‘সরকার ক্যাম্পাস বন্ধ রেখেছে আন্দোলনের আশঙ্কায়’ - বিশ্ববিদ্যালয় - দৈনিকশিক্ষা

‘সরকার ক্যাম্পাস বন্ধ রেখেছে আন্দোলনের আশঙ্কায়’

নিজস্ব প্রতিবেদক |

অনতিবিলম্বে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খুলে দেয়ার দাবি জানিয়েছে ছাত্র অধিকার পরিষদ। এ দাবিতে জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনে বিক্ষোভ করেছেন সংগঠনটির নেতাকর্মীরা। বিক্ষোভে অংশ নিয়ে ডাকসুর সাবেক ভিপি নুরুল হক নুর বলেন, ছাত্ররা যখন নিজেরাই হলে প্রবেশ করছে, তখন শিক্ষামন্ত্রী তড়িগড়ি করে সংবাদ সম্মেলন করে সব পরীক্ষা বন্ধ করে দিয়েছেন। শিক্ষার্থীরা শিক্ষামন্ত্রীর বক্তব্য প্রত্যাখ্যান করছে। দ্রুত শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খুলে দিতে হবে। তিনি বলেন, কাদের মির্জা ও আওয়ামী লীগের সার্কাসের রাজনীতির শিকার হয়ে একজন সাংবাদিক নিহত হয়েছেন। আমরা এ ঘটনার প্রতিবাদে কর্মসূচি পালন করেছি। কিন্তু সাংবাদিক সংগঠনগুলো আজ কোথায়? নুর বলেন, গণমাধ্যম সংকটময় সময় পার করছে। তারা স্বাধীন সাংবাদিকতা করতে পারছে না।

ছাত্র অধিকার পরিষদের ভারপ্রাপ্ত আহ্বায়ক মুহাম্মদ রাশেদ খাঁন বলেন, বাংলার ছাত্রসমাজ শিক্ষামন্ত্রীর বক্তব্য প্রত্যাখ্যান করছে। সরকার মনে করেছে, জাহাঙ্গীর নগর বিশ্ববিদ্যালয়সহ বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের আন্দোলন তাদের জন্য হুমকির কারণ হতে পারে। যে কারণে চক্রান্তের নীলনকশা অনুযায়ী ক্যাম্পাস বন্ধ রাখা হচ্ছে। তিনি বলেন, এই সরকার কোনো কিছুকেই ভয় পায় না, তারা শুধু ছাত্র আন্দোলনকে ভয় পায়।  ছাত্র আন্দোলন দমিয়ে রাখার জন্যই ক্যাম্পাস খুলে দেয়া হচ্ছে না।

সমাবেশে অন্য বক্তারা বলেন, প্রাতিষ্ঠানিক রাজনীতি ধবংসের পর সরকার শিক্ষা ব্যবস্থা ধবংস করতে চায়। সমস্ত কিছু চলছে, শুধু বিশ্ববিদ্যালয়গুলো চলছে না। জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ে পরীক্ষা চলছিল। হঠাৎ করেই তা বন্ধ করে দেয়া হয়েছে।

অবশেষে কার্টুনিস্ট কিশোরের জামিন - dainik shiksha অবশেষে কার্টুনিস্ট কিশোরের জামিন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খুলে দেশে দেশে বিপদ - dainik shiksha শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খুলে দেশে দেশে বিপদ ৩১ জুলাই সব কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি পরীক্ষা - dainik shiksha ৩১ জুলাই সব কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি পরীক্ষা এইচএসসির ফরম পূরণের আংশিক অর্থ ফেরত পাচ্ছেন শিক্ষার্থীরা - dainik shiksha এইচএসসির ফরম পূরণের আংশিক অর্থ ফেরত পাচ্ছেন শিক্ষার্থীরা দারুল ইহসানের অবৈধ সনদের বৈধতার উদ্যোগ, অবশেষে পিছু হটেছে মন্ত্রণালয় - dainik shiksha দারুল ইহসানের অবৈধ সনদের বৈধতার উদ্যোগ, অবশেষে পিছু হটেছে মন্ত্রণালয় ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন প্রয়োগ স্থগিত চায় জাতিসংঘ - dainik shiksha ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন প্রয়োগ স্থগিত চায় জাতিসংঘ খোলার প্রস্তুতিতে বিশ্ববিদ্যালয়গুলো পাবে ৫০ কোটি টাকা, স্কুল-কলেজের খবর নেই - dainik shiksha খোলার প্রস্তুতিতে বিশ্ববিদ্যালয়গুলো পাবে ৫০ কোটি টাকা, স্কুল-কলেজের খবর নেই করোনা টিকা : জরুরি ভিত্তিতে শিক্ষক-কর্মচারীদের তালিকা পাঠানোর নির্দেশ - dainik shiksha করোনা টিকা : জরুরি ভিত্তিতে শিক্ষক-কর্মচারীদের তালিকা পাঠানোর নির্দেশ ইবতেদায়ি প্রধানদের ১১ গ্রেডে বেতন দেয়ার নির্দেশ - dainik shiksha ইবতেদায়ি প্রধানদের ১১ গ্রেডে বেতন দেয়ার নির্দেশ please click here to view dainikshiksha website