি জানিয়ে বিজ্ঞপ্তিও জারি করা হয়েছে। তবে, কোন প্রার্থী যদি সনদের কপি না পাঠায় সে সুপারিশ পাবেনা।  

গত ২৬ এপ্রিল এনটিআরসিএ থেকে এ বিষয়ে জারি করা বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, তৃতীয় গণবিজ্ঞপ্তিতে যেসব প্রার্থী সহকারী শিক্ষক (তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি) পদে আবেদন করেছেন বা করবেন তাদের নিবন্ধন পরীক্ষার উত্তীর্ণ সনদ এবং পরীক্ষায় আবেদনের সময় দাখিলকৃত কম্পিউটার বা আইসিটি বিষয়ক সনদের স্ক্যান কপি আবশ্যিকভাবে আগামী ৬মের মধ্যে ইমেইলে পাঠাতে অনুরোধ করা হলো। এছাড়া নির্ধারিত ছকে প্রার্থীদের তথ্য অন্তর্ভুক্ত করেও পাঠাতে বলা হয়েছে। শিক্ষক নিবন্ধন সনদ ও কম্পিউটার বা আইসিটি বিষয়ক সনদের সাথে ছকে প্রার্থীর রোল নম্বর, নাম, নিবন্ধন পরীক্ষায় পাসের বছর ও কম্পিউটার বা আইসিটি বিষয়ক ডিগ্রির নাম ও প্রতিষ্ঠানের নাম উল্লেখ করে ইমেইল পাঠাতে হবে প্রার্থীদের। 

[email protected] বা [email protected] ইমেইল ঠিকানার যেকোন একটিতে সনদের স্ক্যান কপি ও তথ্য ছক ৬ মের মধ্যে পাঠাতে হবে প্রার্থীদের। 

এনটিআরসিএ আরও বলছে, নির্ধারিত তারিখের মধ্যে সনদের স্ক্যান কপি বা ছকের তথ্য পাঠাতে ব্যর্থ হলে প্রার্থীদের সুপারিশ প্রসেস করা সম্ভব হবে না। 

শিক্ষার সব খবর সবার আগে জানতে দৈনিক শিক্ষার ইউটিউব চ্যানেলের সাথেই থাকুন। ভিডিওগুলো মিস করতে না চাইলে এখনই দৈনিক শিক্ষাডটকমের ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন এবং বেল বাটন ক্লিক করুন। বেল বাটন ক্লিক করার ফলে আপনার স্মার্ট ফোন বা কম্পিউটারে স্বয়ংক্রিয়ভাবে ভিডিওগুলোর নোটিফিকেশন পৌঁছে যাবে।

দৈনিক শিক্ষাডটকমের ইউটিউব চ্যানেল  SUBSCRIBE করতে ক্লিক করুন।

বিদেশি বিশ্ববিদ্যালয়ের শাখা ও স্টাডি সেন্টার বিদ্যমান আইনের সঙ্গে সাংঘর্ষিক - dainik shiksha বিদেশি বিশ্ববিদ্যালয়ের শাখা ও স্টাডি সেন্টার বিদ্যমান আইনের সঙ্গে সাংঘর্ষিক করোনার প্রভাবে শিক্ষক এখন কচু ব্যবসায়ী - dainik shiksha করোনার প্রভাবে শিক্ষক এখন কচু ব্যবসায়ী অনলাইন পরীক্ষা সুফল বয়ে আনবে না : উপাচার্য - dainik shiksha অনলাইন পরীক্ষা সুফল বয়ে আনবে না : উপাচার্য মিতু হত্যা : সাবেক এসপি বাবুল আক্তারকে প্রধান আসামি করে মামলা - dainik shiksha মিতু হত্যা : সাবেক এসপি বাবুল আক্তারকে প্রধান আসামি করে মামলা ঈদের আগে জামা-জুতার টাকা পেল না শিক্ষার্থীরা, উপবৃত্তি ৫০০ টাকায় উন্নীত করার সুপারিশ - dainik shiksha ঈদের আগে জামা-জুতার টাকা পেল না শিক্ষার্থীরা, উপবৃত্তি ৫০০ টাকায় উন্নীত করার সুপারিশ এমপিও কমিটির ভার্চুয়াল সভা ১৭ মে - dainik shiksha এমপিও কমিটির ভার্চুয়াল সভা ১৭ মে শিক্ষক পাবেন পাঁচ হাজার, কর্মচারী আড়াই হাজার টাকা করে - dainik shiksha শিক্ষক পাবেন পাঁচ হাজার, কর্মচারী আড়াই হাজার টাকা করে ২৫ শতাংশ পর্যন্ত শিক্ষার্থীর পড়াশোনা বন্ধ হয়ে গেছে - dainik shiksha ২৫ শতাংশ পর্যন্ত শিক্ষার্থীর পড়াশোনা বন্ধ হয়ে গেছে সেহরি ও ইফতারের সূচি - dainik shiksha সেহরি ও ইফতারের সূচি দৈনিক আমাদের বার্তায় শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞাপন দিন ৩০ শতাংশ ছাড়ে - dainik shiksha দৈনিক আমাদের বার্তায় শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞাপন দিন ৩০ শতাংশ ছাড়ে ‘কওমি মাদরাসায় জাতীয় চেতনা ও সংস্কৃতিবোধ উপেক্ষিত’ - dainik shiksha ‘কওমি মাদরাসায় জাতীয় চেতনা ও সংস্কৃতিবোধ উপেক্ষিত’ please click here to view dainikshiksha website