please click here to view dainikshiksha website

ছাত্রলীগকে তার নিজস্ব ইতিহাস ধরে রাখতে হবে: সোহাগ

খুলনা প্রতিনিধি | জানুয়ারি ১৮, ২০১৮ - ৯:০৩ অপরাহ্ণ
dainikshiksha print

ছাত্রলীগের সভাপতি সাইফুর রহমান সোহাগ বলেছেন, ছাত্রলীগ একটি আদর্শিক ছাত্রসংগঠন। ছাত্রলীগের যে গৌরবোজ্জ্বল ইতিহাস ও ঐতিহ্য রয়েছে, তা অন্য কারো নেই। সেই ইতিহাস ও ঐতিহ্য ধরে রাখতে ছাত্রলীগের প্রতিটি নেতাকর্মীকে ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করতে হবে। আগামী সংসদ নির্বাচনে শেখ হাসিনা ঘোষিত প্রার্থীকে বিজয়ী করতে সবাইকে এখন থেকে ঝাঁপিয়ে পড়তে হবে।

বৃহস্পতিবার দুপুরে নগরীর শহীদ হাদিস পার্কে এক আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।

৭০তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে খুলনা মহানগর, জেলা ও কুয়েট ছাত্রলীগ এই আলোচনা সভার আয়োজন করে। আলোচনা সভা শেষে সাবেক ছাত্রলীগ নেতা ও বীর মুক্তিযোদ্ধাদের সংবর্ধনা দেওয়া হয়।

খুলনা মহানগর ছাত্রলীগের সভাপতি শেখ শাহজালাল হোসেন সুজনের সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখেন জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান শেখ হারুনুর রশিদ। বিশেষ অতিথি ছিলেন মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও খুলনা-২ আসনের সংসদ সদস্য মিজানুর রহমান মিজান।

আলোচনা সভায় বিশেষ বক্তব্যে ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক এসএম জাকির হুসাইন বলেন, ছাত্রলীগ বঙ্গবন্ধুর নিজস্ব হাতে গড়া সংগঠন। অতীতে দেশের যে কোনো ক্রান্তিলগ্নে আলোকবর্তিকা হিসেবে আবির্ভূত হয়েছে ছাত্রলীগ। আগামীতেও ছাত্র সমাজের পথপ্রদর্শক হিসেবে কাজ করবে ছাত্রলীগ।

আলোচনা সভা পরিচালনা করেন মহানগর ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক আসাদুজ্জামান রাসেল, জেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক মো. ইমরান হোসেন এবং কুয়েট ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক সাদমান নাহিয়ান সেজান।

এ সময় বক্তব্য রাখেন ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি এইচএম বদিউজ্জামান সোহাগ, ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় সহ-সভাপতি তোফাজ্জল হোসেন চয়ন, সাইদুর রহমান সাদ, এসএম আবদুর রহিম তুহিন, সাবিক হাসান সুইম, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাধারণ সম্পাদক মোতাহার হোসেন প্রিন্স, মুক্তিযোদ্ধাবিষয়ক সম্পাদক নূরে আলম আশিক, বেসরকারি বিষয়ক সম্পাদক আসিফ ইকবাল অনিক, উপ-পাঠাগার সম্পাদক আলীমুল হক, সাগর হোসেন সোহাগ।

স্বাগত বক্তব্য রাখেন, জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি মো. পারভেজ হাওলাদার এবং কুয়েট ছাত্রলীগের সভাপতি আবুল হাসান শোভন। আলোচনা সভা শেষে বর্তমান সরকারের বিভিন্ন উন্নয়নমূলক কর্মকাণ্ড তুলে ধরে নগরীতে বর্ণাঢ্য র‌্যালি বের করা হয়।

সংবাদটি শেয়ার করুন:


আপনার মন্তব্য দিন