নদীতে ঝাঁপ দেয়ার তিনদিনেও খোঁজ মেলেনি সেই মায়ের, শিশুর লাশ উদ্ধার - বিবিধ - দৈনিকশিক্ষা

নদীতে ঝাঁপ দেয়ার তিনদিনেও খোঁজ মেলেনি সেই মায়ের, শিশুর লাশ উদ্ধার

গাজীপুর প্রতিনিধি |

 গাজীপুরের কাপাসিয়া উপজেলার সিংহশ্রী এলাকায় শীতলক্ষ্যা নদীতে দুই মেয়েকে নিয়ে নদীতে ঝাঁপ দেয়া সেই মায়ের খোঁজ এখনো মিলেনি। এদিকে, তিনদিন পর শীতলক্ষ্যা নদীর নরসিংদী এলাকা থেকে মায়ের সাথে ঝাঁপ দেয়া শিশু মুর্শিদার মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

গতকাল বুধবার সন্ধ্যা পৌনে ৭টায় নরসিংদী জেলার পলাশ থানার নিজামুদ্দিন ঘাট এলাকায় শিশুর মরদেহ ভেসে থাকতে দেখে পুলিশে খবর দেয় স্থানীয়রা। পরে নৌ-পুলিশ গিয়ে ওই শিশুর মরদেহ উদ্ধার করে। পরে ওই শিশুর স্বজনদের খবর দিলে রাতেই তারা নৌ-পুলিশ ফাঁড়িতে গিয়ে মরদেহ শনাক্ত করেন।

বৃহস্পতিবার নরসিংদী বঙ্গারচর নৌ-পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ (এসআই) আমিরুল ইসলাম দৈনিক শিক্ষাডটকমকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। 

নিহত শিশুকন্যা সাত বছর বয়সী মুর্শিদা আক্তার। এ ঘটনায় এখনও নিখোঁজ রয়েছে শিশুটির মা আরিফা আক্তার। তিনি কাপাসিয়া উপজেলার রায়েদ ইউনিয়নের বিবাদিয়া গ্রামের মোহাম্মদ আলী মুন্সির মেয়ে।

আরও পড়ুন দুই শিশু নিয়ে শীতলক্ষ্যায় ঝাঁপ দিলেন মা

স্থানীয়দের বরাত দিয়ে নরসিংদী বঙ্গারচর নৌ-পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ (এসআই) আমিরুল ইসলাম দৈনিক শিক্ষাডটকমকে জানান, গতকাল বুধবার সন্ধ্যায় পলাশ থানার নিজামুদ্দিন ঘাটে একটি মরদেহ ভেসে থাকতে দেখে পুলিশে খবর দেয় স্থানীয়রা। পরে নৌ-পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে মরদেহটি উদ্ধার করে। প্রাথমিকভাবে মরদেহটি গাজীপুরের কাপাসিয়ায় শীতলক্ষ্যা নদীতে ঝাঁপ দিয়ে নিখোঁজ মা-মেয়ের মধ্যে শিশু মেয়েটির বলে শনাক্ত করি। পরে নিখোঁজদের স্বজনদের ছবি পাঠানো হয়। রাতেই তারা ফাঁড়িতে এসে মরদেহ নিখোঁজ শিশু মুর্শিদা আক্তারের বলে শনাক্ত করেন। পরে আইনগত প্রক্রিয়া শেষে মরদেহটি স্বজনদের কাছে হস্তান্তর করা হয়। 

নিহত শিশুর মামা মোজাম্মেল হোসেন দৈনিক শিক্ষাডটকমকে জানান, আমাদের এক আত্মীয় ফেসবুকে ছবি দেখে প্রথমে মরদেহ উদ্ধারের বিষয়টি জানান। এরপর নরসিংদীর পলাশ থানার বঙ্গারচর নৌ-ফাঁড়িতে যোগাযোগ করলে ছবি এবং পোশাক দেখে নিশ্চিত হই। রাতেই মরদেহ কাপাসিয়ায় নিয়ে আসি। বৃহস্পতিবার সকাল ৮টায় জানাযা শেষে তাকে দাফন করা হয়েছে।

প্রসঙ্গত, গত রোববাার বেলা ১২টার দিকে গাজীপুরের কাপাসিয়ার সিংহশ্রী গ্রামের বরামা সেতু এলাকায় শীতলক্ষ্যা নদীতে দুই মেয়েকে নিয়ে নদীতে ঝাঁপ দিয়েছিলেন মা আরিফা আক্তার। এসময় স্থানীয়রা এক শিশুকে উদ্ধার করলেও মা ও এক মেয়ে নিখোঁজ ছিলেন।

ঈদের পরে এসএসসি পরীক্ষা, তারিখ নির্ধারণ হয়নি - dainik shiksha ঈদের পরে এসএসসি পরীক্ষা, তারিখ নির্ধারণ হয়নি মিলিটারি ডিকটেটররা ছাত্রদের হাতে অস্ত্র-মাদক তুলে দিয়েছিল: প্রধানমন্ত্রী - dainik shiksha মিলিটারি ডিকটেটররা ছাত্রদের হাতে অস্ত্র-মাদক তুলে দিয়েছিল: প্রধানমন্ত্রী পদ্মাসেতু: বড় পরিবর্তনের সুযোগ শিক্ষায় - dainik shiksha পদ্মাসেতু: বড় পরিবর্তনের সুযোগ শিক্ষায় প্রাথমিকে শিক্ষক নিয়োগ : ফল পুনর্মূল্যায়ন চেয়ে ৫ পরীক্ষার্থীর রিট - dainik shiksha প্রাথমিকে শিক্ষক নিয়োগ : ফল পুনর্মূল্যায়ন চেয়ে ৫ পরীক্ষার্থীর রিট বন্যা চলে গেলেই পরীক্ষা নেয়া হবে : শিক্ষামন্ত্রী - dainik shiksha বন্যা চলে গেলেই পরীক্ষা নেয়া হবে : শিক্ষামন্ত্রী বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তিতে ডোপ টেস্ট বাধ্যতামূলক হচ্ছে : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী - dainik shiksha বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তিতে ডোপ টেস্ট বাধ্যতামূলক হচ্ছে : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ৩ জুলাই থেকে বন্ধ মাধ্যমিক বিদ্যালয় - dainik shiksha ৩ জুলাই থেকে বন্ধ মাধ্যমিক বিদ্যালয় please click here to view dainikshiksha website