সরকারিকৃত কলেজের এফডিআর থেকে ননএমপিও শিক্ষকদের বেতন দেয়ার নির্দেশ - কলেজ - দৈনিকশিক্ষা

সরকারিকৃত কলেজের এফডিআর থেকে ননএমপিও শিক্ষকদের বেতন দেয়ার নির্দেশ

নিজস্ব প্রতিবেদক |

সরকারিকৃত কলেজের ননএমপিও শিক্ষক-কর্মচারীদের বেতন-ভাতা কলেজের স্থায়ী-অস্থায়ী তহবিল থেকে দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছে সরকার। শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা বিভাগ থেকে গত ৯ মে ননএমপিও শিক্ষক-কর্মচারীদের বেতন দিতে সরকারিকৃত কলেজের এফডিআর নগদায়নের অনুমতি দেয়া হয়েছে। শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের দেয়া অনুমতি পত্রের নির্দেশনা অনুযায়ী এফডিআর নগদ করে ননএমপিও শিক্ষকদের বেতন দিতে সব সরকারিকৃত কলেজের অধ্যক্ষকে নির্দেশ দিয়েছে মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তর।

আরও পড়ুন : দৈনিক শিক্ষাডটকম পরিবারের প্রিন্ট পত্রিকা ‘দৈনিক আমাদের বার্তা’

গত রোববার (৬ জুন) মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তর থেকে এ নির্দেশনা সরকারিকৃত কলেজগুলোর অধ্যক্ষকে পাঠানো হয়েছে। মঙ্গলবার (৮ জুন) আদেশটি প্রকাশ করেছে শিক্ষা অধিদপ্তর।

করোনা মহামারির পরিস্থিতি অব্যাহত থাকায় শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ রয়েছে। এ সময় শিক্ষার্থীদের কাছে টিউশন ফি আদায় করা যাচ্ছে না বিধায়, নতুন সরকারি হওয়া কলেজগুলোর নন এমপিও শিক্ষক-কর্মচারীদের বেতন পরিশোধ করা সম্ভব হচ্ছে না। কিছু প্রতিষ্ঠানের অধ্যক্ষ পর্যাপ্ত তহবিল না থাকার কারণে এফডিআর নগদয়ান করে ননএমপিও শিক্ষক কর্মচারীদের বেতন দিতে আবেদন করেন। মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তর কলেজের তহবিল থেকে বা জরুরি প্রয়োজনে এফডিআর নগদ করা অনুমতি দিতে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা বিভাগকে অনুরোধ করেন। 

সে পরিপ্রেক্ষিতে গত ৯মে নতুন সরকারিকৃত কলেজের ননএমপিও শিক্ষক কর্মচারীদের বেতন সাধারণ তহবিল থেকে দিতে এবং প্রয়োজনে কলেজের এফডিআর নগদ করার অনুমতি দেয় শিক্ষা মন্ত্রণালয়।

 

দৈনিক আমাদের বার্তার ইউটিউব চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব ও ফেসবুক পেইজটি ফলো করুন

তবে, মন্ত্রণালয় থেকে সাধারণ তহবিল ও এফডিআর নগদ করে ননএমপিও শিক্ষক কর্মচারীদের বেতন দিতে ৪টি শর্ত দেয়া হয়েছিল। মন্ত্রণালয়ের চারটি শর্তের মধ্যে ছিল, সরকারি হওয়া কলেজগুলোর সাধারণ তহবিল থেকে এ বাবদ অর্থ প্রদানের ব্যবস্থা গ্রহণ করতে হবে। যদি সাধারণ তহবিলে অর্থ সংকুলান না হয় তবেই কেবল এফডিআর নগদ করে অর্থ তোলা যাবে।

যেসব ননএমপিও শিক্ষক-কর্মচারীরা বর্তমানে কলেজ থেকে তহবিল স্বল্পতার কারণে বেতন পাচ্ছেন না, তাদেরকে বিগত ২০২০ খ্রিষ্টাব্দের এপ্রিল ও মে মাসের পরিবর্তে ২০২০ খ্রিষ্টাব্দের জুন থেকে নভেম্বর মোট ছয় মাসের শুধু মূল বেতন দেওয়ার জন্য নগদায়নকৃত অর্থ ব্যবহার করা যাবে।

নিয়োগ নিষেধাজ্ঞা জারির অনতিপূর্বে গৃহীত কলেজ গভর্নিং বডির সিদ্ধান্ত অনুযায়ী শিক্ষক-কর্মচারীদের মূল বেতন নির্ধারিত হবে।

প্রাপ্যতার অধিক অর্থ উত্তোলন করা হলে সে ক্ষেত্রে ভবিষ্যতে শিক্ষক-কর্মচারীদের চূড়ান্ত সরকারিকরণ প্রক্রিয়া সম্পন্ন হলে প্রদত্ত অর্থ সমন্বয় করতে হবে। এ জন্য কলেজ কর্তৃপক্ষকে একটি লিখিত আন্ডারটেকিং প্রদান করবে।

অধিদপ্তর সূত্র দৈনিক শিক্ষাডটকমকে জানায়, গত ৯ মে মন্ত্রণালয় থেকে জারি করা সরকারিকৃত কলেজের ননএমপিও শিক্ষক কর্মচারীদের বেতন সাধারণ তহবিল থেকে দিতে এবং প্রয়োজনে কলেজের এফডিআর নগদ করার অনুমতি পত্রটি সব সরকারিকৃত কলেজের অধ্যক্ষকে পাঠানো হয়েছে। গত ৬ জুন তা পাঠিয়ে অধ্যক্ষদের মন্ত্রণালয়ের নির্দেশনা অনুযায়ী সাধারণ তহবিল থেকে প্রয়োজনে এফডিআর ভাঙিয়ে সরকারিকৃত কলেজের ননএমপিও শিক্ষক কর্মচারীদের বেতন দিতে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে বলা হয়েছে। 

শিক্ষার সব খবর সবার আগে জানতে দৈনিক শিক্ষার ইউটিউব চ্যানেলের সাথেই থাকুন। ভিডিওগুলো মিস করতে না চাইলে এখনই দৈনিক শিক্ষাডটকমের ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন এবং বেল বাটন ক্লিক করুন। বেল বাটন ক্লিক করার ফলে আপনার স্মার্ট ফোন বা কম্পিউটারে সয়ংক্রিয়ভাবে ভিডিওগুলোর নোটিফিকেশন পৌঁছে যাবে।

দৈনিক শিক্ষাডটকমের ইউটিউব চ্যানেল     SUBSCRIBE  করতে ক্লিক করুন।

সব শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ছুটি ৩০ জুন পর্যন্ত - dainik shiksha সব শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ছুটি ৩০ জুন পর্যন্ত ২০ বিশ্ববিদ্যালয়ের গুচ্ছ ভর্তি পরীক্ষা স্থগিত - dainik shiksha ২০ বিশ্ববিদ্যালয়ের গুচ্ছ ভর্তি পরীক্ষা স্থগিত লকডাউন বাড়লে পেছাতে পারে বুয়েটের ভর্তি পরীক্ষা - dainik shiksha লকডাউন বাড়লে পেছাতে পারে বুয়েটের ভর্তি পরীক্ষা দৈনিক আমাদের বার্তায় শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞাপন দিন ৩০ শতাংশ ছাড়ে - dainik shiksha দৈনিক আমাদের বার্তায় শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞাপন দিন ৩০ শতাংশ ছাড়ে ৬ষ্ঠ-৯ম শ্রেণির শিক্ষার্থীদের ষষ্ঠ সপ্তাহের অ্যাসাইনমেন্ট প্রকাশ - dainik shiksha ৬ষ্ঠ-৯ম শ্রেণির শিক্ষার্থীদের ষষ্ঠ সপ্তাহের অ্যাসাইনমেন্ট প্রকাশ সেই রায়ের ওপর স্থগিতাদেশ পেলেই অর্ধলক্ষাধিক শিক্ষক পদে নিয়োগ সুপারিশ - dainik shiksha সেই রায়ের ওপর স্থগিতাদেশ পেলেই অর্ধলক্ষাধিক শিক্ষক পদে নিয়োগ সুপারিশ এসএসসি-এইচএসসি পরীক্ষা ও শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খোলা নিয়ে যা ভাবছে শিক্ষা প্রশাসন - dainik shiksha এসএসসি-এইচএসসি পরীক্ষা ও শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খোলা নিয়ে যা ভাবছে শিক্ষা প্রশাসন অনলাইনে পাবলিক পরীক্ষা নেয়া ‘অসম্ভব’ - dainik shiksha অনলাইনে পাবলিক পরীক্ষা নেয়া ‘অসম্ভব’ তিন ম্যাচ নিষিদ্ধ সাকিব, জরিমানা ৫ লাখ টাকা - dainik shiksha তিন ম্যাচ নিষিদ্ধ সাকিব, জরিমানা ৫ লাখ টাকা করোনার চেয়ে নির্বাচন বেশি গুরুত্বপূর্ণ : সিইসি - dainik shiksha করোনার চেয়ে নির্বাচন বেশি গুরুত্বপূর্ণ : সিইসি please click here to view dainikshiksha website