মন্তব্য লিখতে লগইন অথবা রেজিস্টার করুন

মন্তব্যের তালিকা

Md.Golam faruk mithun, ১৯ নভেম্বর, ২০২০
বেসরকারি ও সরকারি শিক্ষকদের যে আকাশ পাতাল বৈষম্য ছিল তা যদি এই নীতিমালায় দূর করা হয়ে থাকে তবে অবশ্যই কৃতজ্ঞতা জানাই। আবারও বলতে চাই ২০১০ সালের নীতিমালায় সহযোগী অধ্যাপক পদে পদোন্নতির বিষয় ছিল কিন্তু কেন তা বাস্তবায়ন করা হয়নি। আবার ২০১৮ সালের নীতিমালায় তা অদৃশ্য হয়ে যায়।।তাই বৈষম্য নিরসনে অধ্যাপক পদ পর্যন্ত পদোন্নতির বিষয়ে সুস্পষ্ট কার্যকর ঘোষণা থাকতে হবে। না হলে তা হবে চরম হতাশার।আর Job Satisfied না থাকলে নতুন নতুন পদ্ধতিতে শিক্ষাদানের ক্ষেত্রে আগ্ৰহ হারিয়ে যাবে। আশাকরি শিক্ষকদের প্রাণের চাওয়া গুলো থাকবে এই নীতিমালায়। মেহনতি শিক্ষকদের জয় হোক।