সিকৃবি শিক্ষক সমিতি নির্বাচনে আওয়ামীপন্থীদের জয় - বিশ্ববিদ্যালয় - দৈনিকশিক্ষা

সিকৃবি শিক্ষক সমিতি নির্বাচনে আওয়ামীপন্থীদের জয়

সিকৃবি প্রতিনিধি |

সিলেট কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতির কার্যনির্বাহী কমিটির নির্বাচনে আওয়ামীপন্থী শিক্ষকদের সংগঠন গণতান্ত্রিক শিক্ষক পরিষদ মনোনীত প্যানেলের জয় হয়েছে। সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকসহ মোট ১১ টি পদেই পূর্ণ প্যানেলের জয় পেয়েছেন আওয়ামীপন্থী শিক্ষকরা।

বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় অডিটরিয়ামে বুধবার সকাল ১০ টা থেকে বিকাল ৩ টা পর্যন্ত ভোট গ্রহণ শেষে বিকাল ৫ টায় ফল ঘোষণা করেন প্রধান নির্বাচন কমিশনার অধ্যাপক ড. স্নেহাংশু চন্দ্র শেখর। সকাল ১১ টায় নির্বাচনের কেন্দ্র পরিদর্শন বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ডা. মো. জামাল উদ্দিন ভূঞা। আওয়ামীপন্থী শিক্ষকদের সংগঠন গণতান্ত্রিক শিক্ষক পরিষদ মনোনীত ও বিএনপিপন্থী শিক্ষকদের সংগঠন সাদা দল মনোনীত দুটি প্যানেলর অংশগ্রহণে ১১ পদের বিপরীতে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়।

সর্বোচ্চ ১৫৬ ভোট পেয়ে সভাপতি নির্বাচিত হয়েছেন কৃষি অর্থসংস্থান ও ব্যাংকিং বিভাগের অধ্যাপক ড. মো. শাহ আলমগীর। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী বিএনপিপন্থী সাদা দল মনোনীত প্যানেলের সভাপতি প্রার্থী মেডিসিন বিভাগের অধ্যাপক ড. মো. মুক্তার হোসেন পেয়েছেন ২৮ ভোট।

সাধারণ সম্পাদক পদে ১৪১ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন আওয়ামীপন্থী গণতান্ত্রিক শিক্ষক পরিষদ মনোনীত প্যানেলের প্রার্থী প্রাণী পুষ্টি বিভাগের অধ্যাপক ড. মো. সাদ উদ্দিন মাহফুজ। তার নিকটতম বিএনপিপন্থী সাদা দলের প্যানেল থেকে সাধারণ সম্পাদক প্রার্থী কৃষি সম্প্রসারণ শিক্ষা বিভাগের অধ্যাপক ড. মো. রুহুল আমিন পেয়েছেন ৩৭ ভোট।

এছাড়া ১৩৫ ভোট পেয়ে সহ-সভাপতি পদে কৃষি পরিসংখ্যান বিভাগের অধ্যাপক ড. মাসুদ আলম, ১৪৮ ভোট পেয়ে কোষাধ্যক্ষ পদে ফার্মাকোলজি ও টক্সিকোলজি বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক ডা. মু. আক্তারুজ্জামান, ১২৩ ভোট পেয়ে যুগ্ম সম্পাদক পদে কৌলিতত্ত্ব ও উদ্ভিদ প্রজনন বিভাগের সহকারী অধ্যাপক কিশোর কুমার সরকার, ও সদস্য পদে ১৪৩ ভোট পেয়ে সেচ ও পানি ব্যবস্থাপনা বিভাগের অধ্যাপক ড. পীযুষ কান্তি সরকার, ১৪১ ভোট পেয়ে মৎস্য স্বাস্থ্য ব্যবস্থাপনা বিভাগের অধ্যাপক ড. এম এম মাহবুব আলম, ১৩৯ ভোট পেয়ে মাৎস্যচাষ বিভাগের অধ্যাপক ড. মোঃ সাখায়াত হোসেন, ১২৬ ভোট পেয়ে এপিডেমিওলজি ও পাবলিক হেলথ বিভাগের অধ্যাপক ড. সুমন পাল, ১২৪ ভোট পেয়ে প্ল্যান্ট ও এনভায়রনমেন্টাল বায়োটেকনোলজি বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক ড. সোনিয়া বিনতে শহীদ, ১১৮ ভোট পেয়ে কম্পিউটার বিজ্ঞান ও প্রকৌশল বিভাগের সহকারী অধ্যাপক মোঃ খালিদ হোসেন নির্বাচিত হয়েছেন।

নির্বাচিত সভাপতি অধ্যাপক ড. মো. শাহ আলমগীর বলেন, সবাই মিলে বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসকে একটি সুন্দর ও আদর্শ ছাত্র ও শিক্ষক বান্ধব ক্যাম্পাসে পরিণত করতে  দৃঢ় চিত্তে এগিয়ে যাবো এবং মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার স্মার্ট বাংলাদেশ বিনির্মানে অগ্রণী ভূমিকা পালন করবো।

নির্বাচিত সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক ড. মো. সাদ উদ্দিন মাহফুজ বলেন, শিক্ষার কার্যক্রম ও গবেষণাকে আরও যুগোপযোগী করে তুলবো। বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনকে সঙ্গে নিয়ে আমরা শিক্ষার্থী ও শিক্ষকদের প্রয়োজনে কাজ করে যাবো।

দৈনিক শিক্ষাডটকম-এর যুগপূর্তির ম্যাগাজিনে লেখা আহ্বান - dainik shiksha দৈনিক শিক্ষাডটকম-এর যুগপূর্তির ম্যাগাজিনে লেখা আহ্বান ৫০ প্রতিষ্ঠানের কেউ পাস করেনি - dainik shiksha ৫০ প্রতিষ্ঠানের কেউ পাস করেনি ১ হাজার ৩৩০ প্রতিষ্ঠানে সবাই পাস - dainik shiksha ১ হাজার ৩৩০ প্রতিষ্ঠানে সবাই পাস পৌনে দুই লাখ জিপিএ-৫ - dainik shiksha পৌনে দুই লাখ জিপিএ-৫ এইচএসসির ফল পুনঃনিরীক্ষার আবেদন যেভাবে - dainik shiksha এইচএসসির ফল পুনঃনিরীক্ষার আবেদন যেভাবে এইচএসসি বিএম-ভোকেশনালে পাসের হার ৯৪ শতাংশের বেশি, ৭ হাজার ১০৪ জিপিএ-৫ - dainik shiksha এইচএসসি বিএম-ভোকেশনালে পাসের হার ৯৪ শতাংশের বেশি, ৭ হাজার ১০৪ জিপিএ-৫ আলিমে পাসের হার ৯২ শতাংশের বেশি, সাড়ে ৯ হাজার জিপিএ-৫ - dainik shiksha আলিমে পাসের হার ৯২ শতাংশের বেশি, সাড়ে ৯ হাজার জিপিএ-৫ শুধু এইচএসসিতে পাসের হার ৮৪ দশমিক ৩১ শতাংশ - dainik shiksha শুধু এইচএসসিতে পাসের হার ৮৪ দশমিক ৩১ শতাংশ please click here to view dainikshiksha website Execution time: 0.012261152267456