১৫ শিক্ষার্থী হলেও উপবৃত্তি পায় ২৩ জন - দৈনিকশিক্ষা

১৫ শিক্ষার্থী হলেও উপবৃত্তি পায় ২৩ জন

নীলফামারী প্রতিনিধি |

নীলফামারীর ডোমারে একটি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে পঞ্চম শ্রেণিতে শিক্ষার্থীর সংখ্যা ১৫ জন। কিন্তু সেখানে উপবৃত্তি পায় ২৩ জন! ভুয়া আট শিক্ষার্থীর নাম দিয়ে উপবৃত্তির টাকা ভাগ করে নেয়ার অভিযোগ উঠেছে বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষকের বিরুদ্ধে।

জানা গেছে, ডোমার উপজেলার বোড়াগাড়ী ইউনিয়নে অবস্থিত নয়ানী বাগডোকরা শিমুলতলী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়।  বিদ্যালয়টির প্রধান শিক্ষক আব্দুল মান্নান ঘটনাটি ধামাচাপা দিতে রাতারাতি ১৫ জন শিক্ষার্থীর হাজিরা খাতাটি পরিবর্তন করে ২৩ জন শিক্ষার্থীর নাম লিপিবদ্ধ করে নতুন হাজিরা খাতা তৈরি করেন।

শিক্ষার্থীদের উপবৃত্তি ও স্লিপের টাকা আত্মসাৎ করার অভিযোগ এনে প্রধান শিক্ষকের বিরুদ্ধে উপজেলা শিক্ষা কমিটির সভাপতি ও উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান তোফায়েল আহমেদের কাছে লিখিত অভিযোগ করেছেন বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটির সদস্য ও অভিভাবকরা।  

ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি সুশীল রায় বলেন, বিদ্যালয়ের অনেক শিক্ষার্থী উপবৃত্তির টাকা পায় না। অথচ অন্য বিদ্যালয়ে পড়াশোনা করে, এমন শিক্ষার্থীও উপবৃত্তি পায়। বিদ্যালয়ের জন্য বরাদ্দের স্লিপের টাকার নিয়ম অনুযায়ী খরচ করে না। আমরা জানতে চাইলে সঠিক কিছু বলেন না প্রধান শিক্ষক।

এ ব্যাপারে প্রধান শিক্ষক আব্দুল মান্নানের কাছে জানতে চাইলে তিনি ক্ষিপ্ত হয়ে উঠে বলেন, ‘কোনো কিছু জানার থাকলে শিক্ষা অফিস থেকে লিখিত অনুমতি নিয়ে আসবেন। তারপর জানাব। ’  

ডোমার উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তা নজরুল ইসলাম বলেন, অভিযোগের বিষয়টি তদন্ত করে সত্যতা পাওয়া গেলে বিভাগীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে। 

উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান তোফায়েল আহমেদ লিখিত অভিযোগ পাওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, তদন্ত চলছে। প্রতিবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

কওমি মাদরাসা নিয়ে সিদ্দিকুর রহমান খানের অনবদ্য গ্রন্থ - dainik shiksha কওমি মাদরাসা নিয়ে সিদ্দিকুর রহমান খানের অনবদ্য গ্রন্থ ভিকারুননিসার শিক্ষক মুরাদকে ৭ দিনের রিমান্ডে চায় পুলিশ - dainik shiksha ভিকারুননিসার শিক্ষক মুরাদকে ৭ দিনের রিমান্ডে চায় পুলিশ ২০২৬ থেকে পূর্ণ সিলেবাসে এইচএসসি পরীক্ষা - dainik shiksha ২০২৬ থেকে পূর্ণ সিলেবাসে এইচএসসি পরীক্ষা পাঠ্যবই ছাপতে আগ্রহী অধিদপ্তর, বিপদের শঙ্কায় এনসিটিবি - dainik shiksha পাঠ্যবই ছাপতে আগ্রহী অধিদপ্তর, বিপদের শঙ্কায় এনসিটিবি শিক্ষার্থীদের সঙ্গে মদপান, দুই শিক্ষক বরখাস্ত - dainik shiksha শিক্ষার্থীদের সঙ্গে মদপান, দুই শিক্ষক বরখাস্ত মাধ্যমিকে বয়ঃসন্ধিকাল ও পিয়ার মেন্টরিং - dainik shiksha মাধ্যমিকে বয়ঃসন্ধিকাল ও পিয়ার মেন্টরিং পাঁচ হাজার টাকা সহায়তা পাবেন শিক্ষার্থীরা, আবেদন বৃহস্পতিবার পর্যন্ত - dainik shiksha পাঁচ হাজার টাকা সহায়তা পাবেন শিক্ষার্থীরা, আবেদন বৃহস্পতিবার পর্যন্ত অনুদান পেতে শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের আবেদন বৃহস্পতিবার পর্যন্ত, টাকা যাবে নগদে - dainik shiksha অনুদান পেতে শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের আবেদন বৃহস্পতিবার পর্যন্ত, টাকা যাবে নগদে দৈনিক শিক্ষাডটকমের ফেসবুক পেজ দেখুন - dainik shiksha দৈনিক শিক্ষাডটকমের ফেসবুক পেজ দেখুন please click here to view dainikshiksha website Execution time: 0.0034151077270508