‘রোজা রেখে নামাজ পড়ে দোয়া করেন যেন এই কঠিন সময় দ্রুত শেষ হয়’ - খেলাধুলা - দৈনিকশিক্ষা

‘রোজা রেখে নামাজ পড়ে দোয়া করেন যেন এই কঠিন সময় দ্রুত শেষ হয়’

নিজস্ব প্রতিবেদক |

করোনা থেকে দেশের মানুষকে বাঁচাতে দিনরাত লড়ে যাচ্ছেন স্বাস্থ্যসেবা-পরিচ্ছনতাকর্মী, পুলিশ, সাংবাদিক ও স্বেচ্ছাসেবীরা। প্রাণঘাতী এ ভাইরাসের বিরুদ্ধে দিন-রাত এক করে লড়ছেন তারা। তাদের এই ত্যাগ ও দায়িত্বশীলতাকে সাধুবাদ জানিয়েছেন জাতীয় ক্রিকেট দলের উইকেটরক্ষক-ব্যাটসম্যান মুশফিকুর রহিম। এ ত্যাগের পুরস্কার তারা নিশ্চিত পাবেন এমন বিশ্বাস মুশফিকের। তিনি দেশবাসীকে এই কঠিন সময় দ্রুত অতিক্রম করার জন্য রোজা রেখে নামাজ পড়ে দোয়া করার আহ্বান জানান।

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে নিজের ভেরিফায়েড পেজে মঙ্গলবার এক ভিডিওবার্তায় মুশফিক বলেন, আসসালামুল আলাইকুম। আপনারা জানেন, সারাবিশ্ব এখন করোনা ভাইরাসের বিরুদ্ধে যুদ্ধ করছে। আমাদের দেশও এর ব্যতিক্রম নয়। আমি সব আইনশৃঙ্খলা বাহিনী, বিশেষ করে পুলিশ, সেনা, র‌্যাব এবং আমাদের চিকিৎসক, নার্স, পরিচ্ছন্নতাকর্মী, যারা প্রত্যক্ষভাবে এ ভাইরাসের বিরুদ্ধে লড়ছেন, যেন আমরা-আপনারা নিরাপদে থাকতে পারি, তাদের অন্তরের অন্তস্থল থেকে সালাম ও অসংখ্য ধন্যবাদ জানাচ্ছি।

তিনি বলেন, আমি নিশ্চিত, মহান আল্লাহতায়ালা তাদের এ ত্যাগ দেখছেন এবং এর পুরস্কার ইনশাল্লাহ আপনারা অবশ্যই পাবেন। আমি ব্যক্তিগতভাবে চেষ্টা করছি সবাইকে সাহায্য করতে। এ দিনে সবাইকে আহ্বান করছি, যে যেভাবে পারেন সবাই সহযোগিতা করুন। মনে রাখবেন, আপনি ও আপনার পরিবারের শুধু ভালো থাকলে চলবে না। আপনার আশপাশের তথা পুরো দেশের মানুষ যেন ভালো থাকতে পারেন, তারা যেন সুস্থ থাকতে পারেন, যেন খাবারের অভাবে দিন পার না করতে হয়, সেটি দেখার দায়িত্ব আমার, আপনার সবার।

মুশির আহ্বান, আসুন আমরা সবাই ঘরে থাকি। কিন্তু যেভাবেই পারি আমরা সাহায্য করার চেষ্টা করি। একমাত্র আমাদের সবার প্রচেষ্টাই পারে এ কঠিন মূহূর্তটাকে তাড়াতাড়ি প্রতিরোধ করতে। এমনকি কারও যদি সামর্থ্য না হয়, তারা নামাজ পড়ে, রোজা রেখে আল্লাহর দরবারে দোয়া করেন, যেন এ কঠিন সময়টা আল্লাহ আমাদের তাড়াতাড়ি পার করতে সাহায্য করেন।

শিগগিরই লকডাউন শিথিলের সিদ্ধান্ত - dainik shiksha শিগগিরই লকডাউন শিথিলের সিদ্ধান্ত স্কুলশিক্ষার্থীদের অ্যাসাইনমেন্ট কার্যক্রম অনির্দিষ্টকালের জন্য স্থগিত - dainik shiksha স্কুলশিক্ষার্থীদের অ্যাসাইনমেন্ট কার্যক্রম অনির্দিষ্টকালের জন্য স্থগিত পরশু থেকে দোকান ও শপিংমল খোলা - dainik shiksha পরশু থেকে দোকান ও শপিংমল খোলা সব মাদরাসার ইমেইল-প্রধানদের টেলিফোন নম্বর পাঠানোর নির্দেশ - dainik shiksha সব মাদরাসার ইমেইল-প্রধানদের টেলিফোন নম্বর পাঠানোর নির্দেশ সুস্থ হয়ে ছেলের মোটরসাইকেলেই বাড়ি গেলেন সেই শিক্ষিকা - dainik shiksha সুস্থ হয়ে ছেলের মোটরসাইকেলেই বাড়ি গেলেন সেই শিক্ষিকা দৈনিক আমাদের বার্তায় শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞাপন দিন ৩০ শতাংশ ছাড়ে - dainik shiksha দৈনিক আমাদের বার্তায় শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞাপন দিন ৩০ শতাংশ ছাড়ে সেহরি ও ইফতারের সূচি - dainik shiksha সেহরি ও ইফতারের সূচি ৫৪ হাজার শিক্ষক পদ, ৪১ লাখ আবেদন - dainik shiksha ৫৪ হাজার শিক্ষক পদ, ৪১ লাখ আবেদন লকডাউনে মানতে হবে যে সব বিধি-নিষেধ - dainik shiksha লকডাউনে মানতে হবে যে সব বিধি-নিষেধ চুয়েট-কুয়েট-রুয়েটের সমন্বিত ভর্তি পরীক্ষা ১২ জুন, আবেদন শুরু ২৪ এপ্রিল - dainik shiksha চুয়েট-কুয়েট-রুয়েটের সমন্বিত ভর্তি পরীক্ষা ১২ জুন, আবেদন শুরু ২৪ এপ্রিল সেই ম্যাজিস্ট্রেটকে বরিশালে বদলি - dainik shiksha সেই ম্যাজিস্ট্রেটকে বরিশালে বদলি please click here to view dainikshiksha website