সরকারিকরণের দাবিতে বিটিএর মহাসমাবেশ কাল - দৈনিকশিক্ষা

সরকারিকরণের দাবিতে বিটিএর মহাসমাবেশ কাল

দৈনিকশিক্ষা প্রতিবেদক |

মাধ্যমিক শিক্ষা সরকারিকরণের দাবিতে আগামীকাল সোমবার মহাসমাবেশ করবে বাংলাদেশ শিক্ষক সমিতি (বিটিএ)। এদিন সকাল জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনে এ মহাসমাবেশ অনুষ্ঠিত হবে। রোববার বিটিএ নেতারা দৈনিক শিক্ষাডটকমকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। 

বিটিএর সাধারণ সম্পাদক শেখ কাওছার আহমেদ জানান, মাধ্যমিক শিক্ষা সরকারিকরণের দাবিতে আগামীকাল সোমবার সকাল ১১টায় জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনে মহাসমাবেশ অনুষ্ঠিত হবে।

মাধ্যমিক শিক্ষা সরকারিকরণের দাবিতে গত ১৪ মার্চ বেসরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে দুই ঘণ্টা কর্মবিরতি পালন করেন বিটিএ নেতারা। একই দাবিতে গত ১৩ মার্চ জাতীয় প্রেস ক্লাব ও সব জেলা সদরে মানববন্ধন করেছেন সংগঠনটির নেতারা। দাবি আদায়ে জেলা প্রশাসকদের মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে স্মারকলিপি দেয়া হয়েছে। 

বিটিএ নেতারা বলছেন, এমপিওভুক্ত শিক্ষকরা মাত্র ২৫ শতাংশ উৎসব ভাতা, ১ হাজার টাকা বাড়ি ভাড়া ও ৫০০ টাকা চিকিৎসা ভাতা পান। একই কারিকুলামে একই সিলেবাসে পাঠদান করিয়েও সরকারি ও বেসরকারি শিক্ষক-কর্মচারীদের বেতনে রয়েছে বিস্তর পার্থক্য। বেসরকারি শিক্ষক-কর্মচারীদের অবসরে যাওয়ার পর অবসর সুবিধা ও কল্যাণ ট্রাস্টের টাকা পেতে বছরের পর বছর অপেক্ষা করতে হয়। তাছাড়া বিগত কয়েক বছর যাবত অবসর সুবিধা ও কল্যাণ ট্রাস্ট খাতে শিক্ষক কর্মচারীদের বেতন থেকে অতিরিক্ত ৪ শতাংশ কেটে নেয়া হচ্ছে। এর প্রতিবাদে বিক্ষোভ মিছিল করা হলেও প্রতিকার পাওয়া যায়নি। বর্তমান সরকার স্মার্ট বাংলাদেশ গড়ে তোলার ঘোষণা দিয়েছেন। স্মার্ট বাংলাদেশ গড়তে হলে শিক্ষাকে অগ্রাধিকার দিতে হবে। শিক্ষাব্যবস্থা স্মার্ট করতে প্রয়োজন স্মার্ট শিক্ষক। তাই স্মার্ট শিক্ষক পেতে শিক্ষায় বিনিয়োগ বৃদ্ধিসহ মাধ্যমিক শিক্ষা সরকারিকরণের বিকল্প নেই। 

তারা আরো বলেন, ইউনেক্সো ও আইএলওর শিক্ষকদের মর্যাদা বিষয়ক সনদের সুপারিশ অনুযায়ী শিক্ষা খাতে বাজেটের ২০ শতাংশ বা জিডিপির ৬ শতাংশ বরাদ্দের কথা উল্লেখ থাকলেও ২০২২-২৩ অর্থবছরে জাতীয় বাজেটের ১১ দশমিক ৯২ শতাংশ বা জিডিপির ২ শতাংশের কম বরাদ্দ রাখায় শিক্ষক-কর্মচারীরা মর্মাহত ও ক্ষুব্ধ। তাই ২০২৩-২৪ অর্থবছরে শিক্ষা খাতে জাতীয় বাজেটের ২০ শতাংশ বা জিডিপির ৬ শতাংশ বরাদ্দ রাখার দাবি জানাচ্ছি।

তাপপ্রবাহে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলা রাখার বিষয়ে নতুন নির্দেশনা - dainik shiksha তাপপ্রবাহে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলা রাখার বিষয়ে নতুন নির্দেশনা জাল সনদেই সরকারকে হাইকোর্ট, নয় শিক্ষক অবশেষে ধরা - dainik shiksha জাল সনদেই সরকারকে হাইকোর্ট, নয় শিক্ষক অবশেষে ধরা মা*রা গেছেন ইরানের প্রেসিডেন্ট ইব্রাহিম রাইসি - dainik shiksha মা*রা গেছেন ইরানের প্রেসিডেন্ট ইব্রাহিম রাইসি ইরানের প্রেসিডেন্টের দায়িত্ব নেবেন মোখবার - dainik shiksha ইরানের প্রেসিডেন্টের দায়িত্ব নেবেন মোখবার এমপিওভুক্ত হচ্ছেন ৩ হাজার শিক্ষক - dainik shiksha এমপিওভুক্ত হচ্ছেন ৩ হাজার শিক্ষক কওমি মাদরাসা: একটি অসমাপ্ত প্রকাশনা গ্রন্থটি এখন বাজারে - dainik shiksha কওমি মাদরাসা: একটি অসমাপ্ত প্রকাশনা গ্রন্থটি এখন বাজারে এসএসসির খাতা চ্যালেঞ্জের আবেদন যেভাবে - dainik shiksha এসএসসির খাতা চ্যালেঞ্জের আবেদন যেভাবে দৈনিক শিক্ষার নামে একাধিক ভুয়া পেজ-গ্রুপ ফেসবুকে - dainik shiksha দৈনিক শিক্ষার নামে একাধিক ভুয়া পেজ-গ্রুপ ফেসবুকে please click here to view dainikshiksha website Execution time: 0.0045762062072754